ঢাকা, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, বুধবার, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৭ শাওয়াল ১৪৪৫ হিঃ

রাজনীতি

নতুন রাজনৈতিক দলের ঘোষণা দিলেন শাহেদা ওবায়েদ

স্টাফ রিপোর্টার

(১ মাস আগে) ২ মার্চ ২০২৪, শনিবার, ৯:১৯ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট: ৪:৫৭ অপরাহ্ন

mzamin

দেশের নতুন রাজনৈতিক দল গঠনের ঘোষণা দিয়েছেন বিএনপির সাবেক মহাসচিব কেএম ওবায়দুর রহমানের স্ত্রী শাহেদা ওবায়েদ। তার দলের নাম হচ্ছে ‘ডেমোক্রেটিক রিফর্মস পার্টি’ (ডিআরপি) বা ‘গণতান্ত্রিক সংস্কার পার্টি’। শাহেদা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক শামা ওবায়েদের মা। শনিবার রাজধানীর জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন তিনি। নতুন দলের আহ্বায়ক হিসেবে থাকছেন শাহেদা ওবায়েদ।

সংবাদ সম্মেলনের শুরুতে দল গঠনের উদ্দেশ্য এবং ঘোষণাপত্র পাঠ করেন দলের মহা-সমন্বয়ক মেজর (অব.) আমীন আহমেদ আফসারী।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন রাজিয়া চৌধুরী, জহিরুল ইসলাম, আফাজুল হক, কমরেড সাব্বির, জাহাঙ্গীর আলম।

সংবাদ সম্মেলনে শাহেদা ওবায়েদ বলেন, আমরা একটি নতুন রাজনৈতিক দলের যাত্রা শুরু করেছি। আমাদের এটি প্রথম পদক্ষেপ। এই দলটির নাম হচ্ছে ‘ডেমোক্রেটিক রিফর্মস পার্টি’-ডিআরপি। বাংলায় হচ্ছে ‘গণতান্ত্রিক সংস্কার পার্টি’। দল গঠনের উদ্দেশ্য তুলে ধরে শাহেদা ওবায়েদ বলেন, ‘৩০-৩৫ বছর ধরে আপনারা সবাই জানেন দেশে দলীয়করণ, তারপরে পরিবারকরণ, বর্তমানে আমিকরণ এসব করণ থেকে আমরা দেশকে মুক্ত দেখতে চাই। আমরা যোগ্য মেধাবী, দক্ষ ও দেশপ্রেমিক মানুষের মূল্যায়ন চাই।

বিজ্ঞাপন
আজকে সেই উদ্দেশেই আমাদের পা রাখা।’ সংবাদ সম্মেলনে নতুন দল গঠন করলেও নির্বাচন না করার কথা জানান তিনি। শাহেদা বলেন, আমি নির্বাচন করব না। কিন্তু তারপরও আমি চাই, একটা শুরু হোক। আমি মনে করি, ভালো একটা শুরু হলে, ভালো কিছু লোক নিয়ে শুরু করতে পারলে নিশ্চয়ই আমরা এগিয়ে যেতে পারব। দলে কারা থাকছেন জানতে চাইলে শাহেদা ওবায়েদ বলেন, অতীতের বিতর্কিত কেউ থাকছে না। আমরা তাদের সঙ্গে কাজ করতেও চাই না। আমরা নতুনদের নিয়ে কাজ করতে চাই। 

শাহেদা ওবায়েদ দীর্ঘদিন ‘গড়ব বাংলাদেশ’ নামে একটি সংগঠনের আহ্বায়ক ছিলেন। ২০১৯ সালের দিকে এই সংগঠনের ব্যানারে তিনি বিএনপি এবং দলটির নেতৃত্বের কঠোর সমালোচনা করে আলোচনায় আসেন। ওই সময় তিনি বলেছিলেন, বিএনপি কোনো রাজনৈতিক দল নয়, এটি মা ও ছেলের রাজনৈতিক সমিতি হয়ে দাঁড়িয়েছে।

শাহেদা ওবায়েদের স্বামী ওবায়দুর রহমান বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের পর খন্দকার মোশতাক আহমেদের মন্ত্রিসভায় যোগ দিয়েছিলেন। ১৯৮৬ সালে বিএনপির মহাসচিব হলে পরে বহিষ্কৃতও হন। পরে ফের বিএনপিতে যোগ দিয়ে ১৯৯৬ সালে দলটির এমপি হন। ২০০১ সালে বিএনপি সরকারের সময়ে ঢাকা শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান হন তার স্ত্রী শাহেদা ওবায়েদ। তিতুমীর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষও হন শাহেদা।

পাঠকের মতামত

মেয়েটার রাজনীতি নষ্ট করতেই এমন স্বিদ্ধান্ত মায়ের , জেলাসি ।

শফিকুল আলম
৫ মার্চ ২০২৪, মঙ্গলবার, ২:৩৩ পূর্বাহ্ন

Naya pagol with a new agenda.

Azim Huq
৩ মার্চ ২০২৪, রবিবার, ৩:৩৭ পূর্বাহ্ন

নির্বাচনের আগেও কিংস পার্টি দেখেছি ৪৪টি - তারা বিলুপ্ত ?

ASS AALAM
২ মার্চ ২০২৪, শনিবার, ১১:৫৭ অপরাহ্ন

দল গঠন করলেই কিংস পার্টি হওয়া যায়, কত সুযোগসুবিধা...............।

SHUVO
২ মার্চ ২০২৪, শনিবার, ৯:০৩ অপরাহ্ন

হাসি পেল আপনার দল গঠনের কথা শুনে। আপনি এসব বাদ দিয়ে মেয়ের সাথে কাজ করেন। আপনার পরিচয় কিন্তু কেএম ওবায়দুর রহমানের স্ত্রী এর বাইরে অন্য কোনো পরিচয়ে আপনাকে কেউ চিনে না।

জামান
২ মার্চ ২০২৪, শনিবার, ৭:৩১ অপরাহ্ন

কাজটা শামা ওবায়েদের জন্য ভাল না ও হতে পারে।

Mortuza Huq
২ মার্চ ২০২৪, শনিবার, ১:৩০ অপরাহ্ন

রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

   

রাজনীতি সর্বাধিক পঠিত

পিটার হাসকে ওবায়দুল কাদেরের প্রশ্ন/ যুক্তরাষ্ট্র গণতন্ত্রে কত ধাপ পিছিয়েছে

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2024
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status