ঢাকা, ২২ মে ২০২২, রবিবার, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২০ শাওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

বাংলারজমিন

নড়াইলে গৃহকর্মী হত্যা

হুমায়ুন কবীর রিন্টু, নড়াইল থেকে
১৫ মে ২০২২, রবিবার

নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার রাজাপুর গ্রামে ধর্ষণের পর আফরোজা বেগম (৩৫) নামে এক কাজের বুয়াকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। লোহাগড়া উপজেলার কামারগ্রাম-রাজাপুর খাল খনন করতে এসে ভেকু ব্যবসায়ী ও চালকরা কাজের বুয়াকে ধর্ষণপূর্বক হত্যা করে পালিয়ে যায় বলে পরিবারের  অভিযোগ। ফরিদপুরের বোয়ালমারি থানার বঙ্গেস্বরদি গ্রামের মনির হোসেন শনিবার  সাংবাদিকদের জানান, তার বিধবা বোন আফরোজা রাজাপুর গ্রামে আক্কাস মোল্যার বাড়ির ভাড়াটিয়া ভেকু ব্যবসায়ী ও ভেকুর চালকদের রান্নার কাজ করতেন। গত ৬ই এপ্রিল তাকে জানানো হয় তার বোন আফরোজা গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। ওই দিন পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায়। এ সময় পুলিশ স্থানীয় সাক্ষী রাজাপুর গ্রামের নুর উদ্দিন এবং আড়পাড়া গ্রামের নাজিম উদ্দিনের উপস্থিতিতে মৃত আফরোজার ব্যবহৃত পেটিকোট ও ব্লাউজ উদ্ধার করে। গত ১০ই এপ্রিল পুলিশ নড়াইল সদর হাসপাতালে ফরেনসিক পরীক্ষার জন্য পাঠায়। এদিকে আফরোজার লাশ ফেলে রেখে পালিয়ে যায়  ভেকু ব্যবসায়ী এবং চালকরা। নিহত আফরোজার ভাই মনির হোসেনের অভিযোগ, ভেকু ব্যবসায়ী সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ইটগাছা পূর্বপাড়ার দ্বীন আলী গাজীর ছেলে বিল্লাল গাজী (২৮), ভেকুচালক খুলনার কয়রা থানা শহরের কামরুল ফকিরের ছেলে আছাদুল ফকির (৩৫) ও সাতক্ষীরার আশাশুনি থানার আনুলিয়া গ্রামের নুর মোহাম্মদের ছেলে নুরুজ্জামান (৩৮) এবং তাদের অপর ২ সহযোগী মিলে গণধর্ষণ করে শ্বাসরোধে হত্যার পর আফরোজার লাশ ঘরের মধ্যে ঝুলিয়ে রাখে। এরপর ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনা চাপা দিতে আত্মহত্যা বলে প্রচার করে

বিজ্ঞাপন
এ ঘটনায় কোনো কিছু না করার জন্য তারা মনির হোসেনকে একদিকে কিছু টাকা দেয়ার প্রলোভন দেয় অপরদিকে হুমকি দেয়। কান্নাজড়িত কণ্ঠে মনির হোসেন বলেন, ফুফাতো ভাইয়ের মাধ্যমে চলতি বছরের ২০শে মার্চ তার পূর্ব পরিচিত ভেকু ব্যবসায়ী ও চালকদের রান্নার কাজে দিয়েছিলেন বিধবা বোনকে। গত ৫ই এপ্রিল রাতে ধর্ষণের পর নরপিশাচরা তাকে নির্মমভাবে নির্যাতন করে হত্যার পর ঘরের ডাবা’র সঙ্গে ঝুলিয়ে রাখে। তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন ছিল। ভেকু  ব্যবসায়ী ও চালকদের বাড়ির নির্দিষ্ট ঠিকানায় খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, তারা এ ঘটনার পর থেকে বেশির ভাগ সময় গাঢাকা দিয়ে থাকে। বাড়িতে খুব কম যায়। লোহাগড়া থানার ওসি শেখ আবু হেনা মিলন বলেন, ময়নাতদন্ত ও ফরেনসিক রেজাল্ট পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

বাংলারজমিন থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com