ঢাকা, ৭ ডিসেম্বর ২০২২, বুধবার, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিঃ

শেষের পাতা

হাজারীবাগে বিএনপির সমাবেশ

আওয়ামী লীগের উন্নয়ন মানুষের গলার ফাঁস

স্টাফ রিপোর্টার
২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, মঙ্গলবারmzamin

বিএনপি স্থায়ী কমিটির সদস্য ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু বলেছেন, সরকারের দুঃশাসনে দেশের মানুষ অতিষ্ঠ হয়ে গেছে। দ্রব্যমূল্যের কারণে মানুষ অসহায়। তারা দেশকে শ্মশানে পরিণত করেছে। আমরা বাংলাদেশকে বাংলাদেশের অবস্থানে নিয়ে আসতে চাই। তারা বিদেশ থেকে ঋণ এনে উন্নয়ন করছে। আর তা দেশের মানুষের গলার ফাঁসে পরিণত হয়েছে। 

গতকাল বিকালে রাজধানীর হাজারীবাগে সিকদার মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সংলগ্ন মাঠে ঢাকা মহানগর দক্ষিণের লালবাগ, হাজারীবাগ, নিউমার্কেট, ধানমণ্ডি থানা বিএনপির উদ্যোগে আয়োজিত প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধি, লোডশেডিং, গণপরিবহনের ভাড়া বৃদ্ধি, নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্যবৃদ্ধি, পুলিশের গুলিতে দলীয় নেতা নুরে আলম, আব্দুর রহিম, শাওন প্রধানের হত্যার প্রতিবাদে ঢাকা মহানগরীর ১৬টি স্পটে ধারাবাহিক সমাবেশের অংশ হিসেবে এই প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করা হয়। 
হাজারীবাগে সমাবেশ শুরু হওয়ার আগেই আওয়ামী লীগ ও বিএনপি’র নেতাকর্মীদের মধ্য টালি অফিস রোডে এক দফা সংঘর্ষ ও পাল্টাপাল্টি ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এতে দু’পক্ষেরই বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। এর আগে ধানমণ্ডির শংকর বাসস্ট্যান্ডে এ সমাবেশ হওয়ার কথা ছিল। সেখানে সমাবেশ করতে না পেরে সমাবেশের স্থান পরিবর্তন করা হয়। 

টুকু বলেন, আওয়ামী লীগের অনেকের মুখে একটা বুলি হয়ে গেছে বিএনপি-জামায়াত, বিএনপি-জামায়াত।

বিজ্ঞাপন
আমি বলছি, এখন সময় এসেছে, আওয়ামী লীগ-জামায়াত, আওয়ামী লীগ-জামায়াত বলার। জামায়াতও উর্দু, আওয়ামী লীগও উর্দু। দুটো একসঙ্গে মিলবে ভালো। কেন না ওনারা জামায়াতের নিবন্ধন বাতিল করেন। কিন্তু বেআইনি ঘোষণা করেন না। তাহলে কী আমি বলবো, ওনাদের (জামায়াত-আওয়ামী লীগের) পরকীয়া চলছে?
তিনি বলেন, এই দেশের মন্ত্রিপরিষদ সচিব অন্যায় দেখতে দেখতে অসহ্য হয়ে গেছেন। তিনি কয়দিন আগে অফিসারদের মিটিংয়ে বললেন, আমাদের যে বহিঃসম্পদ বিভাগ আছে তারা চুরি করার জন্য বিদেশ থেকে ঋণ নিয়ে আসে। ঋণ নিয়ে এসে চুক্তি করে প্ল্যানিং কমিশনে পাঠায়, তারা সেটা পাস করে দেয়। পরে সেই ঋণ আমাদের গলার ফাঁস হয়ে যায়। এটা বাংলাদেশের কেবিনেট সচিবের কথা, যিনি এখনো চাকরিতে বহাল আছেন।
তিনি বলেন, আজকে ওসির অনুমতি নিয়ে আমরা মিটিং করছি। দেশটাকে আজকে কোথায় নিয়ে গেছে। কাল রাত থেকে এখানে না ওখানে, ওখানে না সেখানে। হায়রে আমার বাংলাদেশ। এজন্য আমি মুক্তিযুদ্ধ করেছি। আর আজকে ওসির অনুমতি নিয়ে মিটিং করতে হবে। তারা বলে দেশে নাকি গণতন্ত্র আছে। তিনি প্রশ্ন রেখে বলেন, গণতন্ত্রই যদি থাকত তাহলে আমাকে ওসি’র অনুমতি নিয়ে কেন মিটিং করতে হবে?

ঢাকা মহানগর দক্ষিণের যুগ্ম আহ্বায়ক সিরাজুল ইসলাম সিরাজের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরও বক্তৃতা করেন বিএনপি’র ভাইস চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর বীরউত্তম, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবুল খায়ের ভূঁইয়া, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপি’র আহ্বায়ক আবদুস সালাম, বিএনপির প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী সপু, বিএনপি চেয়ারপারসনের বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস, রফিকুল আলম মজনু, ইউনুস মৃধা, গোলাম মাওলা শাহীন, ইয়াসিন আলী, জাহাঙ্গীর হোসেন পাটোয়ারী, হাবিবুর রহমান হাবিব, বাবুল রানা, সাঈদ হাসান মিন্টুসহ প্রমুখ।

শেষের পাতা থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

শেষের পাতা সর্বাধিক পঠিত

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status