ঢাকা, ৫ অক্টোবর ২০২৩, বৃহস্পতিবার, ২০ আশ্বিন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৫ হিঃ

শরীর ও মন

পায়ের আঙ্গুলের ফাঁকে যদি ঘা হয়

৭ জুলাই ২০২৩, শুক্রবারmzamin

বিশেষ করে বর্ষাকালে স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়া ও অতি বৃষ্টি হলে পায়ের আঙ্গুলের ফাঁকে ফাঁকে ঘা হওয়ার সমস্যায় অনেকেই ভোগেন। দেখা যায়  এ সময় যারা বৃষ্টিতে বেশি  কাজ করেন  আবার কারো পা নোংরা ও স্যাঁতস্যাঁতে থাকার কারণে এ সমস্যা বেশি হয়। আবার দীর্ঘক্ষণ জুতা- মোজা পরে থাকার কারণেও এমনটি ঘটতে পারে। মূলত ছত্রাকঘটিত সংক্রমণের কারণেই এমনটি ঘটে।
শরীরের কোথাও ছত্রাকের সংক্রমণকে মেডিকেলের  পরিভাষায় ‘টিনিয়া’ বলা হয়। আর পায়ে যদি ছত্রাক সংক্রমণ হয় তখন তাকে বলা হয় ‘টিনিয়া পেডিস’। টিনিয়া পেডিস মূলত: ‘ট্রাইকোফাইটন রুবরাম’ নামক এক প্রকার ফাঙ্গাসের কারণে হয়।
ট্রাইকোফাইটন পরিবেশের সঙ্গে সঙ্গে মাটিতেও মিশে থাকে। মাটি থেকেই এই ফাঙ্গাস মানুষের পায়ে সংক্রমণ ঘটায়। খালি পায়ে যারা হাঁটেন, তারাই বেশি এই রোগে আক্রান্ত হন।

পায়ের যে স্থানে বেশি হয়
মূলত: পায়ের আঙুলের কোণায় বেশি হয়, বৃদ্ধাঙ্গুলির ফাঁকে, পায়ের তালুতে ও পায়ের অন্যান্য আঙ্গুুলের উপরিভাগে ও কোণায় এই ঘা হয়। আর্দ্র পরিবেশে থাকলে এ সমস্যা হওয়ার ঝুঁকি বাড়ে। 

উপসগ সমূহ
দেখা যায় এ সমস্যাটি বেশির ভাগ ক্ষেত্রে আঙ্গুলের কোণায় লালচে হয়ে ক্ষত হয় যায়। প্রচুর চুলকাতে ইচ্ছা হয়।

বিজ্ঞাপন
অনেক বেড়ে গেলে ব্যথা হয়। আঙ্গুলের উপরিভাগে হলে তা মোটা হয়ে যায় ও স্কেলি লেসন দেখা যায়।
শরীরের অন্যান্য স্থানে যেমন- গোলাকার লেসন হয়। টিনিয়া পেডিসের ক্ষেত্রে সেরকম হয় না, চুলকাতে চুলকাতে লাল হয়ে পানি বের হয়ে যেতে পারে ও চিকিৎসা না করালে সেকেন্ডারি ইনফেকশন ডেভেলপ করে।
অনেকে একজিমার সঙ্গে একে মিশিয়ে ফেলেন। একজিমা অধিকাংশ সময় দু’পায়েই হয়। ফাঙ্গাল ইনফেকশন একটু ব্যতিক্রম।
অনেকের ক্ষেত্রে কন্টাক্ট ডার্মাটাইটিস হওয়ার পরে সেখানে ফাঙ্গাল ইনফেকশন হয়। আঙ্গুলের ফাঁকে হলে তাকে ইন্টার ডিজিটাল টিনিয়া পেডিস বলে।

করণীয়
অবশ্যই পা পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন  রাখতে  হবে। যাদের প্রতি বছরই এ সমস্যা দেখা দেয় তারা  পা শুকনা রাখবেন এবং অবশ্যই খালি পায়ে হাঁটবেন না।  আর   জুতা পরে হাঁটার ক্ষেত্রে সচেতন হতে হবে। একবার টিনিয়া পেডিস হলে দ্রুত ডার্মাটাইটিস চিকিৎসকের  শরণাপন্ন হতে  হবে।

লেখক: চর্ম, অ্যালার্জি ও যৌন বিশেষজ্ঞ 
আল-রাজী হাসপাতাল প্রাইভেট লিমিটেড
১২, ফার্মগেট, ঢাকা। ০১৭১৫-৬১৬২০০

শরীর ও মন থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2023
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status