ঢাকা, ২৫ জুন ২০২২, শনিবার, ১১ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৪ জিলক্বদ ১৪৪৩ হিঃ

শিক্ষাঙ্গন

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগে অভিযোগ বক্স সচলের নির্দেশ

স্টাফ রিপোর্টার

(৪ সপ্তাহ আগে) ২৬ মে ২০২২, বৃহস্পতিবার, ৫:৫১ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট: ১১:১৪ পূর্বাহ্ন

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের প্রত্যেকটি  অফিসে অভিযোগ বক্স স্থাপনের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এছাড়াও সেবা গ্রহীতাদের হয়রানী বন্ধ এবং দুর্নীতি প্রতিরোধের লক্ষ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের অধীন সকল দপ্তরে থাকা অভিযোগ বক্সগুলো সচল করার নির্দেশ দিয়েছেন সচিব মো. আবু বকর ছিদ্দীক।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের গণসংযোগ বিভাগ থেকে পাঠানো বার্তায় আরও বলা হয়, এই অভিযোগ বক্সের চাবি থাকবে অফিস প্রধানের কাছে। তিনিই খুলবেন মাসে একবার।  খোলার পরে কোন কিছু না পড়েই প্রত্যেক অভিযোগ আগে রেজিস্টারে লিপিবদ্ধ করতে হবে এবং প্রত্যেক মাসে অভিযোগের বিষয়ে কী ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে তা বিভাগের মাসিক সমন্বয় সভায় আলোচনা হবে।

দুর্নীতি দমন কমিশন কতৃক প্রদত্ত মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের দুর্নীতির প্রতিবেদন এবং তা প্রতিরোধে করণীয় সংক্রান্ত সুপারিশমালার বিষয়ে মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত এক সভায় তিনি এই নির্দেশ দেন। মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আবু বকর ছিদ্দীকের সভাপতিত্বে সভায় মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা এবং অধীনস্ত বিভন্ন দপ্তর সংস্থার প্রধানগণ উপস্থিত ছিলেন।
মো. আবু বকর সকলের উদ্দেশ্যে  বলেন, শিক্ষা সব কিছুর উপরে। আমরা শিক্ষা সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা যদি আলোকিত না হই তাহলে অন্যরা কিভাবে আলোকিত হবে। আমাদের উদাহরণ স্থাপন করতে হবে। আমাদের সততা, নিষ্ঠা ও আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করতে হবে।

তিনি মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের বিভিন্ন দপ্তর, সংস্থার দুর্নীতির বিষয়ে দুর্নীতি দমন কমিশনের প্রদত্ত প্রতিবেদনের বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে আলোচনা করেন এবং সংশ্লিষ্ট সংস্থা ও বিভাগকে ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দেন।

সচিব বলেন, বেসরকারি স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা ও কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের আর্থিক এবং প্রশাসনিক অনিয়মও দুর্নীতির তথ্য উদঘাটনের দায়িত্ব পরিদর্শন ও নিরীক্ষা অধিদপ্তরের। মূলত এই প্রতিষ্ঠান দুর্নীতিতে নিমজ্জিত হওয়ার অভিযোগ করেছে দুদক। তিনি গত দশ বছরে দুর্নীতি অনুসন্ধানে এই প্রতিষ্ঠান কার্যকর কি পদক্ষেপ নিয়েছে তার প্রতিবেদন দিতে নির্দেশ প্রদান করেছেন।

বিজ্ঞাপন
তাছাড়া শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের কোন কর্মকর্তা বেনামে ঠিকাদারীর সঙ্গে জড়িত কি না তার তথ্য জানতে চেয়েছেন তিনি এবং পাঠ্যপুস্তক মুদ্রনের টেন্ডার প্রক্রিয়া, পাঠ্য বইয়ের পান্ডুলিপি  কতিপয় প্রকাশকের নিকট অননুমোদিতভাবে সরবরাহসহ অবৈধ কোচিং বাণিজ্য বন্ধে কার্যকর ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ প্রদান করেন।

শিক্ষাঙ্গন থেকে আরও পড়ুন

শিক্ষাঙ্গন থেকে সর্বাধিক পঠিত

প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com