ঢাকা, ৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, মঙ্গলবার, ২৪ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৫ রজব ১৪৪৪ হিঃ

শরীর ও মন

সাবধান! দেরিতে খেলেই বাড়বে ক্যালোরি

মানবজমিন ডিজিটাল

(৩ মাস আগে) ৭ অক্টোবর ২০২২, শুক্রবার, ৪:৩৭ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট: ৩:১৩ অপরাহ্ন

mzamin

একটি নতুন গবেষণা থেকে জানা গেছে যে, দিনে দেরি করে খেলে আমাদের জৈবিক ওজন প্রভাবিত হয়।  এটি আমাদের শরীরের  ক্যালোরি, ক্ষুধার মাত্রা এবং  শরীরের  চর্বি সঞ্চয়ের ওপর প্রভাব ফেলে। স্থূলতা এখন বিশ্বব্যাপী কয়েক মিলিয়ন মানুষকে প্রভাবিত করে, এটি একটি মূল্যবান প্রশ্ন যে, কীভাবে স্থূল হওয়ার ঝুঁকি তুলনামূলকভাবে সহজ উপায়ে কমানো যেতে পারে সময়ে খাবার খাওয়ার মাধ্যমে। এর আগেই খাবারের সময় এবং ওজন বৃদ্ধির মধ্যে একটি যোগসূত্র পেয়েছিলেন গবেষকরা। এবার এর সঙ্গে যুক্ত জৈবিক কারণগুলি তারা  খুঁজে পেয়েছেন।

বোস্টনের ব্রিগহাম অ্যান্ড উইমেন হাসপাতালের স্নায়ুবিজ্ঞানী ফ্রাঙ্ক শিয়ার বলেছেন, "আমরা এমন প্রক্রিয়াগুলি পরীক্ষা করতে চেয়েছিলাম যা ব্যাখ্যা করতে পারে যে কেন দেরি করে খাওয়া স্থূলতার ঝুঁকি বাড়ায়। আমাদের এবং অন্যদের দ্বারা পূর্ববর্তী গবেষণায় দেখা গেছে যে, দেরিতে খাওয়া স্থূলতার ঝুঁকি বৃদ্ধি, শরীরের চর্বি বৃদ্ধি এবং ওজন বৃদ্ধির  সাথে সম্পর্কিত।"

গবেষণাটি কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রিত ছিল এবং অতিরিক্ত ওজন বা স্থূল পরিসরে বডি মাস ইনডেক্স (BMI) সহ ১৬জন অংশগ্রহণকারীকে নিয়ে পরীক্ষাটি করা হয়েছিল। প্রতিটি স্বেচ্ছাসেবক ছয় দিন ধরে দুটি ভিন্ন পরীক্ষার মধ্য দিয়ে গেছে, তাদের ঘুমানো এবং খাওয়া আগে থেকে কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রিত ছিলো।  পরীক্ষায় একদল অংশগ্রহণকারীদের  সকাল ৯ টায় প্রাতঃরাশ, দুপুর ১ টায় দুপুরের খাবার এবং সন্ধ্যা ৬ টায় রাতের খাবার দেয়া হতো । অন্য অংশগ্রহণকারীদের  প্রথম খাবার দেয়া হতো  বেলা ১ টার দিকে এবং শেষটি রাত ৯ টার দিকে। পরীক্ষার পর রক্তের নমুনা এবং অন্যান্য পরিমাপের মাধ্যমে গবেষক দলটি বেশ কয়েকটি পর্যবেক্ষণ করতে সক্ষম হয়েছিল।

হরমোনে  লেপটিনের মাত্রা জানান দেয় যে, কখন আমাদের পেট ভর্তি এবং কখন খালি।

বিজ্ঞাপন
 দেরি করে খেলে শরীরের ক্যালোরিগুলি ধীর গতিতে পোড়ে। পরীক্ষাগুলি আরও দেখিয়েছে যে, অ্যাডিপোজ টিস্যু জিনের অভিব্যক্তি - যা শরীর কীভাবে চর্বি সঞ্চয় করে তা প্রভাবিত করে।   অ্যাডিপোজেনেসিস প্রক্রিয়া চর্বি টিস্যু তৈরি করে এবং লিপোলাইসিস প্রক্রিয়া হ্রাস করে যা চর্বি ভেঙে দেয়। শারীরবৃত্তীয় এবং আণবিক প্রক্রিয়াগুলির সংমিশ্রণ থেকে জানা গেছে যে, দেরি করে খেলে স্থূলতার ঝুঁকি বাড়ে। গবেষক স্কিয়ার বলেছেন -''আমরা ক্যালোরি গ্রহণ, শারীরিক কার্যকলাপ, ঘুম এবং আলোর এক্সপোজারের মতো  প্রভাবগুলিকে বিচ্ছিন্ন করেছি, কিন্তু বাস্তব জীবনে, এই কারণগুলির মধ্যে অনেকগুলি নিজেরাই খাবারের সময় দ্বারা প্রভাবিত হতে পারে।" 

অবশ্যই স্থূলতা ডায়াবেটিস এবং ক্যান্সারসহ অন্যান্য স্বাস্থ্য সমস্যাগুলির দিকে আমাদের নিয়ে যেতে পারে এবং তাই প্রথম থেকেই  এটিকে থামানোর উপায়গুলি খুঁজে বের করা প্রয়োজন। এই সমীক্ষাটি যা দেখায় তা হলো- সময়ে খাওয়া আমাদের দেহের শক্তির ভারসাম্য এবং  স্থূলতার ঝুঁকি কমায়। এমনকি সময়মতো খেলে  ডায়েট বা ব্যায়ামের পেছনে সময় ব্যয় করারও প্রয়োজন পড়ে না।  ভবিষ্যতে, এই গবেষক দলটি পরীক্ষা করে দেখতে চায় - কীভাবে খাওয়ার সময়ের সাথে ঘুম সম্পর্কিত।  গোটা গবেষণাটি সেল মেটাবলিজম-এ প্রকাশিত হয়েছে।

সূত্র : sciencealert.com

শরীর ও মন থেকে আরও পড়ুন

শরীর ও মন সর্বাধিক পঠিত

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: news@emanabzamin.com
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status