ঢাকা, ১৬ আগস্ট ২০২২, মঙ্গলবার, ১ ভাদ্র ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৭ মহরম ১৪৪৪ হিঃ

শরীর ও মন

ঈদে সুস্থ থাকতে মাংস খাওয়ার নিয়ম

ডা. মোহাম্মদ তানভীর জালাল
৯ জুলাই ২০২২, শনিবার

কোরবানি বা ঈদুল আজহার উৎসবে বিভিন্ন স্বাদ ও গন্ধে রান্না করা মজাদার মাংসের খাবারগুলো খেতে (প্রায়) সবারই ভালো লাগে। তবে স্বাদ ও গন্ধের লোভে মজাদার মাংস কিন্তু সুস্থ থাকতে পরিমিত মাংস খেতে হবে। দেখা যায় অতিরিক্ত গরু বা বকরার মাংস খেলে হঠাৎই কিছু রোগ দেখা দেয়। এ রোগগুলো সম্পর্কে জানা এবং পরিমিত মাংস খেলে ঈদে ভালো থাকা যায়।  

কোষ্ঠকাঠিন্য, কোলন ক্যান্সার ও মলাশয়ের রোগ 

স্বাভাবিকভাবে বেশি পরিমাণে গরু, খাসি বা বকরার মাংস খেলে হঠাৎই কোষ্ঠকাঠিন্য হওয়ার ঝুঁঁকি বেড়ে যায়। কোষ্ঠকাঠিন্য থেকেই পরবর্তীতে আরও বেশ কিছু রোগ হতে দেখা যায়। সহজ কথায়, বেশি পরিমাণ মাংস খেলে সেটা শরীরে নানান রোগের সূত্রপাত ঘটায়। দেখা গেছে শুধু বেশি পরিমাণে মাং খাওয়ার কারণে কোলন ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি অন্যদের তুলনায় শতকরা ১২ ভাগ বেশি। এছাড়া মাংসের সঙ্গে চর্বি খাওয়ার ফলে মলাশয়ের অন্যান্য রোগগুলো জেগে ওঠে।  

উচ্চ রক্তচাপ ও হৃদরোগ

  গরুর মাংসের মাত্রাতিরিক্ত সোডিয়াম শরীরের জন্য বেশ ক্ষতিকর।

বিজ্ঞাপন
বিশেষ করে উচ্চ রক্তচাপ সৃষ্টি এবং বৃদ্ধিতে সোডিয়াম বেশ কার্যকর। যার ফলে পরবর্তীতে হৃদরোগ ও স্ট্রোকের ঝুঁকি বৃদ্ধি পায়। অন্যদিকে একটি গবেষণা বলছে, যারা নিয়মিত লাল মাংস আহার করেন, তাদের মধ্যে ধূমপান, মদ্যপানসহ বিভিন্ন বদভ্যাস গড়ে ওঠে। আর এগুলো ধীরে ধীরে হৃদরোগ ও ক্যান্সারের দিকে নিয়ে যায়। যা সর্বনাশের কারণ।  

ক্যান্সার ও কিডনি রোগের কারণ

  বেশি বেশি মাংস খেলে এর মাত্রাতিরিক্ত প্রোটিনের কারণে কিডনি রোগ হতে পারে। এছাড়া রক্তে ইউরিক এসিডের মাত্রাও বেড়ে যেতে পারে। এছাড়া লাল মাংস প্রতিদিন খেলে খেলে ফুসফুস ক্যান্সার, খাদ্যনালীর ক্যান্সার, লিভার ক্যান্সার ও অগ্নাশয় ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।  

ডায়াবেটিস 

যারা ডায়াবেটিসের রোগী তাদের প্রতিদিনই নিয়ম করে খেতে হয়। সাধারণত দুপুরে ভাতের সঙ্গে এক টুকরো মাংস একজন ডায়াবেটিস রোগী খেতে পারেন। দেখা যায় কিছু আত্মীয়স্বজন বা প্রতিবেশী বলে থাকে ‘ঈদের সময় বেশি মাংস খেলে ক্ষতি নেই’ এটিই মূলত সর্বনাশের কারণ। তাই যারা ডায়াবেটিস রোগী তারা অবশ্যই ঈদে মাংস খাবেন তাতে কোনো মানা নেই। তবে নিয়ম মেনে। কেননা, ডায়াবেটিস রোগীরা অতিরিক্ত মাংস খাওয়ার কারণে মারাত্মক ঝুঁকিতে থাকেন। এছাড়া বেশি মাংস খাওয়ার কারণে ওজন বেড়ে অন্য রোগও হতে পারে।  

যে পরিমাণ মাংস খেতে পারবেন 

 দেখা যায় মাংসে আছে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন, ভিটামিন-বি কমপ্লেক্স, আয়রণ, জিংক যা আমাদের শরীরের জন্য অনেক উপকারী। গবেষণায় প্রকাশ একদিনে ৩ আউন্স বা ৮৫ গ্রাম সর্বোচ্চ ১০০ গ্রাম লাল মাংস খাওয়াটা হলো নিরাপদ। খাবারের সঙ্গে পর্যাপ্ত সালাদ বা টমেটো, গাজর, শশা ও লেবু খেতে হবে। সঙ্গে সবজি থাকলে ভালো। বিভিন্ন ধরনের পানীয় কোলার বদলে বেশি বেশি পানিও পান করবেন। কারণ পানি পরিপাকে সাহায্য করে। এছাড়া দইও খেতে পারবেন। সাদামাটা ভাতের সঙ্গে কম ঝালযুক্ত মাংস খাওয়াই ভালো। মাংসের চর্বি একদম পরিহার করবেন। তৈলাক্ত জাতীয় খাবার পোলাও বেশি না খাওয়াই ভালো। ঈদে ভালো থাকুন। 

লেখক: সহযোগী অধ্যাপক (কলোরেক্টাল সার্জারি বিভাগ), কলোরেক্টাল, লেপারোস্কপিক ও জেনারেল সার্জন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা। 

চেম্বার: ১৯ গ্রীন রোড, এ.কে. কমপ্লেক্স, লিফট-৪, ঢাকা।  ফোন-০১৭১২৯৬৫০০৯।

শরীর ও মন থেকে আরও পড়ুন

শরীর ও মন থেকে সর্বাধিক পঠিত

প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status