ঢাকা, ৪ অক্টোবর ২০২২, মঙ্গলবার, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিঃ

বিশ্বজমিন

ইন্দোনেশিয়ার বালি’তে রহস্যময় বোয়িং বিমান

মানবজমিন ডেস্ক

(১ মাস আগে) ৮ আগস্ট ২০২২, সোমবার, ৪:৫১ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট: ৫:২১ অপরাহ্ন

ইন্দোনেশিয়ার বালি’তে একটি ফাঁকা মাঠের মধ্যে পার্ক করা একটি পরিত্যক্ত বোয়িং ৭৩৭ বিমান। কিন্তু বিষয়টি স্বাভাবিক নয়। কারণ, কেউ বলতে পারেন না, কোথা থেকে এলো বিমানটি। কে-ই বা এর মালিক। রীতিমত এক রহস্যে পরিণত হয়েছে বিষয়টি। ফলে পর্যটকরা ছুটে যাচ্ছেন তা দেখতে। এ দৃশ্য দেখার পর তাদেরকে মাথা চুলকাতেই হচ্ছে। কারণ, অনেক প্রশ্নে উত্তর পাচ্ছেন না তারা। বিমানটি রায়া নুসা দুয়া সেলাতান মহাসড়কের কাছে একটি পাথর কোয়ারির ওপর অলস বসে আছে। এ স্থানটি পর্যটনের প্রাণকেন্দ্র পান্ডাওয়া সমুদ্র সৈকত থেকে খুব বেশি দূরে নয়।

বিজ্ঞাপন
বালি’র কোনো কোনো নাগরিক মনে করেন, বিমানটি ওই স্থানে নিয়েছেন একজন উচ্চাকাঙ্খী ব্যবসায়ী। তিনি একে একটি রেস্তোরাঁ বানাতে চেয়েছিলেন। চেয়েছিলেন তা পরিচালনা করবেন এই বিমানের ভিতর থেকেই। বিমানটির সামনে থেকে তাকালে দেখা যাবে এ থেকে নামার সিঁড়ি নেমে গেছে। তবে বালিতে এটাই এমন অলস একমাত্র বোয়িং ৭৩৭ নয়। অন্যান্য স্থানেও দেখা যাবে অব্যবহৃত বিমান। এর বেশির ভাগই পর্যটকদের আকৃষ্ট করতে ব্যবহার করা হয়েছে। এর একটি ঠিক এর পাশেই ডানকিন ডোনাটসে অবস্থান করছে। এর একটি পাখা ডানকিন ডোনাটসের ডাইনিং ওয়ালের ওপর ঠেস দিয়ে আছে। কিন্তু এ বিমানগুলো কিভাবে এসব স্থানে নেয়া হয়েছে তা কেউ বলতে পারেন না। কেউ কেউ বলেছেন, এই জেট বিমানে কোনো ইঞ্জিন নেই। এটাও রেস্তোরাঁ বানানোর জন্য হয়তো নেয়া হয়েছিল। অথবা বসবাসের বাড়ি হিসেবে ব্যবহারের পরিকল্পনা ছিল। মনে করা হচ্ছে ২০০৭ সাল থেকে বিমানটি সেখানে আছে। ২০১৮ সালে একটি ইভেন্ট ভেন্যু হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছিল এটি। ২০২১ সালে নয়াং-নয়াং সমুদ্র সৈকতে একটি পাহাড়ের চূড়ায় দেখা গেছে আরেকটি বিমান। এটিও পর্যটনের আকর্ষণে পরিণত হয়েছে।

 

পাঠকের মতামত

আমাদের সাংবাদিক ভাইদের প্রশংসা না করে কি থাকা যায়?

মোবারক
৯ আগস্ট ২০২২, মঙ্গলবার, ১১:২২ অপরাহ্ন

এ সমস্ত বেহুদা খবর ছেপে, পাঠকদের সময় নষ্ট করা ঠিক নয়।

আজিজ
৮ আগস্ট ২০২২, সোমবার, ৫:৩৪ পূর্বাহ্ন

বিশ্বজমিন থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

বিশ্বজমিন থেকে সর্বাধিক পঠিত

প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং স্কাইব্রীজ প্রিন্টিং এন্ড প্যাকেজিং লিমিটেড, ৭/এ/১ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status