ঢাকা, ২২ মে ২০২৪, বুধবার, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৩ জিলক্বদ ১৪৪৫ হিঃ

দেশ বিদেশ

ভাষানটেকে অগ্নিকাণ্ড

এক পরিবারের পাঁচজন না ফেরার দেশে

স্টাফ রিপোর্টার
২৫ এপ্রিল ২০২৪, বৃহস্পতিবার

রাজধানীর পশ্চিম ভাষানটেকে সিলিন্ডার গ্যাস লিকেজ থেকে বিস্ফোরণে নানি, মা-বাবা ও বোনের পর শিশু সুজনও (৯) মারা গেছে। বুধবার দুপুর ১টার দিকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে মারা যায়। এনিয়ে এ ঘটনায় একই পরিবারের মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো পাঁচজনে। তবে এখনো এই পরিবারের সন্তান সুজনের বড় বোন লিজা (১৮) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কাঁতরাচ্ছে। হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক ডা. তরিকুল ইসলাম বলেন, সুজনের শরীরের ৪৩ শতাংশ দগ্ধ ছিল। তার বড় বোন লিজার অবস্থাও আশঙ্কাজনক। এর আগে গত ১৬ই এপ্রিল সকাল ৭টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান সুজনের বাবা লিটন মিয়া (৫২)। তার আগের দিন সন্ধ্যায় তার মা সূর্য বানু চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। তার আগে ১৬ই এপ্রিল সকালে মারা যান নানি মেহেরুন্নেছা (৬৫)। ১৯শে এপ্রিল ভোরে মারা যায় এই পরিবারের সন্তান লামিয়া (৭)।

বিজ্ঞাপন
গত ১২ই এপ্রিল ভোর ৪টার দিকে ভাসানটেকের একটি বাসায় গ্যাস সিলিন্ডার থেকে আগুন লেগে একই পরিবারের ৬ জন দগ্ধ হন। পরে তাদের উদ্ধার করে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়। এলাকাবাসী জানান, মশার কয়েল জ্বালাতে গেলে ঘরের মধ্যে গ্যাস সিলিন্ডারের পাইপের লিকেজ থেকে জমে থাকা গ্যাসে আগুন ধরে যায়। এতে ওই পরিবারের ৬ জন দগ্ধ হন। তাদের মধ্যে সূর্য বানুর ৮২ শতাংশ, লিটনের ৬৭ শতাংশ, লামিয়ার ৫৫ শতাংশ, মেহেরুন্নেছার ৪৭ শতাংশ, সুজনের ৪৩ শতাংশ ও লিজার শরীরের ৩০ শতাংশ পুড়ে যায়।

 

দেশ বিদেশ থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

   

দেশ বিদেশ সর্বাধিক পঠিত

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2024
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status