ঢাকা, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, সোমবার, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ১৫ শাবান ১৪৪৫ হিঃ

দেশ বিদেশ

সিলেটে আনোয়ার ‘ম্যাজিক’

ওয়েছ খছরু, সিলেট থেকে
২৭ নভেম্বর ২০২৩, সোমবার
mzamin

সিলেটের ১৯ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী ঘোষণার পর যে নামটি সবচেয়ে বেশি আলোচনায় এসেছে সেটি হচ্ছে মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী। এবার আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রাপ্তিতে স্পটলাইটে ছিলেন তিনি। তাকে ঘিরে প্রার্থীরা সরব ছিলেন বেশি। আর মনোনয়ন ঘোষণার পর সেটিরও প্রমাণ মিলেছে। ম্যাজিকম্যান হিসেবে ভাসছে আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর নামই। তিনি যাদের পক্ষে সরব ছিলেন তাদের অনেকেই পেয়েছেন নৌকার টিকিট। শেষ মুহূর্তে এসে নিজের এলাকা সিলেট-২ আসন নিয়ে বাজি ধরেছিলেন মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী। এ আসনে বিগত নির্বাচনেও তিনি নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী ছিলেন। সিলেটের মেয়র হওয়ার পর তিনি এ আসনে নৌকা ফিরিয়ে আনতে আপ্রাণ চেষ্টা চালান। এ আসনের সাবেক এমপি ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরীর পক্ষে লবিং করেছেন।

বিজ্ঞাপন
এতে এসেছে ফলাফলও। 

সিলেট-২ আসনে নৌকার মনোনয়ন পেলেন শফিকুর রহমান চৌধুরী। ডুবতে ডুবতে ভেসে উঠলেন শফিক চৌধুরী। সাধারণ সম্পাদক পদ হারানোর পর জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি পদের জন্য ক’বছর আগেও তাকে লড়াই করতে হয়েছিল। সেই শফিক চৌধুরী আওয়ামী লীগে ফিরলেন সভাপতি হয়ে; এবার পেলেন নৌকার মনোনয়নও। তার এই প্রাপ্তিতে বিশ্বনাথ ও ওসমানীনগরের আওয়ামী পরিবারে আনন্দের বন্যা বইছে। শফিক চৌধুরীর পক্ষে একাট্টা থাকবেন আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীও। সিলেট-৫ আসনে নৌকার জন্য দীর্ঘদিন ধরে লড়াই করছিলেন নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি মাসুক উদ্দিন আহমদ। এবার তিনি পেলেন নৌকার মনোনয়ন। মাসুক উদ্দিনের পক্ষেও একাট্টা ছিলেন মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী। তিনি মেয়র নির্বাচিত হওয়ায় মাসুক উদ্দিনের আমন্ত্রণে জকিগঞ্জ সফর করেছেন। 

স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা জানিয়েছেন, এবার শফিক ও মাসুককে নিয়ে সিলেট আওয়ামী লীগের নেতারাও সক্রিয় ছিলেন। জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন খানও দু’জনের হয়ে কেন্দ্রে লবিং করেছেন। আনোয়ারের সবচেয়ে বড় চমক হচ্ছে সুনামগঞ্জ-১ আসনে তার ঘনিষ্ঠজন এডভোকেট রঞ্জিত সরকারের মনোয়নপ্রাপ্তি। সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রঞ্জিত সরকার। সিলেটের রাজনীতিতে তিনি সক্রিয় হলেও গত ২০১৩ সাল থেকে হাঁটছেন নিজের এলাকা সুনামগঞ্জ-১ আসনে। মেয়র আনোয়ারকে নিয়ে সুনামগঞ্জের নিজ এলাকায় সফর করেছেন রঞ্জিত সরকার। আগে থেকেই আনোয়ার তার ঘনিষ্ঠজন রঞ্জিতের জন্য মাঠে সক্রিয় ছিলেন। ফলে রঞ্জিতের মনোনয়ন প্রাপ্তিতে শুভেচ্ছার জোয়ারে ভাসছেন আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীও। 

সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র নির্বাচন করতে সর্বপ্রথম আনোয়ারের পাশে যিনি দাঁড়িয়েছিলেন তিনি হলেন- আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল। সিলেট আওয়ামী লীগের রাজনৈতিকরা তখন আনোয়ারের দিক থেকে মুখ ফিরিয়ে রেখেছিলেন। কিন্তু নাদেল হতাশ করেননি। আনোয়ারকে নিয়ে একাই  নেমেছিলেন সিলেটের নির্বাচনী মাঠে। পরে নৌকা প্রাপ্তিতে অবশ্য সবাই একেক করে আনোয়ারের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। তবে নাদেলের সঙ্গে আনোয়ারের সম্পর্কের ঘাটতি হয়নি। বরং রাজনৈতিকভাবে তারা সিলেটে এক কাতারে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। এখানে রয়েছেন সুনামগঞ্জ-১ আসনে নৌকার প্রার্থী হওয়া রঞ্জিত সরকারও। এ বলয়ের আরেক নেতা ও বর্তমান এমপি হাবিবুর রহমান হাবিব দু’বছর আগেই নৌকার প্রার্থী হয়ে সিলেট-৩ আসনে এমপি হয়েছেন। এবার দ্বিতীয়বারের মতো এ আসনে নৌকার মনোনয়ন পেয়েছেন হাবিবুর রহমান হাবিব।    

দেশ বিদেশ থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

   

দেশ বিদেশ সর্বাধিক পঠিত

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2023
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status