ঢাকা, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, বুধবার, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৭ শাওয়াল ১৪৪৫ হিঃ

অর্থ-বাণিজ্য

ইউরোপের সাড়ে ৮,০০০ খামারের দুধে তৈরি হয় ডানো

অর্থনৈতিক রিপোর্টার
১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, বৃহস্পতিবার
mzamin

ইউরোপিয়ান বহুজাতিক কোম্পানি আরলা ফুডস ইউরোপের দুগ্ধ সমবায়ের মালিকানায় রয়েছে ডেনমার্ক, সুইডেন, যুক্তরাজ্য, জার্মানি, বেলজিয়াম, লুক্সেমবার্গ এবং নেদারল্যান্ডসের সাড়ে ৮,০০০ খামার। তাদের থেকে নেয়া বিভিন্ন দুগ্ধজাত পণ্যের কাঁচামালে তৈরি হয় সবচেয়ে জনপ্রিয় ব্র্যান্ড ‘ডানো’। বাংলাদেশে ১৯৬১ সাল থেকে পাওয়া যাচ্ছে। ২০০৪ সালে স্থানীয়ভাবে ‘ডানো’ এর প্যাকেজিং প্ল্যান্ট প্রতিষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশে ‘আরলা ফুডস বাংলাদেশ লিমিটেড’ নামে আনুষ্ঠানিকভাবে ২০১৩ সালে কার্যক্রম শুরু করে।  প্রতিষ্ঠানটি জানায়, সর্বোত্তম মানের পুষ্টিকর দুগ্ধজাত পণ্য নিশ্চিত করতে, আরলা ভ্যালু চেইনের প্রতিটি দিক নিয়ন্ত্রণ করে। এই প্রক্রিয়াটি ‘গ্রাস থেকে গ্লাস’ হিসেবে পরিচিত। গুণমান বজায় রাখার ক্ষেত্রে আরলা ফুডসের অন্যতম প্রধান লক্ষ্য। আরলার খামারিরাই প্রতিষ্ঠানটির মালিক। এজন্য আরলার সকল পণ্য তৈরি করতে ব্যবহৃত প্রায় সমস্ত দুধই আরলা ফুডস-এর মালিকানাধীন গরু থেকে সংগ্রহ করা হয়।

 এছাড়া গরুর সুস্থতা নিশ্চিত করার জন্য রয়েছে আরলা গার্ডেন, খামার ও গুণমান ব্যবস্থাপনা প্রোগ্রাম।

বিজ্ঞাপন
এর মাধ্যমে গরুর স্বাস্থ্যবিধি থেকে শুরু করে দুধের সংমিশ্রণ পর্যন্ত ট্র্যাক করতে বিশ্বের বৃহত্তম পশু-কল্যাণ ডেটাবেস তৈরি করা হয়েছে। বাংলাদেশে কার্যক্রম: ডানো গুঁড়ো দুধ গাজীপুরে আরলা ফুডস বাংলাদেশের নিজস্ব কারখানাতে প্যাকেজ করা হয়। এই প্যাকেজিং প্রক্রিয়ার প্রতিটি ধাপে কঠোর মানের মান বজায় রাখার জন্য আরলা ফুডস বাংলাদেশ আইএসও ৯০০১:২০১৫ এবং এফএসএসসি ২২০০০ (সংস্করণ ৫.১) সার্টিফিকেশন লাভ করেছে। বছরের পর বছর ধরে, আরলা ফুডস বাংলাদেশ ফ্যাক্টরি প্রাঙ্গণে নিরাপত্তা মান নিশ্চিত করার জন্য বেশ কিছু কঠোর পদ্ধতির অনুশীলন করে আসছে। উল্লেখযোগ্য কার্যক্রমের মধ্যে রয়েছে আরলা গ্লোবাল কর্নারস্টোন প্রোগ্রাম (আচরণগত নিরাপত্তা প্রোগ্রাম) বাস্তবায়ন, ধারাবাহিক প্রশিক্ষণ (শ্রেণিকক্ষ প্রশিক্ষণ, টুলবক্স প্রশিক্ষণ, ইত্যাদি) এবং কর্মীদের জন্য মূল্যায়ন কর্মসূচি, আরলা গ্লোবাল নিরাপত্তা রিপোর্টিং সিস্টেমের মাধ্যমে সাইটে স্বচ্ছ রিপোর্টিং ব্যবস্থা, ইত্যাদি। বাংলাদেশের কারখানায় এখন পর্যন্ত শুধুমাত্র গুঁড়ো দুধ ‘ডানো’ই প্যাকেজিং করা হয়। বাংলাদেশে প্রাথমিক পর্যায়ে, আরলার লক্ষ্য ছিল সবচেয়ে সাশ্রয়ী মূল্যে সেরা মানের পুষ্টিকর দুগ্ধজাত পণ্য সরবরাহ করা। 

২০২২ সালের গোড়ার দিকে আরলা ফুডস বাংলাদেশ এবং প্রাণ ডেইরি বাংলাদেশের স্থানীয় ডেইরি ভ্যালু চেইনের অর্থনৈতিক আউটপুটের পাশাপাশি দুধের উৎপাদনশীলতা এবং গুণমান বৃদ্ধির জন্য একটি বাজার চালিত এবং টেকসই দুগ্ধ উৎপাদন প্রদর্শনের উদ্দেশ্য নিয়ে একটি সহযোগিতার সূচনা করে। গুঁড়ো দুধ ব্র্যান্ড ডানো (ডানো পাওয়ার এবং ড্যানো ডেইলি পুষ্টি) বাংলাদেশের মানুষের মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয়। তবে আরলার অন্যান্য পুষ্টিকর ও সুস্বাদু দুগ্ধজাত পণ্যও দেশে পাওয়া যায়। এর মধ্যে আরলা ইউএইচটি দুধ, আরলার ফ্ল্যাগশিপ বাটার ব্র্যান্ড লুরপাক এবং পনির ব্র্যান্ড আরলা ও ক্যাসটোলো বাংলাদেশের বাজারে পাওয়া যায়। প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তারা বলেন, সম্পূর্ণ প্রাকৃতিক উপায়ে প্রস্তুত দুধকে পরিপূর্ণ খাবারে পরিণত করার লক্ষ্য নিয়ে এগোচ্ছে আরলা। ব্র্যান্ডগুলোকে ‘ফিউচার অব ডেইরি’ হিসেবে প্রতিষ্ঠার ভিশন নিয়ে কাজ চলছে। বাংলাদেশে গুঁড়া দুধ খাওয়ার মাধ্যমে রান্নাঘর থেকে রেস্তোরাঁ, সুদৃশ্য টি-টেবিল থেকে মোড়ের চায়ের দোকানে কিংবা উৎসব-পার্বণের খাবার তৈরিতে ডানো বড় বদল এনেছে।

অর্থ-বাণিজ্য থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

   

অর্থ-বাণিজ্য সর্বাধিক পঠিত

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2024
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status