ঢাকা, ১৭ মে ২০২২, মঙ্গলবার, ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

অনলাইন

রাজধানীতে সৎ বাবার মারধরে প্রাণ গেলো ৩ বছরের শিশুর

স্টাফ রিপোর্টার

(৩ দিন আগে) ১৪ মে ২০২২, শনিবার, ১২:৩৩ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট: ৪:৩০ অপরাহ্ন

রাজধানীর দক্ষিণখানের কাওলায় সৎ বাবার মারধরের ঘটনায় লামিরা ফারিজ (৩) নামে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে ঘটনাটি ঘটে। এরপর শিশুটিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত দুইটার দিকে শিশুটি মারা যায়।

দক্ষিণখান থানার উপপরিদর্শক (এসআই) রেজিয়া খাতুন মানবজমিনকে বলেন, শুক্রবার সকালে খবর পেয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে শিশুটির লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় থানায় একটি হত্যা মামলা করেছেন শিশুটির মা তাসলিমা জাহান ইমা। শিশুটির সৎ বাবা আজহারুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করে শনিবার সকালে আদালতে প্রেরণ করে সাতদিনের রিমান্ড চাওয়া হয়েছে। তিনি আরও বলেন, বৃহস্পতিবার লামিরা ফারিজকে আজহারুল ইসলামের কাছে রেখে আইইএলটিএস পরীক্ষা দিতে গিয়েছিলেন মা তাসলিমা জাহান। 

বাসায় ফিরে দেখেন শিশুটি রক্ত বমি করছে। তাকে স্থানীয় বিভিন্ন হাসপাতালে নিলে অবস্থার অবনতি হলে পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দুইটার সময় শিশুটি হাসপাতালে মারা যায়। শিশুটিকে বিয়ের দুমাস পর থেকে কারণে-অকারণে মারতেন তিনি। এরপর থেকে আজহারুল ইসলাম বাসায় প্রবেশ করলেই শিশুটি সবসময় আতঙ্কে থাকতো

বিজ্ঞাপন
বৃহস্পতিবারও বরাবরের মতো শিশুটিকে চড়-থাপ্পড় দেন তিনি। এসময় থাপ্পড়ে ছিটকে গিয়ে খাটের মধ্যে পড়ে মাথায় ও বুকে আঘাত লেগে গুরুতর আহত হয় শিশুটি।

পুলিশ সূত্রে আরও জানা যায়, আজহারুল ইসলাম ঢাকার একটি পাঁচ তারকা হোটেলে সেফ হিসেবে কর্মরত। তার মা তাসলিমা জাহান ওই হোটেলেরই কোরিওগ্রাফার। সাত-আট মাস আগে তাসলিমা আগের স্বামী নাইমুল ইসলামকে ডিভোর্স দিয়ে আজহারুল ইসলামকে বিয়ে করেন। দক্ষিণখানের আশকোনা আইডিয়াল একাডেমি এলাকার একটি বাড়ির আটতলায় মা তাসলিমা জাহান ও সৎ বাবা আজহারুল ইসলামের সঙ্গে থাকতো শিশুটি।

পাঠকের মতামত

সুখে থাকতে ভুতে কিলায় ,৩ বছরের শিশুটাকে নির্যাতন করে মেরে ফেলা ঘাতকের সর্বোচ্চ শাস্তি হওয়া উচিৎ

MD. ABDUL BAREK
১৪ মে ২০২২, শনিবার, ৩:০০ পূর্বাহ্ন

Direct Shoot him.He is a Pasan.

Shafiur Rahman
১৪ মে ২০২২, শনিবার, ১:২৭ পূর্বাহ্ন

Speechless. But this person (Azharul) must be punished.

Tariq Chowdhury
১৩ মে ২০২২, শুক্রবার, ১১:৩৮ অপরাহ্ন

অনলাইন থেকে আরও পড়ুন

আরও খবর

প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com