ঢাকা, ২৩ মে ২০২৪, বৃহস্পতিবার, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৪ জিলক্বদ ১৪৪৫ হিঃ

প্রথম পাতা

তাসকিন চমক!

ইশতিয়াক পারভেজ
১৫ মে ২০২৪, বুধবার
mzamin

দুপুর সাড়ে ১২টায় দল ঘোষণার কথা ছিল। কিন্তু নানা কারণে তা পিছিয়ে গেল আরও ৪৫ মিনিট। ঠিক ১টা ১৫তে জনাকীর্ণ সংবাদ সম্মেলনকক্ষে এলেন প্রধান নির্বাচক গাজী আশরাফ হোসেন লিপু। সঙ্গে দুই নির্বাচক আবদুর রাজ্জাক আর হান্নান সরকার। সংবাদ মাধ্যমের তখন আগ্রহের শেষ নেই কারা শেষপর্যন্ত থাকছে আসন্ন টি- টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশের প্রতিনিধি! তবে আগের দিন রাত থেকেই একজনের না থাকা নিয়ে চলছিল তুমুল আলোচনা-সমালোচনা। তিনি দেশের অন্যতম সেরা পেসার তাসকিন আহমেদ। জিম্বাবুয়ে সিরিজের চতুর্থ ম্যাচে ইনজুরিতে পড়েন তিনি। সবশেষ চিকিৎসকদের রিপোর্টে জানা গেছে তাকে মাঠের বাইরে থাকতে হবে। কিন্তু সবাইকে অবাক করে দিয়ে সেই তাসকিনকে রাখা হয়েছে বিশ্বকাপ দলে। শুধু তাই নয়, নাজমুল  হোসেন শান্তর নেতৃত্বাধীন দলে তাসকিনকে করা হয়েছে সহ-অধিনায়কও! বলা যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ-যুক্তরাষ্ট্রে শুরু হতে যাওয়া বাংলাদেশের বিশ্বকাপ দলে এটি সবচেয়ে বড় চমক।

বিজ্ঞাপন
কারণ যে পেসার ইনজুরিতে, যে কিনা খেলতে পারবে কিনা সন্দেহ তাকে শুধু দলেই রাখা হয়নি, করা হয়েছে সহ-অধিনায়কও। অন্যদিকে এই দলে আরেক চমকের নাম স্পিনার তানভীর ইসলাম। আর শেষপর্যন্ত বাদ পড়েছেন সাইফউদ্দিন। তবে প্রশ্ন হচ্ছে বিশ্বকাপে খেলতে পারবেন তো তাসকিন? এ নিয়ে প্রধান নির্বাচক বলেন, ‘(তাসকিনের ব্যাপারে) চিকিৎসা বিভাগ হয়তো ভালো জানাতে পারবে। আমাদের যতটুকু তথ্য জানা আছে, ওই তথ্যের আলোকে আমরা আশা রাখছি, তিনি হয়তো বিশ্বকাপ চলার কোনো একটা পর্যায়ে সুস্থ হয়ে যাবেন। সেই আলোকেই তাকে দলভুক্ত করা হয়েছে।’

বিশ্বকাপে মাঠে নামার আগে যুক্তরাষ্ট্রে তিন ম্যাচের দ্বিপক্ষীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলবে বাংলাদেশ। সেই সিরিজে নিশ্চিতভাবেই খেলা হচ্ছে না তাসকিনের। এ নিয়ে প্রধান নির্বাচক লিপু বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র সিরিজের ক্ষেত্রে বলতে পারি, এখন পর্যন্ত চিকিৎসা বিভাগ থেকে যা বলা হয়েছে, আমার মনে হয় না, তাসকিন সেখানে থাকতে পারবে না। তবে দলের সঙ্গে রিজার্ভ হিসেবে যারা যাচ্ছে, তারা সেখানে খেলার জন্য প্রস্তুত থাকবেন।’ গতকাল নাজমুল হোসেন শান্তর নেতৃত্বে ১৫ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। রিজার্ভ হিসেবে দলে নেয়া হয়েছে পেসার হাসান মাহমুদ ও অলরাউন্ডার আফিফ হোসেনকে। এর মধ্যে তানভীর ইসলাম, জাকের আলী, রিশাদ হোসেন, তানজিম হাসান ও তানজিদ হাসান প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দলে আছেন। এছাড়া ২০২১ সালের পর আবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দলে ফিরলেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। এই দল ঘোষণার আগে গেল ৩০শে এপ্রিল আইসিসিকে ১৫ সদস্যের একটি বিশ্বকাট দল পাঠিয়ে ছিল বিসিবি। সেখানে ছিল সাইফউদ্দিনের নামও। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পারফরম্যান্স বিবেচনায় নিয়ে তাকে চূড়ান্ত দলে রাখা হয়নি। তার পরিবর্তে দলে জায়গা পেয়েছেন তরুণ তানজিম সাকিব।

তবে সংবাদ সম্মেলন জুড়েই ঘুরেফিরে চলতে থাকা তাসকিন নিয়ে প্রশ্ন। প্রধান নির্বাচক জানিয়েছেন, শেষ পর্যন্ত যদি তাসকিন সুস্থ হতে না পারেন, তাহলে বিকল্প পথে হাঁটবে দল। সে জায়গায় সুযোগ পেতে পারেন অতিরিক্ত হিসেবে দলের ভ্রমণসঙ্গী হাসান মাহমুদ। আইসিসি’র আগের নিয়মে অবশ্য এই সুযোগটি পেতো না বাংলাদেশ। এবারের আসরে দল বাছাই ও বদলির ক্ষেত্রে নিয়মে কিছুটা পরিবর্তন এনেছে আইসিসি। এবার স্কোয়াডে চোটাক্রান্ত একজন ক্রিকেটারকে রাখতে পারবে দলগুলো। আগের নিয়মে এই সুযোগ ছিল না। শুধুমাত্র দল ঘোষণার পর চোট পেলেই বদলি ক্রিকেটার নেয়ার সুযোগ দিতো আইসিসি। আর তাসকিনকে কেন হঠাৎ সহ-অধিনায়ক করা হলো তা নিয়ে লিপু বলেন, ‘তাসকিন আরেক প্রজন্মের উদীয়মান একজন ক্রিকেটার। একটা বিভাগকে (পেস) সে নেতৃত্ব দিচ্ছে। দীর্ঘদিন ধরে জাতীয় দলের হয়ে খেলছে বিভিন্ন সংস্করণে। সেজন্য হয়তো তাকে যোগ্য দাবিদার মনে করেছে বিসিবি।’ অন্যদিকে তাসকিনের চোটের ক্ষেত্রে চলে আসে তাকে টানা খেলানোর কথা। বিশেষ করে তাকে বিশ্বকাপের আগে ঢাকা প্রিমিয়ার লীগে আর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টানা ৪ ম্যাচ খেলানো নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন। বিশেষ করে তার লম্বা সময় ধরে নানা ইনজুরির সমস্যা থাকার পরও। এ নিয়ে প্রধান নির্বাচক অবশ্য নিজেদের দায় স্বীকার করেছেন। তবে সেইসঙ্গে তাসকিনের ভাগ্যকেও দোষ দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘একটা জিনিস ঘটার পরে কিন্তু অনেক কিছুই মনে হয়। আমরা নিজেরাও আক্ষেপ করেছি, হয়তো (তাসকিনের চোট) এড়ানো যেতো। সত্যি বলতে, আমাদের তরফ থেকে আমরা সুনির্দিষ্টভাবে কোনো পরামর্শ দেইনি।’ 

অন্যদিকে অধিনায়ক শান্ত ও দলের অন্যতম ওপেনার লিটন দাসের ফর্ম নিয়ে আছে প্রশ্ন। দু’জনই নেই রানে। এ নিয়ে অবশ্য প্রধান নির্বাচক জানিয়েছেন  দল ঘোষণার সময় তার একটি অস্বস্তি কাজ করেছে। তিনি বলেন, ‘অবশ্য লিটন ও শান্তর ফর্ম চিন্তার বিষয়। অস্বস্তিতো একটু থাকেই। তবে আমরা তাদের উপর আস্থা রেখেছি। তারা যে যোগ্যতাসম্পন্ন ব্যাটার। আশা করি তারা দ্রুত বিশ্বমঞ্চে নিজেদের ফিরে পাবেন।’ 

বিশ্বকাপ দল: 
নাজমুল হোসেন (অধিনায়ক), তাসকিন আহমেদ (সহ-অধিনায়ক), লিটন দাস, সৌম্য সরকার, তানজিদ হাসান, সাকিব আল হাসান, তাওহিদ হৃদয়, মাহমুদউল্লাহ, জাকের আলী, তানভীর ইসলাম, মেহেদী হাসান, রিশাদ হোসেন, মোস্তাফিজুর রহমান, শরীফুল ইসলাম, তানজিম হাসান।
রিজার্ভ: হাসান মাহমুদ, আফিফ হোসেন।

প্রথম পাতা থেকে আরও পড়ুন

   

প্রথম পাতা সর্বাধিক পঠিত

Logo
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2024
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status