দেশ বিদেশ

লবিস্ট নিয়োগে বিএনপি-জামায়াতের ব্যয়ের হিসাব তদন্তের দাবি সরকারি দলের

সংসদ রিপোর্টার

১৮ জানুয়ারি ২০২২, মঙ্গলবার, ৮:৫৬ অপরাহ্ন

বিদেশে সরকার বিরোধী প্রচারণার জন্য লবিস্ট নিয়োগে বিএনপি-জামায়াতের ব্যয়ের হিসাব তদন্তের দাবি জানিয়েছেন সরকারি দলের সংসদ সদস্যরা। তারা সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামি তারেক রহমান কীভাবে বিএনপি’র ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান থাকছেন তা দেখার জন্য নির্বাচন কমিশনের প্রতি আহ্বান জানান। গতকাল জাতীয় সংসদ অধিবেশনে রাষ্ট্রপতির ভাষণের উপর আনা ধন্যবাদ প্রস্তাব নিয়ে আলোচনাকালে এই আহ্বান জানান। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের চলতি অধিবেশনে ভাষণ দেয়ার জন্য রাষ্ট্রপতিকে ধন্যবাদ জানাতে প্রস্তাব উপস্থাপন করেন চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী। রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনা ধন্যবাদ প্রস্তাব সমর্থন করেন সরকারি দলের সদস্য মো. শামসুল হক টুকু। প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় অংশ নেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম, শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী এবং সরকারি দলের সদস্য নাজিম উদ্দিন আহমেদ, অসীম কুমার উকিল, আনোয়ারুল আবেদীন খান, আমিরুল আলম মিলন, বেগম উম্মে কুলসুম স্মৃতি ও খালেদা খানম। আলোচনায় অংশ নিয়ে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেন, বিএনপি-জামায়াত গত ৫ বছরে যতগুলো লবিস্ট ফার্মের নিয়োগ করেছে, প্রতিটির কন্ট্রাক আছে। প্রতিটির টাকা পয়সার হিসাব আছে, কে দিয়েছেন, কোন অ্যাকাউন্টে নিয়েছেন সবকিছু আছে। এটার তদন্ত দাবি করতে হবে। তিনি বলেন, বিএনপি’র এই টাকার খেলা বন্ধ করতে হবে। চিরতরে বন্ধ করতে হবে।  বিএনপিদলীয় সংসদ সদস্য হারুনুর রশীদের বক্তব্যের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন, তিনি (হারুন) বলেছেন, জানা সত্ত্বেও মিথ্যাকে গোপন করিও না। তিনিই তার রাজনৈতিক জীবনে সেটা প্রতিপালন করছেন? তিনি মুসলমান হিসেবে যদি দাবি করে থাকেন, তাহলে সেই মিথ্যাগুলো যেন তারা গোপন না করেন। এই অধিবেশনে যেন তার দলের কু-কর্মগুলো ও তার নেতাদের মিথ্যাচারগুলো প্রকাশ করেন। শাহরিয়ার আলম বলেন, আমরা তো জানি, বিএনপি স্থানীয় সরকার নির্বাচন বর্জন করেছে। তাহলে তিনি (হারুন) তার প্রার্থী, আমার প্রার্থী বলেন কি করে? তিনি কি দল পাল্টিয়েছেন? রাজশাহীর প্রতিটি উপজেলাতে বিএনপি’র প্রার্থী ছিল। তিনি আরও বলেন, নারায়ণগঞ্জে একটি অভূতপূর্ব নির্বাচন হয়েছে। ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট হলে দ্রুততার সঙ্গে ফলাফল প্রকাশ করা যায়। ইভিএমের মাধ্যমে স্বচ্ছ জবাবদিহিমূলক নির্বাচনের মাধ্যমে যে নির্বাচন করা সম্ভব সেটি মাহবুব তালুকদারের মতো নির্বাচন কমিশনারও বলেছেন। প্রতিমন্ত্রী বলেন, আইনের শাসনের কথা বলার পরও তারেক রহমানকে এখনো বিএনপি কীভাবে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান বলে? সে একজন দুর্নীতিবাজ, আইনের চোখে দাগী আসামি, পলাতক আসামি। হেনো কাজ নেই, হেনো কোনো অপরাধ নেই, যা তিনি করেননি। একজন সাজাপ্রাপ্ত আসামি কীভাবে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হয়? আমি নির্বাচন কমিশনের এ বিষয়ে বক্তব্য জানতে চাই। বিএনপিকে নির্বাচনের মাধ্যমে আগামীতে ক্ষমতায় এসে আইন পরিবর্তন করে চিকিৎসার জন্য খালেদা জিয়াকে বিদেশে পাঠানোর আহ্বান জানান তিনি। আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ সরকার এবং প্রধানমন্ত্রীর তথ্য যোগাযোগ ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের নেতৃত্বে গত সাড়ে ১৩ বছরে তথ্য যোগাযোগ ও প্রযুক্তি খাতে ব্যাপক উন্নয়ন অগ্রগতির চিত্র তুলে ধরেন। তিনি বলেন, রাষ্ট্রপতির ভাষণে গত সাড়ে ১৩ বছরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ যে একটি প্রযুক্তিনির্ভর ডিজিটাল দেশ হিসেবে বিশ্বের বুকে মর্যাদার সঙ্গে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে, তা সুন্দরভাবে তুলে ধরা হয়েছে।
নানামুখী কার্যক্রম বাস্তবায়নের মাধ্যমে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ ২০৩১ সালের মধ্যে উচ্চ মধ্যম আয়ের এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশে পরিণত হওয়ার দিকে দৃঢ় পদক্ষেপে এগিয়ে চলেছে বলে উল্লেখ করেন তিনি। করোনা মহামারি সফলতার সঙ্গে মোকাবিলা ও শিক্ষার্থীদের জন্য টিকার ব্যবস্থা করায় প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী। তিনি বলেন, দেশের ১২ থেকে ১৮ বছর বয়সী শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৬৪ ভাগকে করোনা টিকার প্রথম ডোজ দেয়া হয়েছে। পর্যায়ক্রমে কলেজ ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়সহ সর্বত্র স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে সমন্বয় করে টিকা দেয়া হবে। তিনি আরও বলেন, শিক্ষাখাতে গুণগত পরিবর্তনের বিষয়টি রাষ্ট্রপতির ভাষণে উঠে এসেছে। অথচ বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের আমলে একজন প্রতিমন্ত্রী নকল প্রতিরোধের নামে হেলিকপ্টারে সারা দেশ ঘুরে বেরিয়েছেন। আরেকজন উপমন্ত্রী গ্রেনেড হামলায় জড়িত ও জঙ্গিবাদের সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন। ফলে শিক্ষা ব্যবস্থায় বিপর্যয় নেমে আসে। এখন বঙ্গবন্ধুর দর্শনকে সামনে রেখে দেশে বিশেষায়িত শিক্ষা এগিয়ে চলেছে।
দেশ আমলাতন্ত্রের হাতে জিম্মি:দেশ আমলাতন্ত্রের হাতে জিম্মি হয়ে গেছে উল্লেখ করে সংসদ সদস্য নাজিম উদ্দিন আহমেদ বলেন, আমলারা এমপিদের শুধু স্যারটাই বলে। এই স্যারটা না বলে পারে না। আমলাতন্ত্রের হাত থেকে বাঁচার জন্য আমাদের সবাইকে সোচ্চার হতে হবে। সংসদ সদস্যদের বলবো, দয়া করে আমলাতন্ত্র থেকে রেহাই পাওয়ার জন্য আপনারা শক্ত হন। শক্ত না হলে তারা আমাদের গুরুত্ব দেবে না। তিনি আরও বলেন, সত্য কথা বললে বিষয়টি বিরোধী দলের ফ্লোরের মতো হয়ে যায়। আমলাতান্ত্রিক জটিলতায় কিন্তু আমরা ভুগছি। আমলারা যেভাবে কথা বলেন! আমলাদের কাছে এমপি’র মূল্য নেই, কোনো মূল্যায়ন নেই। তাদের শ্রদ্ধাবোধ নেই। পিয়ন পর্যন্ত আজকে আমাদের দাম দেয় না। এ বিষয়ে সকলকে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানান তিনি। বহুল ব্যবহৃত ভিডিও দেখার মাধ্যম ইউটিউব বন্ধের দাবি জানান নাজিম উদ্দিন আহমেদ।
তিনি বলেন, ইউটিউবে দেখি খালেদা জিয়া মরে যাচ্ছেন। শেখ হাসিনা কালকেই ক্ষমতাচ্যুত হয়ে যাচ্ছেন। আবার দেখি সেনাপ্রধানদের টেনে নামানো হচ্ছে। এভাবে বিভ্রান্তি ছড়ানো হচ্ছে। তথ্য মন্ত্রণালয় কী করে আমরা বুঝি না। কালকে সকালে ঘুম থেকে উঠে শুনবেন, শেখ হাসিনা ক্ষমতায় নেই- এই যে কথাগুলো বলা হয়, আমরা স্তম্ভিত হয়ে যাই। অথচ বলা হয়, সত্য ঘটনা। এভাবে মানুষকে বিভ্রান্ত করা হয়। গ্রামের মানুষগুলো এসব দেখে ভাবেন, না জানি বাংলাদেশে কী হচ্ছে! তথ্য মন্ত্রণালয়কে বলবো, দরকার হলে ইউটিউব বন্ধ করে দেন। ক্রিমিনাল ও স্বাধীনতাবিরোধীদের সঙ্গে আমাদের কোনো আপস থাকতে পারে না বলে উল্লেখ করেন তিনি। নিজের নির্বাচনী এলাকায় অনেক উন্নয়নমূলক কাজের প্রকল্প গ্রহণ করা হলেও তাতে গতি নেই অভিযোগ করে সরকারদলীয় সদস্য নাজিম উদ্দিন বলেন, এলাকার স্কুল-কলেজ ও রাস্তাঘাটের উন্নয়ন কাজ স্থবির হয়ে গেছে। উপজেলা পরিষদ নির্মাণকাজের ডিজাইন দেয়া হলেও সেই কাজ হয়নি। সমস্ত কাজ একের পর এক বন্ধের পথে রয়েছে। ঠিকাদাররা বলেন, টাকা পাইনি, কাজ কোত্থেকে করবো। এমপি’র কোটার ২০ কোটি টাকার কাজও করা হয় না। এ রকম হলে নির্বাচনের সময় মানুষের কাছে জবাব দিতে পারবো না। নির্বাচনের আগে সামনে দুই বছর সময় আছে। এই সময়ের মধ্যে কাজগুলো শেষ করতে না পারলে নির্বাচনের সময় জনগণের সঙ্গে কথা বলা যাবে না বলে হতাশা ব্যক্ত করেন তিনি।
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com