বাংলারজমিন

প্রতিবন্ধী নারীকে চাকরি দিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান

দাউদকান্দি (কুমিল্লা) প্রতিনিধি

১৫ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার, ২:৫২ অপরাহ্ন

দাউদকান্দি উপজেলার ১নং উত্তর ইউনিয়নস্থ ভাজরা গ্রামের অনিতা নামের এক শারীরিক প্রতিবন্ধী নারীকে জুরানপুরস্থ করিমুন্নেসা উচ্চ বিদ্যালয়ে চাকরি দিয়ে মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন দাউদকান্দির জুরানপুরের ভুঁইয়া পরিবার। বিগত এক বছর আগে এই প্রতিবন্ধী নারীকে দেখতে সরজমিনে ভাজরা ছুটে যান দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মেজর (অব.) মোহাম্মদ আলী সুমন। তিনি সেখানে গিয়ে বয়সে তরুণী এই নারী ও তাঁর বাবা-মাকে কথা দিয়েছিলেন যে, তাঁকে একটি চাকরির ব্যবস্থা করে দিবেন।

অবশেষে সেই কথারই বাস্তবায়ন হলো। কথা দিয়ে কথা রাখলেন দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান। ১১ই জানুয়ারি জেনারেল ভূঁইয়া ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ও কুমিল্লা-১ আসনের সংসদ সদস্য মেজর জেনারেল (অব.) সুবিদ আলী ভূঁইয়া’র সহধর্মিণী মিসেস মাহমুদা ভুঁইয়া নিজে উপস্থিত থেকে জুরানপুর করিমুন্নেছা উচ্চ বিদ্যালয়ের অফিস সহকারী হিসাবে চাকরির ব্যবস্থা করে দেন শারীরিক প্রতিবন্ধী তরুণী অনিকাকে। অনিকাকে চাকরি দিয়ে বেগম মাহমুদা ভূঁইয়া বলেন, ছোটবেলায় টাইফয়েড জ্বরে আক্রান্ত হয়ে অনিকা শারীরিকভাবে সমস্যার সম্মুখীন হন।

তবে জীবনযুদ্ধে দমে যাননি। নিজেকে সমাজের বোঝা হিসেবে না দেখে অনেক কষ্ট করে লেখাপড়া করে নিজেকে যোগ্য এবং শিক্ষিত হিসেবে গড়ে তুলেন। আজ তার মতো একজন জীবন যুদ্ধে হার না মানা নারী যোদ্ধাকে স্বাবলম্বী হওয়ার লক্ষ্যে চাকরি দেয়ার সুযোগ পেয়ে আমরা ভুঁইয়া পরিবার গর্বিত এবং নিজেদেরকে ধন্য মনে করছি। এ বিষয়ে দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মেজর (অব.) মোহাম্মদ আলী সুমন জানান, গত এক বছর পূর্বে করোনাকালীন সময়ে দাউদকান্দি সদর উত্তর ইউনিয়নের ভাজরা গ্রামে যখন কর্মহীন মানুষের জন্য মানবিক সহায়তা বিতরণ করতে যাই, তখন অনিকা নামের এই নারীকে প্রথম দেখতে পাই।

নানা সংকীর্ণতায় একজন নারী নিজেকে সমাজের বোঝা হিসেবে না রেখে আর দশজন স্বাভাবিক মানুষের মত নিজেকে সুশিক্ষিত হিসেবে গড়ে তুলেছেন। আমি তখন কথা দিয়েছিলাম যে, এমন একজন যোদ্ধা নারীকে স্বাবলম্বী হওয়ার সুযোগ করে দিতে চাকরির ব্যবস্থা করে দেব। সর্বশক্তিমান মহান আল্লাহ তায়ালার কাছে শুকরিয়া জ্ঞাপন করছি যে, অবশেষে তাকে সামাজিক মর্যাদা এবং তার নিজেকে স্বাবলম্বী করার জন্য একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে চাকরির ব্যবস্থা করে দিতে পেরেছি বলে। যাতে পরবর্তী প্রজন্ম এই অনিকাকে দেখে শিক্ষা গ্রহণ করতে পারবে যে, একজন মানুষের শারীরিক অক্ষমতা থাকা শর্তেও কিভাবে নিজেকে যোগ্য হিসেবে গড়ে তোলা যায়। উল্লেখ যে, শারীরিক প্রতিবন্ধী নারী অনিতা এইচএসসি পাশ করেছিলেন।
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com