মেলায় মুড়কি কেনাকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের সংঘর্ষ, আহত অর্ধশতাধিক

নাসিরনগর (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি

বাংলারজমিন ১৫ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে পৌষ সংক্রান্তির মেলায় মুড়কি কেনাকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘঠেছে। বৃহস্পতিবার রাত ৯টা থেকে ১২টা পর্যন্ত থেমে থেমে চলে এ সংঘর্ষ। এ সময় সংঘর্ষে পুলিশসহ উভয়পক্ষের প্রায় অর্ধশতাধিক আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে এ সময় পুলিশ দুই রাউন্ড রাবার বুলেট ছুড়ে। ঘটনাস্থল থেকে পরের দিন সকালে আটজনকে আটক করেছে নাসিরনগর থানা পুলিশ।
জানা গেছে, প্রতি বছর ১৪ই জানুয়ারি সনাতন ধর্মাবলম্বীদের পৌষ সংক্রান্তির মেলাকে কেন্দ্র করে উপজেলার কুণ্ডা ইউনিয়নের কুণ্ডা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের খেলার মাঠে মেলা বসে। কিন্তু এ বছর আবারো করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধি পাওয়ায় উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে মেলার আয়োজন নিষিদ্ধ করা হয়। কিন্তু এলাকার কিছু লোক প্রশাসনের নিষেধ উপেক্ষা করে মেলার আয়োজন করে।
মেলা বসার পর সন্ধ্যার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মেলা প্রাঙ্গণে গিয়ে মেলা বন্ধ করতে নির্দেশ দেন।
ঘটনার দিন রাত ৯টার দিকে মেলা প্রাঙ্গণে কোনাপাড়ার আজিজুল মিয়া ও পশ্চিম পাড়ার জয়নালের মধ্যে শরীরে ধাক্কা নিয়ে তর্কবিতর্ক হয়। ঘটনার এক পর্যায়ে দু’জনের মধ্যে হাতাহাতি হয়। বিষয়টি দুই গোষ্ঠীর মধ্যে ছড়িয়ে পড়লে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। কিছুক্ষণ পর স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা বিষয়টি মীমাংসা করে দেয়। এরপর কোনাবাড়ীর আজিজুলের পক্ষের লোকজন স্থানীয় কুণ্ডা কোনাপাড়া জামে মসজিদে মাইকে ঘোষণা দেয় তাদের পক্ষের আজিজুলকে পশ্চিম পাড়ার লোকজন মেরে ফেলেছে। তখন কোনাপাড়ার লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে পশ্চিমপাড়ার লোকদের উপর হামলা করে। দুইপক্ষের সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে সংঘর্ষ থামাতে গেলে উত্তেজিত জনতা তাদের উপর হামলা করে। এ সময় পুলিশ পরিদর্শকসহ পাঁচজন আহত হয়। এছাড়াও দুই পক্ষের প্রায় অর্ধশতাধিক লোক আহত হয়। দুইপক্ষের আহতদের মধ্যে পশ্চিম পাড়ার পক্ষের লোকদের নাম জানা গেছে, আহতরা হলো- মো. মাহবুব মিয়া, শরীফ মিয়া, রতন মিয়া, সিরাজুল ইসলাম, রেখা আক্তার, জামাল মিয়া, বাছির মিয়া, আজিজুল ইসলাম ও মফিজুর রহমান প্রমুখ। নাসিরনগর থানা পুলিশ পরিদর্শক আ.স.ম আতিকুর রহমান বলেন, সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে আমাদের পাঁচজন পুলিশ সদস্য আহত হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে দুই রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়া হয়।
সরাইল সার্কেলের অতিরিক্তি পুলিশ সুপার মো. আনিসুর রহমান বলেন, মেলায় কোনাপাড়া ও পশ্চিম পাড়ার দুই যুবকের মধ্যে তর্ক-বিতর্কের এক পর্যায়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে তা দুই পক্ষের মধ্যে ছড়িয়ে শুরু হয় সংর্ঘষ। এ সময় আমাদের পুলিশ সদস্যদের মধ্যে পাঁচজন আহত হয়। এর মধ্যে এসআই আরিফ গুরুতর আহত হয়। নিরপারধ কাউকে আটক করা হয়েছে কি-না জানতে চাইলে বলেন, আমরা কোনো নিরপরাধকে আটক করছি না। সুনির্দিষ্ট অভিযোগের প্রেক্ষিতে আটক করা হয়েছে।

আপনার মতামত দিন

বাংলারজমিন অন্যান্য খবর

অজ্ঞান পার্টির অভিনব কৌশল

সরাইলে সর্বস্ব খুইয়েছেন আনোয়ারা

২১ জানুয়ারি ২০২২

কাগজে-কলমে এখনো নদীতে বিলীন

চাঁপাই নবাবগঞ্জে চরের জমির মালিকানা নিয়ে অনিশ্চয়তা

২১ জানুয়ারি ২০২২

চাঁপাই নবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার ঘোড়াপাখিয়া মৌজার জমি ১৯৯৮ সালে পদ্মার ভাঙনে বিলীন হয়ে যায়। প্রায় ...

রংপুরে নার্সারি ব্যবসায়ীকে অপহরণের মূল হোতাসহ গ্রেপ্তার ২

২১ জানুয়ারি ২০২২

রংপুরে অপহরণ ও মুক্তিপণ আদায়কারী চক্রের মূল হোতাসহ ২ জনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। এরা হলো- ...

শাহজাদপুরে দু’পক্ষের সংঘর্ষে ২০৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা, গ্রেপ্তার ২৫

২১ জানুয়ারি ২০২২

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে উপজেলার বাঘাবাড়ি পশ্চিমপাড়া গ্রামে বিবদমান দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের নিহতের ঘটনায় দু’টি মামলায় ...

নরসিংদীতে বড় ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে ছোট ভাই খুন

২১ জানুয়ারি ২০২২

নরসিংদীর কামারগাঁওয়ে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে আপন বড় ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে ছোট ভাই খুন হয়েছে। ...



বাংলারজমিন সর্বাধিক পঠিত



নোয়াখালী পৌরসভা নির্বাচন

নৌকার প্রার্থী সহিদ উল্যাহ বিজয়ী

DMCA.com Protection Status