কুয়েট শিক্ষকের মৃত্যু: ছাত্রলীগ নেতাসহ ৯ শিক্ষার্থী বহিষ্কার

অনলাইন ডেস্ক

অনলাইন (১ মাস আগে) ডিসেম্বর ৪, ২০২১, শনিবার, ৪:০৪ অপরাহ্ন | সর্বশেষ আপডেট: ১০:৪১ পূর্বাহ্ন

খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুয়েট) ইলেক্ট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেক্ট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং (ইইই) বিভাগের প্রফেসর ড. মো. সেলিম হোসেনের অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদকসহ ৯ শিক্ষার্থীকে সাময়িকভাবে বহিষ্কার করা হয়েছে।

আজ সকালে কুয়েটের জনসংযোগ কর্মকর্তার পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।
এতে বলা হয়, খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুয়েট) ইলেক্ট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেক্ট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং (ইইই) বিভাগের প্রফেসর ড. মো. সেলিম হোসেনের অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনার বিষয়টি ২ ও ৩ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেটের ৭৬তম জরুরি সভায় উত্থাপন করা হয়। সিসিটিভির ফুটেজ ও অন্যান্য তথ্যাদি পর্যালোচনা করে বিষয়টির প্রাথমিক সত্যতা প্রতীয়মান হওয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শৃঙ্খখলা ও আচরণবিধির আলোকে অসদাচরণের আওতায় সিন্ডিকেট ৯ শিক্ষার্থীকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সাময়িকভাবে বহিষ্কার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

সাময়িক বহিষ্কার হওয়া শিক্ষার্থীরা হলেন- কুয়েট বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এবং কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং (সিএসই) বিভাগের শিক্ষার্থী সাদমান নাহিয়ান সেজান (রোল-১৩০৭০২৪), সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং (সিই) বিভাগের শিক্ষার্থী মো. তাহামিদুল হক ইশরাক (রোল-১৫০১০৯০), এলই বিভাগের শিক্ষার্থী মো. সাদমান সাকিব (রোল-১৫১৯০৩৩), একই বিভাগের শিক্ষার্থী আ. স. ম. রাগিব আহসান মুন্না (রোল-১৫১৯০৪৮), সিই বিভাগের শিক্ষার্থী মাহমুদুল হাসান (রোল-১৬০১০২৯), (মেরিন ইঞ্জিনিয়ারিং (এমই) বিভাগের শিক্ষার্থী মোহাম্মাদ কামরুজ্জামান (রোল-১৬০৫০৩৯), সিএসই বিভাগের শিক্ষার্থী মো. রিয়াজ খান নিলয় (রোল-১৬০৭০৭৫), এমই বিভাগের শিক্ষার্থী ফয়সাল আহমেদ রিফাত (রোল-১৬০৫০৯৩) ও ম্যাটেরিয়ালস সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং (এমএসই) বিভাগের শিক্ষার্থী মোঃ নাইমুর রহমান অন্তু (রোল-১৬২৭০১০)।

প্রসঙ্গত, গত ৩০শে নভেম্বর খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. সেলিম হোসেনের সঙ্গে ছাত্রলীগের কয়েকজন খারাপ ব্যবহার করেন। এমনকি তাকে হুমকি দেওয়ারও অভিযোগ ওঠে। পরে বাসায় ফিরে বুকে ব্যথা অনুভব করেন তিনি। অবস্থার অবনতি হলে হাসপাতালে নেওয়ার পথে মৃত্যু হয় তার।।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

mamun

২০২১-১২-০৫ ১৬:২৫:৩৬

Murderers are murderers. They should not be considered as student or any kind of leader. They are murderers. They must be hanged.

Desher Bhai

২০২১-১২-০৪ ২১:৩৩:১৬

They should be charged with murder.

Professor Dr, Mohamm

২০২১-১২-০৪ ২০:৫৩:০১

কুয়েট শিক্ষকের মৃত্যু: ছাত্রলীগ নেতাসহ ৯ শিক্ষার্থী বহিষ্কার কিন্তু কতক্ষণের জন্য? আমার মনে হয় বাংলাদেশ ছাত্র লীগ জাতির জনক বঙ্গ বন্ধু শেখ মুজিবের হাতে গড়া এক ঐতিহ্যবাহী সংগঠন যার সাথে জড়িয়ে আছে আমার অসংখ্য সৃতি এবং তার শুরু ১৯৬৮ সালে । বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র হিসেবে আমি দুবার ছাত্র সংসদ ভোটে সন্মানিত সদস্য এবং পরে সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত হলেও কখনো নেতা হতে পারিনি – কর্মীই ছিলাম। কিন্তু এখন তো ছাত্র সংসদের ভোট হয় না । অতএব, এরা কি ভাবে নেতা হচ্ছে তা আমার কাছে পরিষ্কার নয় । যে কারনে, এরা আদর্শ বিহীন জনতার এক জন । নেতা হলে তাকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কৃত হতে হবে কেন? আমার মনে হয়, আমাদের লেখা পড়ায় গলদ ঢুকেছে যা থেকে পরিত্রাণের রাস্তা খোঁজা দরকার । ছাত্রদের সাথে শিক্ষকদের দূরত্ব দিন দিন বাড়ছে এবং বিজ্ঞানের ভাষা ইংরেজি হওয়াতে ছাত্র- শিক্ষকের বাবধান আরও বেড়েছে । অধিকন্তু, পারিবারিক শিক্ষা না থাকাতে কম মেধাবীরাই সর্বত্র দাপিয়ে বেড়াচ্ছে যা শহীদ প্রফেসর ড. মো. সেলিম হোসেন তাঁর জীবন দিয়ে প্রমান রেখে গেছেন । আমি এই প্রতিভাবান তরুণ অধ্যাপকের পরিবার, তাঁর অগনিত ছাত্র আর সহকর্মী, সকলের জন্য আমার সমবেদনা আর সহমরমিতা প্রকাশ করছি ।

Md barkatullah

২০২১-১২-০৪ ১৯:২৪:৫৭

samoik bohiskar kono somadhan noy.sthai vabe bohiskar korahok.tahole nex time beadobi bondho hobe

আপনার মতামত দিন

অনলাইন অন্যান্য খবর



অনলাইন সর্বাধিক পঠিত



ফেনী আইনজীবী সমিতির নির্বাচন

বিএনপি-জামায়াত ১০টি, আওয়ামী লীগ ৪টিতে জয়ী

DMCA.com Protection Status