পেটে গজ রেখেই সিজার, জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে প্রসূতি

ফেনী প্রতিনিধি

বাংলারজমিন ২ ডিসেম্বর ২০২১, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৬:৩৯ অপরাহ্ন

ফেনীর ডায়াবেটিস হাসপাতালে সিজারের সময় পেটে গজ-ব্যান্ডেজ রেখে সেলাই দেয়ায় জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে রয়েছে এক নবজাতকের গর্ভধারিণী মা। আর্থিক সংকটের কারণে দীর্ঘ এক মাস ধরে মারাত্মক যন্ত্রণায় নিজ বাড়িতে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছেন রোগী।

জেলা সিভিল সার্জন ডা. রফিক-উস সালেহীন জানান, একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছেন। ঘটনায় তিন সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। তারা প্রতিবেদন দিলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

প্রসূতির স্বামী মাহমুদুল হাসান জানান, শহরের শান্তি কোম্পানি এলাকার গৃহবধূ সাবরিনা আক্তারের প্রসব বেদনা নিয়ে গত ৪ঠা নভেম্বর মিজান রোডস্থ ডায়াবেটিস হাসপাতালে ভর্তি হন। একপর্যায় গাইনি চিকিৎসক সায়রা শরীফা শিল্পীর পরামর্শে প্রসূতির সিজার হয়। সিজারের সময় প্রসূতির পেটে গজ ব্যান্ডেজ রেখে সেলাই করা হয়।

ভুক্তভোগীর মা নাছিমা বেগম বলেন, তার মেয়েকে নিয়ে পাঁচ দিন হাসপাতালে ভর্তি থেকে বাড়িতে যাওয়ার দুই দিন পর থেকে প্রচণ্ড জ্বরসহ তলপেটে তীব্র ব্যথা এবং মূত্রনালি থেকে পুঁজ ও রক্ত বের হতে থাকে। পরবর্তী আল্ট্রাসনোগ্রাফি পরীক্ষায় অসঙ্গতি ধরা পড়ে।
আল্ট্রাসনোগ্রাফির সনোলজি বিশেষজ্ঞ ডা. দেবশ্রী চক্রবর্তী রিপোর্টে এ তথ্য মিলে।

ডা. দেবশ্রি চক্রবর্তী জানান, পেটের মধ্যে রক্ত জমাট সাদৃশ্য একটি বস্তু দেখা মিলেছে। ধারণা করা হচ্ছে সিজার শেষে অপারেশনের সময় পেটে গজ ব্যান্ডেজ রয়ে গেছে। এর কারণে রোগীর জ্বর, তীব্র পেট ব্যথা ও সেলাই স্থানে পচে পুঁজ বের হওয়াসহ প্রচুর রক্তক্ষরণ হচ্ছে।

অনলাইন পার্সেল ডেলিভারি ব্যবসায়ী মাহমুদুল হাসান শুভ আরও জানান, তিনি তার স্ত্রীর ডেলিভারির (সিজারে) সময় প্রায় ৫০ হাজার টাকা খরচ করেছেন। বর্তমানে চিকিৎসকরা ফের অপরেশন প্রয়োজন বলে জানিয়েছেন এবং অপরেশনে প্রচুর অর্থ লাগবে বলেও জানায়। এ মুহূর্তে তার কাছে এত অর্থ জোগান নেই বলেও তিনি জানান। চিকিৎসকের গাফিলতির কারণে তিনি ওই চিকিৎসকের কঠোর শাস্তিও দাবি করেছেন।

তবে মুঠোফোনে এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন গাইনি চিকিৎসক ডা. সায়েরা শরীফা শিল্পী বলেন, রোগীর শারীরিক অবস্থা ভালো ছিলো না। এখানে তার অপারেশনে কোন ভুল ছিল না। এটি অন্য কোন সমস্যা হতে পারে।

এদিকে চিকিৎসার প্রায় এক মাস অতিবাহিত হওয়ায় ফেনী ডায়াবেটিস হাসপাতালের পরিচালনা পর্ষদের কোন কর্মকর্তা বা হাসপাতালের চিকিৎসক এ বিষয়ে কোন মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

সিভিল সার্জন ডা. রফিক-উস সালেহীন আরও বলেন, ভুক্তভোগী পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিত একটা অভিযোগ পেয়েছেন। এ ঘটনায় তিন সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আগামী সাত দিনের মধ্যে রিপোর্ট জমা হলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার মতামত দিন

বাংলারজমিন অন্যান্য খবর

ফেনীতে মাদক মামলায় নারীর যাবজ্জীবন

২০ জানুয়ারি ২০২২

ফেনীতে মাদকের মামলায় এক সুমি আক্তার (৩৬) নামে এক নারীর যাবজ্জীবন কারাদন্ডের রায় ঘোষণা করেছে ...

শিবচরে ঔষধ কোম্পানির বিক্রয় প্রতিনিধির মরদেহ উদ্ধার

২০ জানুয়ারি ২০২২

মাদারীপুরের শিবচরে মো.শফিকুল ইসলাম (২৮) নামে ওষুধ কোম্পানির এক বিক্রয়কর্মীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার ...

টেকনাফে ৪০ হাজার ইয়াবাসহ দুই রোহিঙ্গা আটক

২০ জানুয়ারি ২০২২

কক্সবাজারের হ্নীলার আলীখালী গ্রামের সোলার প্যানেলের সামনে টেকনাফ-কক্সবাজার পাকা রাস্তা হতে ৪০ হাজার পিস ইয়াবাসহ ...

আগুনের লেলিহান শিখায় বাঁশখালীর ২১ পরিবার নিঃস্ব

২০ জানুয়ারি ২০২২

 চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ১৫টি বসতঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। গতকাল দুপুর ১২টা ৪০ ...

মানা হচ্ছে না স্বাস্থ্যবিধি

মৌলভীবাজারে নতুন করে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা

২০ জানুয়ারি ২০২২

আড়াইহাজারে মেঘনা নদী থেকে কয়লা ভর্তি ট্রলার ছিনতাই

২০ জানুয়ারি ২০২২

 নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে মেঘনা নদীতে নোঙর করা অবস্থায় একটি কয়লাভর্তি ট্রলার ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে। ট্রলারে প্রায় ...

দিনাজপুর সীমান্তে যুবকের লাশ উদ্ধার

২০ জানুয়ারি ২০২২

দক্ষিণ কোতোয়ালীর দাইনুর সীমান্তে লোকমান হাসান (৩০) নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার হয়েছে। গতকাল সকালে ...

কিশোরগঞ্জে ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তাদের বেতন স্কেল স্থগিতাদেশ প্রত্যাহারের দাবি

২০ জানুয়ারি ২০২২

 ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা ও ইউনিয়ন ভূমি উপ-সহকারী কর্মকর্তাদের উন্নীত বেতন স্কেলের উপর স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার ...

চট্টগ্রামে ভয়ঙ্কর রূপ নিচ্ছে করোনা

২০ জানুয়ারি ২০২২

চট্টগ্রামে ভয়ঙ্কর হয়ে উঠেছে করোনা মহামারি। এখানে প্রতিদিন আক্রান্তের সংখ্যা আগের দিনকে ছাড়িয়ে যাচ্ছে। সর্বশেষ ...



বাংলারজমিন সর্বাধিক পঠিত



নোয়াখালী পৌরসভা নির্বাচন

নৌকার প্রার্থী সহিদ উল্যাহ বিজয়ী

DMCA.com Protection Status