রকমারি

এই ফল সোনার থেকেও দামি

৯ নভেম্বর ২০২১, মঙ্গলবার, ২:৩৪ অপরাহ্ন

ফলের দাম লাখ লাখ টাকা! কখনও শুনেছেন ? ঋতু অনুযায়ী আমরা নানারকমের ফল খাই। যেমন- আপেল, আঙুর, কলা, লেবু , পেয়ারা আরো কত কি! সেসব ফলের দাম কত হয়? সেভাবে বেশি না হলেও ঋতু অনুযায়ী ওঠা নামা করে ফলের দাম। কিন্তু তা বলে কয়েক লক্ষ টাকা দিয়ে ফল অনেকেই হয়তো কেনেননি। জাপানে এক সুস্বাদু ফল পাওয়া যায়। ফলটির নাম ইউবারি মেলন। এই ফল দেখতে খুব একটা সুন্দর না হলেও দাম কিন্তু আকর্ষণীয়। বাইরে থেকে দেখতে অনেকটা লাগে তরমুজের মতো। তবে, স্বাদে কিন্তু আবার কমলালেবুর কাছাকাছি।

আবার ভেতরটা দেখতে কিছুটা মিষ্টি কুমড়ের মতো। জেনে রাখা ভালো যে, ফল গোত্রে এটাই হচ্ছে দুনিয়ার সবচাইতে দামি ফল। চাষের পদ্ধতি এবং ক্রস-প্রজননের উদ্ভাবনের মাধ্যমে প্রতিদিন নতুন নতুন জাতের ফল ও শাকসবজি উদ্ভূত হচ্ছে। সারা বিশ্বের এক্সটিক ফলগুলি প্রায়শই আমাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে এবং কৌতূহল জাগিয়ে তোলে, তবে ইউবারি মেলন তাদের সবাইকেই হয়তো ছাপিয়ে যাবে । এই ফলের যা দাম তা দিয়ে অনায়াসেই এক টুকরো জমি বা ভারী সোনার গয়না কিনে ফেলা যায়। রিপোর্ট অনুযায়ী, এক কেজি ইউবারি তরমুজের দাম ২০ লাখ টাকা পর্যন্ত হতে পারে। এই ফলটি জাপানে বিক্রি হয় এবং এটি শুধুমাত্র সমাজের শীর্ষ স্তরের ব্যক্তিরাই কিনে থাকেন। কারণ এর দাম সাধারণের ধরাছোঁয়ার বাইরে।

এই ফল সহজে পাওয়াও যায় না। এক বিশেষ বর্গের মানুষ ইউবারি মেলন বিক্রি করেন। আগ্নেয়গিরি সৃষ্ট মাটি এবং অতিরিক্ত বর্ষণ এই ফল চাষের উপযুক্ত পরিবেশ। বিলাসবহুল খাবার এবং পানীয় যেমন বার্বন, শ্যাম্পেন বা কোবে বিফের মতো ইউবারি মেলন এক বিশেষ পরিবেশের মধ্যে ইউবারি অঞ্চলে চাষ করা হয়। এই ফল বড় হতে সময় নেয় ১০০ দিন। ২০১৯ সালে এক জোড়া ইউবারি মেলন বিক্রি হয়েছিল প্রায় ৩২ লক্ষ টাকায়। জাপানে এটাই একমাত্র ফল নয়, যার দাম কেজি প্রতি লক্ষ টাকার উপর। এমন আরো বেশ কিছু ফল, সবজি পাওয়া যায়, যার দাম লাখ টাকার উপরে। এগুলোর আবার চাহিদাও অনেক। যদি পকেট পারমিট করে আর মনে সাহস থাকে, তাহলে একবার আশ মিটিয়ে নিতে পারেন ইউবারি মেলন কিনে।

সূত্র: dnaindia.com
প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী
জেনিথ টাওয়ার, ৪০ কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ এবং মিডিয়া প্রিন্টার্স ১৪৯-১৫০ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮ থেকে
মাহবুবা চৌধুরী কর্তৃক সম্পাদিত ও প্রকাশিত।
ফোন : ৫৫০-১১৭১০-৩ ফ্যাক্স : ৮১২৮৩১৩, ৫৫০১৩৪০০
ই-মেইল: [email protected]
Copyright © 2022
All rights reserved www.mzamin.com
DMCA.com Protection Status