দুই শিশুর কল্যাণকর সমাধান চান হাইকোর্ট

স্টাফ রিপোর্টার

শেষের পাতা ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ২:৩২ অপরাহ্ন

দুই শিশুর কল্যাণকর সমাধানের জন্য বাংলাদেশি বাবা শরীফ ইমরান ও জাপানি মা নাকানো এরিকোকে আবারো সময় দিলেন হাইকোর্ট। এ সময় আদালত দুই পক্ষের আইনজীবীদের উদ্দেশ্যে বলেন, আপনারা দুইপক্ষ মিলে শিশুদের জন্য কল্যাণকর হয়, এমন একটি সমাধানের ব্যবস্থা করুন। ওই সমাধানে যেন দেশের ভাবমূর্তি উজ্জল হয়। আমরা ২৮শে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত মুলতবি করলাম। আশা করি, এর মধ্যে আপনারা একটি ভালো সমাধান করবেন। আইনজীবী রোকনউদ্দিন মাহমুদকে উদ্দেশ্য করে হাইকোর্ট বলেন, আপনার ওপর আমরা খুব আশাবাদী, আপনি বিষয়টার সুন্দর একটা সেটেল করবেন। আপনি দেশ-বিদেশ সবটাই ভালো জানেন। আশা করি, আপনি দুপক্ষের মুরুব্বির দায়িত্ব পালন করবেন।
গতকাল বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের ভার্চ্যুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ এমন মন্তব্য করেন। আদালতে এরিকোর পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মোহাম্মদ শিশির মনির। ইমরান শরীফের পক্ষে ছিলেন রোকনউদ্দিন মাহমুদ, ফাওজিয়া করিম ফিরোজ ও মোস্তাফিজুর রহমান খান।
পরে হাইকোর্ট বর্তমানে গুলশানের ভাড়া ফ্ল্যাটে জাপানি নাগরিক নাকানো এরিকো ও বাংলাদেশি শরীফ ইমরান দুই শিশুসন্তান নিয়ে শুক্রবার ১৭ই সেপ্টেম্বর থেকে একদিন বাবা, একদিন মা থাকবেন বলে আদেশ দেন।  শুক্রবার সকাল ৮টায় প্রথমে মা যাবেন। পরদিন সকাল ৮টায় তিনি বাসা থেকে বেরিয়ে যাবেন। এরপর বাবাকেও একই নিয়ম অনুসরণ করতে বলা হয়েছে।
এর মধ্যে দুই পক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে আইনজীবীরা বিষয়টি সমাধান করে আগামী ২৮শে সেপ্টেম্বর আবার শুনানির দিন ঠিক করেছেন আদালত। এর মধ্যে আগামী ৩১শে সেপ্টেম্বর বাসা ভাড়া পরিশোধ করতে বলা হয়েছে।
গত ৩১শে আগস্ট হাইকোর্টের ভার্চ্যুয়াল বেঞ্চ তাদের ১৫ দিন ভাড়া বাসায় থাকার আদেশ দিয়েছিলেন। ১৯শে আগস্ট ওই দুই শিশুকন্যাকে ফিরে পেতে হাইকোর্টে শিশুদের হাজির করার নির্দেশনা চেয়ে জাপানি নাগরিক নাকানো এরিকো রিট করেন। রিটের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে সেদিন হাইকোর্টের একই বেঞ্চ দুই শিশুকে ৩১শে আগস্ট আদালতে হাজির করতে তাদের বাবা শরীফ ইমরান ও ফুফুকে নির্দেশ দেন। গত ২২শে আগস্ট ওই দুই শিশুকে হেফাজতে নেয় পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। তখন ওই দুই শিশুকে ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারে রাখা হয়। রাজধানীর গুলশান ও আদাবর থানার ওসিকে এ নির্দেশ বাস্তবায়ন করতে বলা হয়। এর আগে ২৫শে আগস্ট জাপানি দুই শিশুকে ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টার থেকে সুবিধামতো রাজধানীর যেকোনো একটি উন্নতমানের হোটেলে রাখার নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেন তাদের বাবা। আদালত আবেদন মঞ্জুর করে গুলশানের একটি ফ্ল্যাটে থাকার অনুমতি দেন। এরপর গত ৮ই সেপ্টেম্বর দুই মেয়েকে নিয়ে বাধাহীনভাবে উন্মুক্ত পরিবেশে চলাচল ও রাতে তাদের সঙ্গে ঘুমানোর অনুমতি পান জাপানি নাগরিক নাকানো এরিকো। আর বাবা দুই শিশুর সঙ্গে দিনের বেলা থাকতে পারবেন বলে আদেশ দেন হাইকোর্ট। আদেশে আদালত বলেন, বাবা-মা দুজনই তাদের শিশুদের নিয়ে বাইরে যেতে ও কেনাকাটা করতে পারবেন।

আপনার মতামত দিন

শেষের পাতা অন্যান্য খবর

পাকুন্দিয়ায় প্রচারণায় এমপি

ভোটের মাঠে শঙ্কা

২৫ অক্টোবর ২০২১

করোনায় আরও ৯ জনের মৃত্যু

২৫ অক্টোবর ২০২১

 গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আরও ৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ২৭ ...

১৭৯ নতুন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে এ পর্যন্ত মৃত্যু ৮৭

২৫ অক্টোবর ২০২১

 গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭৯ জন নতুন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে রাজধানীতেই ...

দ্বিতীয় পরীক্ষা আজ

গুচ্ছ পরীক্ষা নিয়ে একগাদা অভিযোগ

২৪ অক্টোবর ২০২১



শেষের পাতা সর্বাধিক পঠিত



DMCA.com Protection Status