সাত জেলায় ২৪ ঘণ্টায় ৯৪ জনের মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক

অনলাইন (১ মাস আগে) আগস্ট ২, ২০২১, সোমবার, ১০:১৬ পূর্বাহ্ন | সর্বশেষ আপডেট: ৫:১৬ অপরাহ্ন

ময়মনসিংহ, রাজশাহী, কুষ্টিয়া, বগুড়া, সিলেট, চাঁদপুর ও লক্ষ্মীপুরে করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় ৯৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে বগুড়ায় সর্বোচ্চ ২৬ জন, ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৩ জন, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ১৫ জন, সিলেটে ১৪ জন, কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ৯ জন, চাঁদপুরে ৫ জন ও লক্ষ্মীপুরে ২ জনের মৃত্যু হয়। বিস্তারিত প্রতিনিধিদের পাঠানো রিপোর্টে-

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী থেকে জানান, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে করোনায় সাতজন ও উপসর্গে আটজন মারা যান। আজ সকালে রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, ‘হাসপাতালের করোনা ইউনিটের বিভিন্ন ওয়ার্ডে করোনা সংক্রমণে মারা গেছেন সাতজন ও উপসর্গে আটজন। মৃতদের মধ্যে ৯জন পুরুষ ও ছয়জন নারী ছিলেন। এর মধ্যে রাজশাহীর ছয়জন, নাটোরের একজন, নওগাঁর দুইজন, পাবনার পাঁচজন ও কুষ্টিয়ার একজন।
রামেক পরিচালক বলেন, করোনায় সাতজনের মধ্যে রাজশাহীর চারজন, পাবনার দুইজন ও কুষ্টিয়ার একজন। অন্যদিকে উপসর্গে রাজশাহীর দুইজন, নাটোরের একজন, নওগাঁর দুইজন ও পাবনার তিনজন মারা গেছেন।

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ থেকে :
ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে ৭ জন করোনায় এবং ১৬ জন উপসর্গ নিয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। ক্রমবর্ধমান চাহিদা সামাল দিতে মমেক হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। গতকাল থেকে আইসিইউ বেড ২০ থেকে ২৫ এ উন্নীত করেছে।
সোমবার (০২ আগষ্ট ১০টায় বিষয়টি নিশ্চিত করে হাসপাতালের করোনা ইউনিটের মুখপাত্র ডা. মহিউদ্দিন খান মুন বলেন, রবিবার সকাল ৮টা থেকে সোমবার সকাল ৮টা পর্যন্ত ইউনিটে ৭ জন করোনায় মারা গেছেন। তন্মধ্যে ময়মনসিংহ জেলার ৫ জন ও নেত্রকোনার ২ জন। এছাড়া ওই সময়ের মধ্যে করোনার উপসর্গ নিয়ে ১৬ জন মারা গেছেন তন্মধ্যে ময়মনসিংহ জেলার ১০ জন ও জামালপুরের ৩ জন, নেত্রকোনার ১ ও গাজীপুরের ২জন।

করোনায় ৭ জন মারা গেছেন ময়মনসিংহ সদরের মাহবুব (৪০), লাইলী বেগম (৫০), মোঃ আবিদ মিয়া (৪৫), হালুয়াঘাটের আবুল হোসেন (৭০), ঈশ্বরগঞ্জের আলতাফউদ্দিন (৮৫), নেত্রকোনার সদরের রাজাআলী (৭০), মোহনগঞ্জের বিউটি আক্তার (৫০)।

করোনার উপসর্গ নিয়ে ১৬ জন মারা গেছেন- ময়মনসিংহ সদরের গিয়াসউদ্দিন (৬৫), শম্ভুগঞ্জের আব্দুল মজিদ (৫৫), তারাকান্দার আব্দুল হাকিম (৭০) ও আব্দুল জব্বার (৬৩), মুক্তাগাছার রবি সেন (৬০) ও আব্দুল খালেক (৬০), ঈশ্বরগঞ্জের আব্দুল হাই (৭০), গফরগাঁওয়ের নূরজাহান (৭০), ফুলপুরের সূরুজ আলী (৬০), ফুলবাড়িয়ার মকবুল হোসেন (৬৫), জামালপুর সদরের গাজিবুর (৬৫), দেওয়ানগঞ্জের আফসার আলী (৬৫), সরিষাবাড়ির সেতারা (৫০), নেত্রকোনা সদরের অলি (১৭), গাজীপুর সদরের সাজেদা আক্তার (৩০) ও শ্রীপুরের মালেকা বানু (৭০)।

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি জানান, কুষ্টিয়া করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে গত ২৪ ঘন্টায় ৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে ৭ জনের করোনা পজিটিভ ও ২ জনের করোনা উপসর্গ ছিল। এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় ১১২৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করে রেকর্ড ৪৮০ জনের নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ৪২.৬৬ শতাংশ।
বতর্মানে হাসপাতালে মোট ২২৬ জন রোগী ভর্তি আছেন। এদের মধ্যে ১৭৯ জন করোনা পজিটিভ আর ৪৭ জনের শরীরে উপসর্গ আছে।

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি জানান, লক্ষ্মীপুরে করোনা আক্রান্ত হয়ে রায়পুর উপজেলার চরমোহনা ইউনিয়নের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান সিদ্দিকুর রহমান ও একই উপজেলায় মাদ্রাসা শিক্ষক আবু বকর সিদ্দিক মারা গেছেন। রাতে লক্ষ্মীপুর থেকে ঢাকা নেয়ার পথে মারা যায় এ দুইজন। এনিয়ে জেলায় করোনাআক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন মারা গেছে ৭৬ জন। এর মধ্যে জুলাই মাসে মারা গেছে ২২জন। এছাড়া গত ২৪ ঘন্টায় ৫০৩ নমুনা পরীক্ষায় করোনা শনাক্ত হয়েছেন ২০৭জন। এ নিয়ে জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫ হাজার ৬৭৬ জন।


বগুড়া প্রতিনিধি জানান, বগুড়ায় করোনা ও উপসর্গে আরও ২৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে করোনায় ১৮ জন ও উপসর্গে আটজন মারা গেছেন। সোমবার (২ আগস্ট) জেলার ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন এ তথ্য নিশ্চিত করেন। করোনায় মৃতরা হলেন- আদমদীঘির মোমেনা (৬০), শাজাহানপুরের আবদুল আজিজ (৪৮), সোনাতলার শামসুদ্দিন (৬৫), গাবতলীর আজিজার রহমান (৭৭), আদমদীঘির আকতার বানু (৮৫), সদরের জয়নুল (৭১), মতিউর (৬০), বজলার রহমান (৭৫), বাধন চন্দ্র (৬৫) ও শিবগঞ্জের তাজুল ইসলাম (৬০)।

ডা. মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় ৪৭৮ নমুনায় আরও ১২৬ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তের হার ২৬ দশমিক ৩৫ শতাংশ। এর মধ্যে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালের পিসিআর ল্যাবে ২৮২ নমুনায় ৬২ জন, জিন এক্সপার্ট মেশিনে চার নমুনায় তিনজন, অ্যান্টিজেন পরীক্ষায় ১৬৯ নমুনায় ৫১জন এবং টিএমএসএস মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে ২৩ নমুনায় ১০ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে।

এদের মধ্যে সদরে ৬১ জন, শাজাহানপুরে ১৯ জন, শিবগঞ্জে ১২ জন, শেরপুরে ছয়জন, গাবতলীতে ছয়জন, আদমদীঘিতে পাঁচজন, দুপচাঁচিয়ায় পাঁচজন, ধুনটে চারজন, নন্দীগ্রামে তিনজন, সারিয়াকান্দিতে দুইজন, সোনাতলায় দুইজন ও কাহালুতে একজন।

স্টাফ রিপোর্টার, সিলেট থেকে জানান, সিলেট বিভাগে করোনায় আক্রান্ত হয়ে একদিনে ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে আক্রান্ত সনাক্ত হয়েছে ৮৫৩ জনের। মৃতদের মধ্য ৬ জন সিলেট জেলার বাসিন্দা। সিলেট জেলায় নতুন সনাক্ত হয়েছেন ৪৭৯ জন। সুনামগঞ্জে ১০৭ হবিগঞ্জে ৭৭ ও মৌলভিবাজারে ১৯০ জন নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন। সিলেটে শনাক্তের হার হচ্ছে ৪৫ দশমিক ৪১ শতাংশ। করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি আছেন ৪২২ জন।

চাঁদপুর প্রতিনিধি জানান, চাঁদপুরে গত ২৪ ঘণ্টায় ৫ জনের মৃত্যুসহ ৩৬৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। সংগৃহীত মোট নমুনার সংখ্যা ছিল ৮৯৯টি। নমুনা অনুপাতে আক্রান্ত শনাক্তের হার ৪০.৮২%। চাঁদপুর সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সূত্র জানায়, নতুন আক্রান্তসহ জেলায় করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১০২১৮ জন। মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১৭১ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ ঘোষণা করা হয়েছে ৬৮৭৭জনকে। বর্তমানে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা ৩১৭০জন। এর মধ্যে হাসপাতালে ভর্তি আছেন ১০৫ জন। বাকিরা হোম আইসোলেশনে আছেন।

আপনার মতামত দিন

অনলাইন অন্যান্য খবর

শনাক্ত হাজারের নিচে

করোনায় আরও ২৫ জনের মৃত্যু

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১



অনলাইন সর্বাধিক পঠিত



ই-অরেঞ্জ গ্রাহকদের মিছিলে পুলিশের লাঠিচার্জ

‘আজকের ভুক্তভোগী, আগামী দিনের অপরাধী’ (ভিডিও)

DMCA.com Protection Status