আবু আদনানের অলৌকিক ফিরে আসা এবং গুগল ম্যাপের রহস্য!

যুক্তরাজ্য থেকে ডা: আলী জাহান

মত-মতান্তর ১৯ জুন ২০২১, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৩:২৯ অপরাহ্ন

১. ১০ জুন অপহরণের শিকার ইসলামী বক্তা আবু আদনান শুক্রবার (১৮.০৬.২১) ফিরে এসেছেন। অথবা শুক্রবার তাকে ফিরিয়ে দেয়া হয়েছে। উনি কোথায় ছিলেন, কীভাবে ছিলেন, কেন ছিলেন? এ প্রশ্নগুলোর উত্তর আপাতত অন্ধকারে। এর আগে যারা ফিরে এসেছেন তারা আর কখনো মুখ খোলেননি। আবু আদনানও হয়তো এ বিষয়ে আর কথা বলবেন না। আবার কথা বলতেও পারেন। তবে নিকট অতীতে গুম থেকে ফিরে আসা মানুষদের ইতিহাস পর্যালোচনা করলে অপহরণ বিষয়ে তার কথা না বলার সম্ভাবনাই বেশি। আমরা তা দেখার অপেক্ষায় থাকলাম।


২. যারা সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘোরাফেরা করেন তাদের কাছে আবু আদনানের ফিরে আসাটা কোন আশ্চর্যজনক ব্যাপার বলে মনে হবে না। গতকাল ফেসবুকে গুগল লোকেশনে ( Google location) আবু আদনানের মোবাইলের সর্বশেষ যে অবস্থান দেখানো হয় তা অপহরণকারীদের জন্য স্বস্তিদায়ক ছিল না। গুগল ম্যাপের লোকেশন ফেসবুকের কল্যাণে বিদ্যুতের বেগে শেয়ার হতে থাকে। সে কারণেই অনেকেই ভাবছিলেন আবু আদনানের ফিরে আসা সময়ের ব্যাপার মাত্র। ঠিক তাই ঘটেছে। আবু আদনানকে ফিরিয়ে দেয়া হয়েছে।

৩. কিন্তু বাংলাদেশে গুম হয়ে যাওয়া সবার ভাগ্য কি আবু আদনানের মতো? অবশ্যই না। হারিয়ে যাওয়া সিংহভাগ মানুষের ভাগ্য আবু আদনানের মতো নয়। সাবিকুন্নাহারের মতো সবাই সৌভাগ্যবতী নন। সবার স্বামীরা ঘরে ফিরে আসে না। সব মা-বাবারা তাদের সন্তানকে ফিরে পান না। সব সন্তানেরা তাদের বাবাকে ফিরে পায় না। কেউ কেউ লাশ ফিরে পায়। কারো কারো কপালে লাশ দেখারও সুযোগ হয় না। দিন যায়, মাস যায়, বছর যায়। কাঁদতে কাঁদতে চোখের পানিও এক সময় শুকিয়ে যায়। তারপর মানুষ ভুলে যেতে থাকে। কারো কারো মনে থাকেনা যে বাসা থেকে, রাস্তা থেকে, গাড়ি থেকে, বাজার থেকে, অফিস থেকে কাউকে কাউকে ধরে নেয়া হয়েছিল যারা আর কখনো ফিরে আসেনি। ওরা কিন্তু মানুষ ছিল। একই দেশের নাগরিক ছিল!

৪. মনে আছে গত ১৩ বছরে গুমের শিকার হওয়া ৬০৪ জন মনুষ্য সন্তানের কথা? এ সংখ্যার ভেতরে ২০২১ সালের জানুয়ারি থেকে এপ্রিল পর্যন্ত ১১ জন মানব সন্তানও আছেন। এ মানুষগুলো ব-দ্বীপের বিভিন্ন এলাকায় জন্মগ্রহণ করলেও বাংলাদেশি নাগরিক হিসেবে পরিচিত ছিলেন। কেউ কেউ সরকারকে বড় অঙ্কের ট্যাক্স দিচ্ছিলেন, মানুষের কর্মসংস্থান করছিলেন। বিভিন্ন নামে উনাদের আলাদা পরিচিতি থাকলেও একটি পরিচয় অনেকটা প্রকট। এবং সে পরিচয়টি হচ্ছে বর্তমান সরকারের সাথে তাদের আদর্শিক বা রাজনৈতিক একটা মতপার্থক্য ছিল। ৬০৪ জন গুমের শিকার হওয়া এ মানব সন্তানদের ৭৮ জন পরিবারকে নিজেদের লাশ উপহার দিয়ে জাতিকে বলে গেছেন যে আমরাও মানুষ ছিলাম, আমাদের বেঁচে থাকার অধিকার ছিল। কিন্তু আপনাদের নীরবতা আমাদের বাঁচতে দেয়নি। গুমের শিকার হওয়া ৫৭ জন অলৌকিকভাবে বা বিশেষ ব্যবস্থায় ফিরে এসেছেন। ফিরে আসার পর কেউই আর মুখ খোলেননি। সৌভাগ্যবান কেউ কেউ দেশান্তরিত হয়েছেন। এরপরেও তারা স্তব্ধ হয়ে আছেন। কেউ কথা বলছেন না। অথবা তাদেরকে বলা হয়েছে যে, তারা যেন কথা না বলেন। ৮৯ জনকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী গ্রেপ্তার দেখিয়েছে। বাকি লোকগুলো কোথায়? উনারা কি বেঁচে আছেন নাকি মারা গেছেন? নিজেকে নিজে প্রশ্ন করি। কারণ অন্যকে এ প্রশ্ন করলে উত্তর পাবো না। অতীতে পাওয়া যায়নি। এখনো পাওয়া যাবে না।

৫. যেমনটা উত্তর পাওয়া যায়নি গুম হয়ে যাওয়া ব্যারিস্টার আহমেদ বিন কাসেমের (আরমান) উধাও হয়ে যাওয়ার ঘটনা নিয়ে প্রশ্ন করে। বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার আরমানকে মিরপুর ডিওএইচএসের নিজ বাসা থেকে সাদা পোশাকধারী কিছু লোক ( যারা নিজেদেরকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য বলে পরিচয় দিচ্ছিল) ০৯ আগস্ট ২০১৬ সালের রাতের বেলা টেনে হিঁচড়ে নিয়ে যায়। তাকে প্রস্তুত হবার জন্য মাত্র পাঁচ মিনিট সময় দেয়া হয়েছিল। কোন ওয়ারেন্ট ছিল না। কোন অভিযোগ ছিল না। তরুণ এ ব্যারিস্টারকে রাতের আঁধারে বাসা থেকে যখন ধরে নেয়া হয় তখন চিৎকার করে তার দুই মেয়ে আয়েশা তাকওয়া (চার বছর) এবং মারিয়াম বুশরা (আড়াই বছর) আব্বু আব্বু বলে পেছন থেকে ডাকছিল। ব্যারিস্টার আরমানের স্ত্রী তাহমিনা আক্তার অসহায়ের মতো তার স্বামীর চলে যাওয়া দেখছিলেন। উনিও কাঁদছিলেন। তবে আশা ছিল যে, যেহেতু আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ধরে নিয়ে যাচ্ছে নিশ্চয়ই তাকে ছেড়ে দেবে। তাহমিনা আক্তার এবং তার দুই সন্তানের চোখের পানি মুছিয়ে দেয়ার জন্য রাষ্ট্র কি এগিয়ে এসেছিল?

৬. ব্যারিস্টার আরমানের স্ত্রী তানিয়া আক্তারের সে আশা পূরণ হয়নি। তিনি তার স্বামীকে ফিরে পাননি। আয়েশা এবং মারিয়াম তাদের বাবাকে ফিরে পায়নি। বরাবরের মত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যারিস্টার আরমানকে গ্রেপ্তারের খবর অস্বীকার করেছে।

৭. তবে তাদেরকে ধরে নিয়ে গেল কারা?

৮. ইসলামী বক্তা আবু আদনান ফিরে আসলেন নাকি কেউ ফিরিয়ে দিয়ে গেল তা হয়তো কখনোই জানা যাবে না। তবে তিনি জীবিত ফিরে এসেছেন, পরিবারের জন্য এটি সবচেয়ে বড় পাওয়া। শুধু তিনি ফিরে আসেননি, তার তিন সঙ্গীও ফিরে এসেছেন। রংপুরের পুলিশ বলছে, ব্যক্তিগত কারণে তারা সকলেই একসঙ্গে গত ৮ দিন থেকে আদনানের এক বন্ধুর বাসায় আত্মগোপনে ছিলেন। অবিশ্বাস্য এ কাহিনীর রহস্য ভেদ করার জন্য স্বয়ং শার্লক হোমসকে আবার কবর থেকে ফিরিয়ে আনতে হবে।

৯. আবু আদনান এবং তার সফরসঙ্গীদের ফিরে আসাকে অথবা ফিরিয়ে দেয়াকে অভিনন্দন জানাই।
হারিয়ে যাওয়া এ চারজনের পরিবারের সদস্যদের কান্না এবং অসহায়ত্ব হয়তো কিছুটা এখন কমেছে। কিন্তু বাকিদের কী হবে?

১০. গুগল ম্যাপ দিয়ে ঢাকার সূত্রাপুরের সেলিম রেজা পিন্টু, ধানমন্ডি থেকে হারিয়ে যাওয়া কানাডার ম্যাগগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ইশরাক আহমেদ, সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার মীর আহমেদ বিন কাসেম আরমান, সাবেক সাংসদ ইলিয়াস আলী, সাবেক ওয়ার্ড কমিশনার চৌধুরী আলমদের অবস্থানটি নির্ণয় করা যায় না?

১১. পৃথিবীর কিছু ভাষা সার্বজনীন। স্থান, কাল, পাত্র ভেদে এর কোন পরিবর্তন হয়না। চোখের পানির একই ভাষা। বাবা ফিরে আসবে সেই আশায় সন্তানদের পথ চেয়ে বসে থাকা, প্রিয় সন্তান ফিরে আসবে সে জন্য মা-বাবার অন্তরের হাহাকার, প্রিয় স্বামী ফিরে এসে দরজায় কড়া নাড়বে সেই আশায় প্রিয়তমার চোখ মোছা, একই রক্তের বন্ধনে আবদ্ধ প্রিয় ভাই ফিরে আসবে সেই আশায় আশাহত বোনের অসীমের পানে চেয়ে থাকা- সবই একই ভাষা, একই অভিব্যক্তি।

১২. সেই সার্বজনীন ভাষাকে বুঝার ক্ষমতাও আমরা হারিয়ে ফেলেছি? আমরা মানুষ তো?

১৩. ব্যারিস্টার আরমানের ছোট দুই মেয়ের বয়স এখন নয় (আয়েশা) এবং সাড়ে সাত বছর (মারিয়াম)। ওরা একসময় বড় হবে এবং রাষ্ট্রকে কঠিন একটি প্রশ্ন ছুঁড়ে দেবে। আমার বাবাকে গুম করলো কারা? কেন তাকে গুম করা হলো? দেশের নাগরিকদের নিরাপত্তা দেয়ার দায়িত্ব যাদের হাতে তারা সেই প্রশ্নের উত্তর দিতে পারবেন তো?

---
ডা: আলী জাহান
সাবেক পুলিশ সার্জন, যুক্তরাজ্য পুলিশ।
[email protected]

(তথ্যসূত্র: ১. আইন ও সালিশ কেন্দ্র ২. এশিয়ান হিউম্যান রাইটস কমিশন)

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Md Aminul Islam

২০২১-০৬-২২ ১৪:০২:৩৬

অসাধারন লিখা । অসংখ্য ধন্যবাদ ।

MD. ZAMANUR RASHEED

২০২১-০৬-২০ ১৪:১২:৪৩

এরকম লেখনিতে বেঁচে থাকুন অনেক অনেক দিন। অফুরান স্রদ্ধা রইল।

Rana

২০২১-০৬-২০ ১২:৫৫:২২

এভাবে আমরা বেঁচে আছি, অদৃশ্য বন্দি খাঁচায়।

anwar hossain

২০২১-০৬-২০ ১২:২৯:৩১

দুনিয়ার বুকে হারিয়ে যাওয়া ভাই-বোনদের বিচার না হলেও সমস্ত জাহানের সৃষ্টিকর্তার দরবারে বিচার হবেই! আমাদের শেষ ভরসা সে মহান প্রভুর দরবারে জিনিস ছাড় দেন কিন্তু ছেড়ে দেন না।

sazzad

২০২১-০৬-২০ ০৬:৫০:০৫

ব্যারিস্টার আরমানের ছোট দুই মেয়ের বয়স এখন নয় (আয়েশা) এবং সাড়ে সাত বছর (মারিয়াম)। ওরা একসময় বড় হবে এবং রাষ্ট্রকে কঠিন একটি প্রশ্ন ছুঁড়ে দেবে। আমার বাবাকে গুম করলো কারা? কেন তাকে গুম করা হলো? দেশের নাগরিকদের নিরাপত্তা দেয়ার দায়িত্ব যাদের হাতে তারা সেই প্রশ্নের উত্তর দিতে পারবেন তো?

Dr.Md.Kabiruzzaman

২০২১-০৬-১৯ ১৮:২১:৪৯

তাহমিগুগল ম্যাপ দিয়ে ঢাকার সূত্রাপুরের সেলিম রেজা পিন্টু, ধানমন্ডি থেকে হারিয়ে যাওয়া কানাডার ম্যাগগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ইশরাক আহমেদ, সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার মীর আহমেদ বিন কাসেম আরমান, সাবেক সাংসদ ইলিয়াস আলী, সাবেক ওয়ার্ড কমিশনার চৌধুরী আলমদের অবস্থানটি নির্ণয় করা যায় না? তার দুই সন্তানের চোখের পানি মুছিয়ে দেয়ার জন্য রাষ্ট্র কি এগিয়ে এসেছিল?

Dr.Md.Kabiruzzaman

২০২১-০৬-১৯ ১৮:১৯:৫৬

তাহমিনা আক্তার এবং তার দুই সন্তানের চোখের পানি মুছিয়ে দেয়ার জন্য রাষ্ট্র কি এগিয়ে এসেছিল?

Md. Mujibul Alam

২০২১-০৬-১৯ ১৮:১৯:৪৪

যারা কাউকে গুম ক রে, তারা যালিম। আর আল্লাহ যালিমদের অবশ্যই শাস্তি দিবেন।

Muhammad

২০২১-০৬-১৯ ০৪:১১:২৫

লেখাটির জন্য ধন্যবাদ লেখককে। কথাগুলো পরে রক্ত হিম হয়ে গেল। এভাবে আমরা বেঁচে আছি, অদৃশ্য বন্দি খাঁচায়।

AA

২০২১-০৬-১৯ ০১:১৯:২৫

Bangladesh improves in Global Peace Index. Really?

জুলফিকার

২০২১-০৬-১৯ ০০:৩৪:২১

ধন্যবাদ সবাই যুদি আপনার মতো কলম যোদ্ধা হতো। সবাইতো আপনার মতো লিখতে সাহস পায়না

RAFIQUL ISLAM

২০২১-০৬-১৯ ০০:০১:৪২

জনগন জানে কে কি করছে

Mohammad Hossain

২০২১-০৬-১৯ ১২:৫৫:৫৭

যে কথা দেশের সাংবাদিব বুদ্ধিজীবীরা বলার সাহস করে না-সে কথা আপনি সুদূর যুক্তরাজ্যের লন্ডন আছেন বলেই বলতে পেরেছেন। সহি সালামতে বেঁচে থাকুন ডা: আলী জাহান। আল্লাহা আপনাকে উত্তম জাযাহ দান করুক ।

Md. Altaf Hossain

২০২১-০৬-১৯ ১২:৪০:৫০

ধন্যবাদ ভাই আপনাকে । আপনার সুন্দর লেখার জন্য।

হোসেন

২০২১-০৬-১৮ ২৩:৩০:০৬

প্রশাসন মনে করে বাংলাদেশের সব মানুষ ছাগল.... চোখ-কান বন্ধ রেখে রেখে ঘাস খায়......(আমরাও ঘাস খেতে অভ্যস্ত হয়ে গেছি) আর কিছু কিছু মানুষ চোখ-কান বন্ধ রেখে পাতার বাঁশি বাজায়...... ধন্যবাদ আপনার সুন্দর আর সাহসী লিখার জন্য।

mohammad zahir uddin

২০২১-০৬-১৯ ১২:২৪:১৭

Peoples are not stupid. What you are telling we believed it.

ফারুক হোসেন

২০২১-০৬-১৯ ১২:১৯:৫১

বিচলিত হওয়ার কোন কারন নাই, পুরু খবর শিঘ্রই আসছে! নাটকের কেবল শুরু! এখন প্রডিউসার-পরিচালক নিয়োগ পক্রিয়া চলছে। পরিচালকই জানাবেন গত ৮ দিন ত্বহা কোথায় ছিলেন।

Md Mojid

২০২১-০৬-১৮ ২৩:১৯:০৪

কিছু  বলার মতো ভাষা নাই এই সত্যি কথাটি লেখার জন্য ধন্যবাদ আপনাকে

Bappi

২০২১-০৬-১৮ ২৩:১০:১৯

A kind answer to those unfortunate daughters of Barrister Arman and Others ‘Once upon a time there was a VERY BIG MONSTER who used to swallow people if anything goes against that BIG MONSTER. They can complaint to ALMIGHTY ALLAH. That’s the best they can do for their DAD or Beloved person.

MOHAMMAD SAIFUL SAIF

২০২১-০৬-১৯ ১১:৫৭:২১

The best way to safe someone to carry a GPS chips in the body. It is not vey expensive compare to the life. Some batteries last for 2 years.

Kamrul

২০২১-০৬-১৮ ২২:১৮:৩৩

দুনিয়ার বুকে হারিয়ে যাওয়া ভাই-বোনদের বিচার না হলেও সমস্ত জাহানের সৃষ্টিকর্তার দরবারে বিচার হবেই! আমাদের শেষ ভরসা সে মহান প্রভুর দরবারে জিনিস ছাড় দেন কিন্তু ছেড়ে দেন না।

Rabiul

২০২১-০৬-১৯ ১১:১২:৪৯

আপনাকে এবং আপনার পত্রিকে আমার পক্ষ থেকে আন্তরিক ধন্যবাদ সত্য প্রচার করার জন্য আপনাদের পত্রিকা দিনে বিশ বার পড়ি

Sifat

২০২১-০৬-১৮ ২২:১২:৩৮

Many many thanks.

Kazi

২০২১-০৬-১৮ ২২:০৮:০৩

মুখে কুলুপ এঁটে দেওয়া হয়েছে। কিছু বলা যাবে না । আজ মনে পড়ছে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত শেয়ার বাজার ধ্বংসের পর তদন্ত রিপোর্ট সম্বন্ধে এই কথাটি বলেছিলেন - বলা যাবে না।

Sakhawat

২০২১-০৬-১৯ ১০:৪৭:৩০

আপনি সাবেক পুলিশ সার্জন, সাহস করে, সাবধানে সত্য কথা লিখে ফেললেন, আপনার মতো করে সব পেশার সাবেকরা প্রতিবাদী হলে অবস্থার উন্নতি হতেও পারে ।

Sayed Iquram Shafi

২০২১-০৬-১৯ ১০:২৯:০৯

যে কথা দেশের সাংবাদিব বুদ্ধিজীবীরা বলার সাহস করে না-সে কথা আপনি সুদূর যুক্তরাজ্যের লন্ডন আছেন বলেই বলতে পেরেছেন। সহি সালামতে বেঁচে থাকুন ডা: আলী জাহান। জাজাকাল্লাহু খায়রান।

MOHAMMAD SHAHIDUR RA

২০২১-০৬-১৯ ১০:২২:২৮

লেখক কে অনেক ধন্য বাদ কিন্ত চিন্ত হয় লেখকের যদি কিছু হয়

জাকারিয়া আহমদ শাহিন

২০২১-০৬-১৮ ২১:১৪:১৬

আমারও একই প্রশ্ন রাষ্ট্র যন্ত্রের কাছে

ক্ষুদিরাম

২০২১-০৬-১৮ ২১:১১:২৩

আমি বাকরুদ্ধ ! শুধু অপেক্ষায় রইলাম পরিনতি দেখার। কারন সময়কে দেখা যায়না তবে সময় ঠিকই পরিনতি দেখায় ! কাল আর মহাকালের কাছেই ছেড়ে দিলাম সব অভিযোগ।

শহীদ

২০২১-০৬-১৯ ১০:০৫:০২

কপট শোষক তার বিরুদ্ধমত সইতে পারে না।

Nijam ali

২০২১-০৬-১৮ ২০:৫৮:২৪

Thanks.

নাম প্রকা‌শ

২০২১-০৬-১৮ ২০:৩৫:৪৬

‌কি দেখার কথা কি দেখ‌ছি? কি শুনার কথা কি শুন‌ছি? ৫০ বছর প‌রেও এ‌সে স্বাধীনতাটা‌কে খুঁজ‌ছি!! হায়‌রে! এটা‌কি আমার বাংলা‌দেশ??

এ কে এম মহীউদ্দীন

২০২১-০৬-১৯ ০৯:৩৪:১৪

ছোটবেলায় দৈত্য, দানব, দানবী, রাক্ষস, রাক্ষসী, ডাইনীদের কথা শুনেছি। এখন তাদের দেখছি এই বাংলাদেশেই।

আপনার মতামত দিন

মত-মতান্তর অন্যান্য খবর



মত-মতান্তর সর্বাধিক পঠিত



দেখা থেকে তাৎক্ষণিক লেখা

কোটিপতিদের শহরে তুমি থাকবা কেন?

DMCA.com Protection Status