গফরগাঁওয়ে শিক্ষা কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ঘুষ বাণিজ্যের অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ থেকে

বাংলারজমিন ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১, মঙ্গলবার

ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলার ২৩৯টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতন ইএফটি করতে পৌনে ৩ লাখ টাকা ঘুষ আদায়ের অভিযোগ উঠেছে শিক্ষা কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) সালমা আক্তারের বিরুদ্ধে। এ ছাড়াও বিদ্যালয় উন্নয়নের বরাদ্দ থেকে অন্তত ১০ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। এসব বিষয়ে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ও জেলা শিক্ষা কর্মকর্তার কার্যালয়ে লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে। শিক্ষকদের সঙ্গে কথা বলে ঘুষ নেয়ার বিষয়টির সত্যতাও মিলেছে। এসব বিষয়ে ডিজি অফিসের অভিযোগ বিষয়ক তদন্তের দায়িত্বে থাকা শিক্ষা কর্মকর্তা তাপস কুমার সরকার (অর্থ) বলেন, ওনার বিষয়ে তদন্ত হচ্ছে। তদন্ত প্রতিবেদন দেয়ার পর নিশ্চয়ই ব্যবস্থা নেয়া হবে। জানা যায়, দেশের সব পর্যায়ে ডিজিটাল পদ্ধতি চালু করার অংশ হিসেবে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কর্মরত শিক্ষকদের বেতনও ডিজিটাল পদ্ধতি করতে ইলেক্টনিক ফান্ড ট্রান্সফার (ইএফটি) চালু করার নির্দেশ দেয় সরকার। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বেশকিছু শিক্ষক এ বিষয়ে গণমাধ্যম কর্মীদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা ইএফটি পূরণ বাবদ প্রত্যেক শিক্ষকের কাছ থেকে ২০০ টাকা করে উৎকোচ নেন।
কোনো শিক্ষক দিতে অস্বীকার করলে ওই শিক্ষকের ইএফটি পূরণ বন্ধ করে দেন। ফলে উপজেলার সকল শিক্ষককেই বাধ্য হয়ে ঘুষ দিয়ে ইএফটি পূরণ করেন। তবে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) সালমা আক্তার বলেন, ব্যক্তিগত আক্রোশে কতিপয় শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা ভুয়া অভিযোগ করছেন। ইএফটি ও বিদ্যালয়ের নাম সংশোধনের জন্য শিক্ষকরা শুধুমাত্র কম্পিউটারের জন্য কালি ও কাগজ কিনে দিয়েছে। এদিকে ২০২০ সালে গফরগাঁওয়ে ২৩৯টি  বিদ্যালয়ে স্লিপ প্রকল্পের আওতায় ৫০ ও ৭০ হাজার টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়। একাধিক প্রধান শিক্ষক বলেন, বরাদ্দ পাওয়া সকল বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকদের নিকট থেকে ১২ শতাংশ হারে টাকা আদায় করে ৯.৫০ শতাংশ হারে জমা দিয়ে বাকি ৩ লক্ষাধিক টাকা আত্মসাত করেন শিক্ষা কর্মকর্তা। উপজেলার ২৩৯টি বিদ্যালয়ের ২০২০ সালে বিজয় ফুল ও ইন্টারনেট বরাদ্দের ৩১৫০ টাকা থেকে প্রধান শিক্ষকদের ২০০০ টাকা করে নিতে বাধ্য করেন। এখান থেকেও তিনি দুই লক্ষাধিক টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন। ২০১৯-২০ অর্থবছরের আন্তঃপ্রাথমিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার বরাদ্দের পুরো টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে এ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে। তাছাড়াও প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে আসা বরাদ্দ ভয়ভীতি দেখিয়ে ৫ থেকে ১০ হাজার টাকা পর্যন্ত ঘুষ আদায় করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।
এ বিষয়ে বেশ কয়েকজন প্রধান শিক্ষক বলেন, ঘুষ না দিলে তিনি চেক দেন না। এ নিয়ে কথা বললে পরবর্তী সময়ে শিক্ষকদের নানাভাবে হয়রানি করেন শিক্ষা কর্মকর্তা। এদিকে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা শফিউল হক বলেন, তদন্ত চলছে, অনিয়মের অভিযোগ প্রমাণিত হলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার মতামত দিন

বাংলারজমিন অন্যান্য খবর

রূপগঞ্জে ২০ ইটভাটাকে কোটি টাকা জরিমানা

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা ২০টি ইটভাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান পরিচালনা করে প্রায় এক কোটি ...

পরীক্ষার দাবিতে বিএম কলেজ শিক্ষার্থীদের সড়ক অবরোধ

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

এবার রাস্তায় নামলো বিএম স্কুলের শিক্ষার্থীরা। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অনার্স ৪র্থ বর্ষের মৌখিক, ব্যবহারিক ও মাস্টার্সসহ ...

কলাপাড়ায় নৌকার নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

পটুয়াখালীর কলাপাড়ার ডালবুগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে উপনির্বাচনে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী দেলওয়ার হোসেন সিকদারের নির্বাচনী ...

বানিয়াচং-নবীগঞ্জ সড়কে গণডাকাতি

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

হবিগঞ্জের বানিয়াচং-নবীগঞ্জ সড়কে গণডাকাতি সংঘটিত হয়েছে। এ সময় ডাকাতরা ১৫/২০টি গাড়ি আটকিয়ে চালক ও যাত্রীদের ...

বিয়েতে রাজি না হওয়ায়...

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

কিশোরগঞ্জ জেলখানায় খুন

তদন্তে মিলছে কর্তৃপক্ষের গাফিলতি

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

কিশোরগঞ্জ জেলা কারাগারের একই সেলে আটক থাকার সময় হাজতির হাতে ঘুমন্ত অবস্থায় আব্দুল হাই (২৭) ...

রায়পুরে উত্তপ্ত নির্বাচনী মাঠ

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

 নির্বাচনের দিন যতই ঘনিয়ে আসছে, ততই বাড়ছে উত্তাপ। বাড়ছে বিচ্ছিন্ন ঘটনা। প্রতিদিন ভোর থেকে গভীর ...

খুলনায় বিএনপি’র মহাসমাবেশ ঘিরে ধরপাকড়

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

আগামী ২৭শে ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিতব্য খুলনার মহাসমাবেশ ব্যর্থ করতে নানা ষড়যন্ত্র চলছে বলে অভিযোগ করা হয়েছে। ...

হারাগাছে ত্রিমুখী লড়াই

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১

শেষ মুহূর্তের নির্বাচনে জমে উঠেছে রংপুরের বিড়ি শিল্প এলাকাখ্যাত কাউনিয়া উপজেলার হারাগাছ পৌরসভা নির্বাচন। আওয়ামী ...



বাংলারজমিন সর্বাধিক পঠিত



DMCA.com Protection Status