করোনার টিকার তেমন কোনো পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া নেই: তাপস

স্টাফ রিপোর্টার

অনলাইন (১ মাস আগে) জানুয়ারি ২৩, ২০২১, শনিবার, ৬:১২ অপরাহ্ন

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, করোনার টিকার তেমন কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই। এই টিকা দেয়ার পর হয়তো একটু গা গরম হতে পারে, আবার ঠিক হয়ে যাবে। এটা এমন কোনো পার্শ্ব-প্রতিক্রিয়া না, যে বিভ্রান্তি ছড়াতে হবে, গুজব ছড়াতে হবে। সরকারের কর্মপরিকল্পনা অনুযায়ী যার যখন নাম আসবে, তখন আপনারা সবাই নির্ভয়ে টিকা নিন। কেউ কোন বিভ্রান্তিতে পড়বেন না।

শনিবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তাপস বলেন, ছোটবেলায় আমরা সবাই টিকা নিয়েছি। একটা নয় - চার, পাঁচটা করে নিতে হয়েছে।  হামের টিকা , পোলিও ওষধ খাওয়ানো, চিকেন পক্স এর টিকা, সবারই শরীরে টিকার চিহ্ন রয়েছে। ছোটবেলায় আমাদের টিকা নেওয়ার পর ডাক্তাররা যেমন বলতেন - রাতের বেলা একটু জ্বর আসতে পারে, জ্বর তিন দিন পর্যন্ত থাকতে পারে, এতে ঘাবড়ানোর কিছু নেই।
করোনার মহামারীর টিকা নিয়ে যারা বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে, দলীয় নেতা-কর্মী ও দেশবাসীকে সেসব বিভ্রান্তির সঠিক জবাব দিতে হবে।
ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস বলেন, এরই মাঝে অনেকেই অনেক কথা বলেছেন, অনেক বিভ্রান্তি ছড়িয়েছেন। টিকা কিন্তু দেশে চলে এসেছে। এটাই শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রমাণ। যে যাই বলুক না কেন, শেখ হাসিনা যেটা বলেন সেটাই আসলে বাস্তব হয়।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ সংগঠনকে বেগবান করতে নিরলস পরিশ্রম করে চলেছেন জানিয়ে ব্যারিস্টার শেখ তাপস বলেন, আমি অনুরোধ করব, তৃণমূল থেকেই যেন সংগঠনকে সাজিয়ে তোলা হয়। একটি সংগঠনের বড় উপাদান হলো শৃঙ্খলা। চেইন অব কমান্ড মানতে হবে, সৃষ্টি করতে হবে। কোথাও যেন এটার ব্যত্যয় না হয় এবং তৃণমূল থেকে নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন করেন সংগঠনের অনুপ্রবেশকারীদের বিতাড়িত করতে হবে। কারণ দল এখন ক্ষমতায় অনেকে আসতে চাইবে অনেকে মনে করবে এখানে মধু আছে। কিন্তু যারা তৃণমূল থেকে উঠে আসে তারা মধুর জন্য দল করে না। তারা ত্যাগ স্বীকার করে, দলকে ভালোবাসে বলেই দল করে। ইউনিট আওয়ামী লীগ থেকে ঢেলে সাজাতে হবে তারপর ওয়ার্ড তারপর থানা তারপর মহানগর। আমাদের এটা মনে করলে হবে না যে, পঁচাত্তর আর আসবে না, ওয়ান-ইলেভেন আর আসবে না। কারণ, ষড়যন্ত্রকারীরা সারাজীবন ষড়যন্ত্র করে যাবে, অসন্তোষ সৃষ্টির পাঁয়তারা করে যাবে। আমাদেরকে সদা জাগ্রত থাকতে হবে এজন্য সংগঠনের সাথে বড় আর কিছু নাই।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু আহম্মেদ মন্নাফির সভাপতিত্বে স্মরণ সভা ও দেয়া মাহফিলে অন্যান্যের মধ্যে এসময় উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. হুমায়ুন কবির,  যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী মোর্শেদ হোসেন কামাল, সহ-সভাপতি আব্দুস সাত্তার মাসুদ, ডা. দীলিপ কুমার রায় প্রমুখ।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Kajal

২০২১-০১-২৩ ০৭:১০:০৬

উনি নিজে প্রথমে নিলে সবার সংশয় কাটবে।

শাওন

২০২১-০১-২৩ ১৯:৫৪:৩৬

আপনি প্রথম দিন মিডিয়ার সমনে টিকা নিন।

আপনার মতামত দিন

অনলাইন অন্যান্য খবর

রোহিঙ্গা নারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিতই প্রধান চ্যালেঞ্জ

ক্যাম্পে নারী দিবস-২০২১ উপলক্ষে আলোচনা সভায় বক্তারা

৮ মার্চ ২০২১



অনলাইন সর্বাধিক পঠিত



তালাকের পরও পাসপোর্টে রাকিবের নাম

পুলিশের জেরার মুখে পড়তে হচ্ছে তামিমাকে

গাজীপুর আইনজীবী সমিতির নির্বাচন

সভাপতি-সম্পাদকসহ ৫ পদে বিএনপি বিজয়ী

DMCA.com Protection Status