এবারই প্রথম শীতবস্ত্র বিতরণে সব সম্প্রদায়ের পাশে আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলাম

স্টাফ রিপোর্টার

এক্সক্লুসিভ ১৬ জানুয়ারি ২০২১, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৮:৪০ অপরাহ্ন

দেশের প্রাচীনতম স্বেচ্ছাসেবী ও মানবকল্যাণমূলক প্রতিষ্ঠান আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলাম প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও দেশের গরিব, অসহায় ও দুস্থ শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র (কম্বল) বিতরণ করেছে। তবে অন্যান্য বছরের তুলনায় এবার এক ব্যতিক্রমী উদ্যোগ যুক্ত হয়েছে শীতবস্ত্র বিতরণ কার্যক্রমে। এবারই প্রথমবারের মতো দরিদ্র মানুষের শীত নিবারণে সংগঠনটি মুসলিম সম্প্রদায়ের সঙ্গে সঙ্গে হিন্দু, বৌদ্ধ এবং খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের দরিদ্র মানুষের মাঝেও শীতবস্ত্র বিতরণের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। এরই অংশ হিসেবে সর্বপ্রথম ঢাকার কমলাপুরে ধর্মরাজিক বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ এবং বাংলাদেশ বৌদ্ধ কৃষ্টি প্রচার সংঘের সভাপতি শ্রীমৎ বুদ্ধপ্রিয় মহাথেরের হাতে সাড়ে তিনশ’ মানুষের জন্য কম্বল তুলে দেয়া হয় ১১ই জানুয়ারি। এরপর ১৩ই জানুয়ারি হিন্দু সম্প্রদায়ের গরিব, অসহায় ও দুস্থ শীতার্তদের মাঝে বিতরণের জন্য ঢাকাস্থ রামকৃষ্ণ মিশনেও ৩৫০টি কম্বল প্রদান করা হয়। ঢাকাস্থ রামকৃষ্ণ মঠ ও মিশনের অধ্যক্ষ স্বামী পূর্ণাত্মানন্দ মহারাজের কাছে এই সহায়তা তুলে দেয়া হয়। সবশেষ ১৪ই জানুয়ারি খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের দরিদ্র মানুষের জন্য এই সহায়তা তুলে দেয়া হয়। কাকরাইল চার্চের প্রিস্ট ইনচার্জ ফাদার বিমল ফ্রান্সিস গোমেজের কাছে ৩৫০টি কম্বল হস্তান্তর করা হয়।
পৃথকভাবে আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলামের পক্ষ হতে কম্বল হস্তান্তর করেন সংস্থার ট্রাস্টি ও সহ-সভাপতি এবং কো-অর্ডিনেশন কমিটির চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আজিম বখশ। এ সময় আরো ছিলেন আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলামের যুগ্ম পরিচালক এএসএম শাহেন রেজা। শীতবস্ত্র বিতরণে সহযোগিতা করেছে ক্রিসেন্ট পেপার মিল।
উল্লেখ্য, আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলাম এ বছর ২৭টি জেলা শাখার মাধ্যমে ৪৭৮০টি, রোহিঙ্গা শরণার্থীদের মাঝে ৩০০০টি, বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের মাঝে ৩৫০টি, হিন্দু সম্প্রদায়ের জন্য ৩৫০টি এবং খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের মধ্যে ৩৫০টি কম্বল বিতরণ করে। এর বাইরেও সংস্থার পরিচালনা পরিষদের সদস্যদের মাধ্যমে ঢাকা শহরের বিভিন্ন এলাকায় ৪,৪১৮টি কম্বল গরিব, অসহায় ও দুস্থ শীতার্তদের মাঝে বিতরণ করেছে।

আপনার মতামত দিন

এক্সক্লুসিভ অন্যান্য খবর



এক্সক্লুসিভ সর্বাধিক পঠিত



DMCA.com Protection Status