বিবিসির প্রতিবেদন

যুক্তরাষ্ট্রে চীনের নতুন কৌশল

মানবজমিন ডেস্ক

বিশ্বজমিন (১ মাস আগে) ডিসেম্বর ৩, ২০২০, বৃহস্পতিবার, ১০:২৬ পূর্বাহ্ন | সর্বশেষ আপডেট: ৬:০০ পূর্বাহ্ন

যুক্তরাষ্ট্রে ক্ষমতা পরিবর্তনকে সামনে রেখে নতুন কৌশল নিয়েছে চীন। এরই মধ্যে আসন্ন জো বাইডেন প্রশাসনকে প্রভাবিত করতে কাজ শুরু করেছে চীনা এজেন্টরা। যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ইন্টেলিজেন্সের পরিচালকদের প্রধান উইলিয়াম ইভানিনা এ তথ্য প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেছেন, প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত জো বাইডেন টিমের ঘনিষ্ঠ এমন লোকজনের দিকে দৃষ্টি দিয়েছে চীনারা। এক্ষেত্রে তারা যোগাযোগ বৃদ্ধির চেষ্টা করছে। এ খবর দিয়েছে অনলাইন বিবিসি। অন্যদিকে আইন মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা আলাদাভাবে বলেছেন, এরই মধ্যে যুক্তরাষ্ট্র ছেড়ে পালিয়েছেন কমপক্ষে এক হাজার চীনা এজেন্ট। অ্যাসপিন ইনস্টিটিউটতে ভার্চুয়াল আলোচনায় ইভানিনা বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে করোনা ভাইরাস তৈরিতে মার্কিন প্রচেষ্টায় হস্তক্ষেপ করার চেষ্টা করেছিল চীন।
এ ছাড়া তারা যুক্তরাষ্ট্রে অনুষ্ঠিত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনেও হস্তক্ষেপের চেষ্টা করেছে। এখন তারা জো বাইডেন প্রশাসনের সঙ্গে নতুন করে হাত মেলানোর চেষ্টা করতে পারে।
উল্লেখ্য, প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের সময়ে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে চীনের সম্পর্কে মারাত্মক অবনতি হয়েছে। হুয়াওয়েসহ চীনা প্রযুক্তির বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থান নিয়েছেন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প। মার্কিন চাপে কানাডায় গ্রেপ্তার করা হয় হুয়াওয়ের অর্থনীতি বিষয়ক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মেং ওয়াংঝুকে। এ ছাড়া যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে চীনের বাণিজ্যযুদ্ধ সবচেয়ে বড় আলোচনায় এসেছে। কূটনৈতিক সম্পর্কেও দেখা দিয়েছে টানাপড়েন। বন্ধ করে দেয়া হয় যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসের হিউজটনে মার্কিন কনস্যুলেট বন্ধ করে দেয় গোয়েন্দাবৃত্তির অভিযোগে। এর পাল্টা জবাবও দিয়ে দেয় চীন। তারাও একই রকম অভিযোগে চীনের চেংদুতে মার্কিন কনস্যুলেট বন্ধ করে দেয়। এ ছাড়া দক্ষিণ চীন সাগর, আঞ্চলিক রাজনীতি নিয়ে তো দুই দেশের মধ্যে সম্পর্কে তিক্ততা বহুদিনের। কিন্তু বাণিজ্যযুদ্ধ দুই দেশকে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিতে ফেলেছে। ফলে এখন চীন নতুন করে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সম্পর্ক পুনর্নির্মাণের চেষ্টা করছে।
চীন ইস্যুতে সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প এবং প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত জো বাইডেনের মধ্যে তিক্ত বিতর্ক, অভিযোগ-পাল্টা অভিযোগ তোলা হয়। প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প উল্লেখ করেছেন, চীনের সঙ্গে জো বাইডেনের ছেলে হান্টার বাইডেনের ব্যবসা আছে। অন্যদিকে মার্কিন মিডিয়ায় খবর প্রকাশ হয়ে পড়ে যে, চীনের ব্যাংকে গোপন একাউন্ট আছে প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের। এসব অভিযোগ-পাল্টা অভিযোগ নিয়ে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে যুক্তরাষ্ট্রের রাজনীতি। বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের আইন মন্ত্রণালয়ের জাতীয় নিরাপত্তা বিভাগের প্রধান জন ডিমারস বলেছেন, গ্রীষ্মে যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনীর সঙ্গে চীনের কয়েক শত গবেষকের সম্পর্ক থাকার বিষয়টি শনাক্ত করেছেন এফবিআইয়ের তদন্তকারীরা। তিনি আরো বলেন, এই তদন্ত শুরু হয় মার্কিন কর্তৃপক্ষ ৫ থেকে ৬ জন চীনা গবেষককে গ্রেপ্তারের পর। এসব ব্যক্তির সঙ্গে চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মির (পিএলএ) গোপন সম্পর্ক থাকার কথা তারা লুকিয়েছিল।

আপনার মতামত দিন

বিশ্বজমিন অন্যান্য খবর

নিউজ কন্টেন্টের জন্য অর্থদাবি

অস্ট্রেলিয়া-গুগলের মধ্যে বিরোধ তীব্র হয়েছে

২৩ জানুয়ারি ২০২১

ইউনিভার্সিটি অব কেন্ট-এর গবেষণা

বাংলাদেশে ছেলেসন্তান জন্মদানে অগ্রাধিকার কমে আসছে

২৩ জানুয়ারি ২০২১

টাইমস অব ইন্ডিয়ার প্রতিবেদন

ভারতের ভ্যাকসিন কূটনীতি অব্যাহত, পাকিস্তানকে টিকা দিচ্ছে চীন

২৩ জানুয়ারি ২০২১



বিশ্বজমিন সর্বাধিক পঠিত



উত্তর প্রদেশের মন্ত্রী বললেন

মমতা পুরোপুরি বাংলাদেশি হয়ে গেছেন

DMCA.com Protection Status