উইসকনসিন ও আরিজোনায় সরকারিভাবে বাইডেনের বিজয়

হেলাল উদ্দীন রানা, যুক্তরাষ্ট্র থেকে

অনলাইন (১ মাস আগে) ডিসেম্বর ১, ২০২০, মঙ্গলবার, ৯:৪৫ পূর্বাহ্ন | সর্বশেষ আপডেট: ৬:০০ পূর্বাহ্ন

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ও তার ক্যাম্পেইনের অব্যাহত চাপ এবং নানা বাঁধা বিপত্তি পেরিয়ে অবশেষে ব্যাটলগ্রাউন্ড রাজ্য উইসকনসিন ও আরিজোনায় ডেমোক্র্যাট প্রার্থী প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত জোসেফ আর বাইডেনকে সরকারিভাবে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়েছে। এনিয়ে তিনি ব্যাটলগ্রাউন্ড হিসেবে বিবেচিত জর্জিয়া,মিশিগান,নেভাদা,পেনসিলভ্যানিয়া, আরিজোনা ও উইসকনসিন এই ৬টি রাজ্যের সবকটিতে জয়লাভের মধ্য দিয়ে মোট ৭৯টি ইলেক্টোরাল ভোটের অধিকারী হলেন সরকারীভাবে।এই দুই রাজ্যের সার্টিফিকেশন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে আরো বেকায়দায় ফেলেছে।এতে করে প্রেসিডেন্টর আইনী লড়াইয়ের পথ অনেকটাই সংকুচিত হয়ে এলো।এরপরেও এই দুটি রাজ্যের সার্টিফিকেশনের বিরুদ্ধে প্রেসিডেন্ট আদালতে যাওয়ার চিন্তা করছেন বলে জানা গেছে । যদিও প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এখনও পরাজয় মানতে অস্বীকার করে চলেছেন।গত রোববার ফক্স নিউজকে দেয়া এক টেলিফোন সাক্ষাত্কারে বলেছেন,আগামী ৬ মাসের মধ্যে তাঁর মতের কোন রকমের পরিবর্তন হবে না।
উইসকনসিন নির্বাচন কমিশনের চেয়ারউইমেন মিস এ্যান জ্যাকব গতকাল সোমবার স্হানীয় সময় দুপুরে সার্টিফিকেশন স্বাক্ষর করেন।পরে রাজ্যের গভর্নর টনি ইভার্সের সত্যায়িত করার মধ্য দিয়ে বাইডেনকে সরকারিভাবে উইসকনসিনে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়।উইসকনসিনের মিলওয়াউকি ও ডেইন কাউন্টির ভোট পুনগণনার জন্য প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ক্যাম্পেইনকে ৩ মিলিয়ন ডলার গুনে ফল আসে উল্টো।পুনগণনায় নতুন করে বাইডেনের ৮৭টি ভোট বেড়েছে।
এর আগে আরিজোনা বাইডেনকে সরকারিভাবে বিজয়ী বলে ঘোষণা করে। আরিজোনার ডেমোক্র্যাট সেক্রেটারি অব ষ্টেট কেটি হোবস এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে সার্টিফিকেশনে স্বাক্ষর করেন। এসময় রাজ্যের রিপাবলিকান গভর্নর ডউগ ডোসি, অ্যাটর্নি জেনারেল মার্ক ব্রনোভিস ও রাজ্য সুপ্রিম কোর্টের চীফ জাস্টিস রর্বাড ব্রুটিনেল স্বাক্ষর অনুষ্ঠানের স্বাক্ষী হিসাবে উপস্হিত ছিলেন।রিপাবলিকান গভর্নর ডোসি প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের পক্ষে নির্বাচনে কাজ করলেও রাজ্যের নির্বাচন সম্পূর্ণ অবাধ ও নিরপেক্ষভাবে হয়েছে দাবী করে রাজ্যের নির্বাচন ব্যবস্হার উপর তাঁর আস্হা পুনব্যক্ত করেন।
একই সময়ে রাজ্যের রাজধানীর অনতিদূরে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের প্রধান আইনজীবী রুডি জুলিয়ানীসহ একদল আইনজীবী ফিনিক্স হায়াত রিজেন্সি হোটেলের বলরুমে কিছু সংখ্যক রিপাবলিকান আইন প্রণেতা ও ট্রাম্প সমর্থকদের নিয়ে এক সভায় মিলিত হন।তিনি রাজ্যের এই সার্টিফিকেশনকে প্রহসন আখ্যায়িত করে বলেন,বানোয়াট এবং মিথ্যা বিবৃতি প্রদানের মাধ্যমে এই সার্টিফিকেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে।
জুলিয়ানী আইনীভাবে তা মোকাবিলার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।
পেনসিলভ্যানিয়ার ২০, আরিজোনার ১১, জর্জিয়ার ১৬,মিশিগানের ১৬, উইসকনসিনে ১০ ও নেভাদায় ৬টি ইলেক্টোরাল ভোট রয়েছে।প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত জো বাইডেনের ৩শ ৬টি ইলেক্টোরাল ভোটের মধ্যে সরকারিভাবে ১৩৫টি ইলেক্টোরাল ভোট লাভ করেছেন এপর্যন্ত। মেইন,ভারমন্ট,ডেলাওয়ার,কানেকটিকাট,ম্যসাচুচেটস,জর্জিয়া,ভার্জিনিয়া,মিশিগান,পেনসেলভেনিয়া, উইসকনসিন,মিনেসোটা,নিউ মেক্সিকো,আরিজোনা ও নেভাদার সার্টিফিকেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে।
পক্ষান্তরে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ইতিমধ্যে ১৯১টি ইলেক্টোরাল ভোট পেয়েছেন সরকারি হিসেবে।আগামী ৮ ডিসেম্বর সকল রাজ্যের সার্টিফিকেশন প্রদানের ফেডারেল ডেটলাইন নির্ধারিত আছে। এ সপ্তাহের মধ্যেই সিংহভাগ রাজ্যের সার্টিফিকেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়ে যাবার সম্ভাবনা রয়েছে।।

আপনার মতামত দিন

অনলাইন অন্যান্য খবর

পররাস্ট্রমন্ত্রীকে মেয়র আরিফ

‘১০০ কোটি টাকা দেন, বাদাঘাট বাইপাস আমি করে দেব’

২৩ জানুয়ারি ২০২১



অনলাইন সর্বাধিক পঠিত



কক্সবাজারের ‘পাওয়ার আলী’

গৃহপরিচারক থেকে হাজার কোটি টাকার মালিক

DMCA.com Protection Status