ধর্ষণ নয়, ভারতে মেয়েরা সবথেকে বেশি শিকার পারিবারিক হিংসার

বিশেষ সংবাদদাতা , কলকাতা

ভারত ৭ অক্টোবর ২০২০, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ৫:৩৩

ধর্ষণ কিংবা মেয়েদের ওপর যৌন অত্যাচারের কাহিনী ভারতে হেডলাইনস হয়,  কিন্তু  ডোমেস্টিক ভায়োলেন্স কিংবা পারিবারিক হিংসার ঘটনা ভারতে অনেক বেশি।  ন্যাশনাল রেকর্ডস অফ ক্রাইম ব্যুরো যে তথ্য প্রকাশ করেছে তাতে ২০১৯ সালে ভারতে মেয়েদের বিরুদ্ধে অপরাধের যে চার লক্ষ পাঁচহাজার কেস লিপিবদ্ধ হয়েছে তার মধ্যে এক লক্ষ ছাব্বিশ হাজারই পারিবারিক হিংসা বা ডোমেস্টিক ভায়োলেন্সের।  অর্থাৎ মোট  ৩০ শতাংশের বেশি ডোমেস্টিক ভায়োলেন্স কেস।  যেখানে যৌন নিগ্রহের মামলা ২০ শতাংশ,  কিডন্যাপিং ১৮ শতাংশ এবং ধর্ষণ ৮ শতাংশ।  পারিবারিক হিংসার ক্ষেত্রে রাজস্থান সবথেকে এগিয়ে।  সেখানে ডোমেস্টিক ভায়োলেন্সের সংখ্যা আঠারো হাজার চারশো বত্রিশ।  দ্বিতীয় স্থানে আছে উত্তরপ্রদেশ।  সেখানে ডোমেস্টিক ভায়োলেন্স আঠারো হাজার তিনশো চারটি। সমাজতত্ত্ববিদদের ধারণা,  ডোমেস্টিক ভায়োলেন্সের সংখ্যা আরও বেশি।  কিন্তু চার দেয়ালের মধ্যে বেশিরভাগ অপরাধ হয় বলে অনেকটাই ধামা চাপা পড়ে যায়।  ২০১৮ সালে মেয়েদের বিরুদ্ধে ক্রাইম  এর হার ভারতে ছিল আটান্ন দশমিক আট শতাংশ।  ২০১৯-এ  তা বেড়ে হয় বাষট্টি দশমিক চার শতাংশ।  ২০২০-তে লকডাউনে ডোমেস্টিক ভায়োলেন্স বেড়েছে ভারতে।  এপ্রিল থেকে জুনের মধ্যে দুহাজার আটশো আটাত্তরটি কেস লিপিবদ্ধ হয়েছে বলে জানাচ্ছে এন সি আর বি।।

আপনার মতামত দিন

ভারত অন্যান্য খবর

ফের করোনার কালো ছায়া

মধ্য-উত্তরভারতে আংশিক লকডাউন, নাইট কারফিউ

২১ নভেম্বর ২০২০



ভারত সর্বাধিক পঠিত



এলাহাবাদ হাইকোর্টের যুগান্তকারী রায়

শুধুমাত্র বিয়ের প্রয়োজনে ধর্মান্তরকরণে আদালতের না

DMCA.com Protection Status