সংকটেও সক্রিয় সিন্ডিকেট

এতো টিকিট মিলবে কীভাবে?

আল-আমিন

প্রথম পাতা ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ৫:৩৪

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের ধাক্কায় দেশে এসে আটকেপড়া প্রবাসীদের অনেকেই এখন জীবিকার তাগিদে ফিরে যেতে চান। তাদের রয়েছে চাকরি হারাবার আশঙ্কা। কিন্তু এখনো শুরু হয়নি ফ্লাইট চলাচল। দেশের সবচেয়ে বড় শ্রমবাজার সৌদি আরব থেকে আসা প্রবাসীদের আকামা ও ভিসা সংকট আপাতত দূর হলেও টিকিটের সংকট কাটার কোনো লক্ষণ নেই। সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্স সীমিত পরিসরে টিকিট বিক্রি করছে। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ১লা অক্টোবর থেকে ফ্লাইট চালানোর অনুমতি পেয়েছে। এর আগে কয়েকটি বিশেষ ফ্লাইট চালনার অনুমতি মিলেছে। এ ছাড়া অন্য কোনো এয়ারলাইন্সে সৌদি যাওয়ার পথ বন্ধ।
এ অবস্থায় দেশে আটকেপড়া হাজার হাজার প্রবাসী একসঙ্গে টিকিট পাওয়ার চেষ্টা করছেন। ভিড় করছেন সৌদি এয়ার ও বিমানের অফিসে। কিন্তু কাঙ্ক্ষিত টিকিট পাচ্ছে না অনেকে। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, আকামা ও ভিসার জন্য সৌদি আরব যে ২৪ দিন মেয়াদ বাড়িয়েছে এই সময়ে অনেক প্রবাসী সৌদি ফিরতে চাইবেন। তাদের জন্য টিকিটের ব্যবস্থা করা এখন বড় চ্যালেঞ্জ। যদিও গত দু’দিনে বেশকিছু সুখবর এসেছে প্রবাসীদের জন্য। সৌদি কর্তৃপক্ষ বিমানের ফ্লাইট চালুর অনুমতি দিয়েছে। বিমানের বিশেষ ফ্লাইট সংখ্যা বেড়েছে।

ওদিকে প্রত্যাশার চেয়ে বিমানের ফ্লাইট কম হওয়ায় টিকিট নিয়ে সক্রিয় হয়ে উঠেছে সিন্ডিকেট। সংশ্লিষ্টরা জানান, করোনাভাইরাসের কারণে প্রায় ৩২টি দেশ থেকে গত সাড়ে ৫ মাসে ১ লাখ ২৭ হাজার ২০৯ জন কর্মী দেশে ফিরেছেন। এছাড়াও ভাইরাস সংক্রমণের আগেও যে প্রবাসীরা দেশে এসেছিলেন তারাও বিদেশে ফিরে যেতে চান। আবার নতুনভাবে ১ লাখ লোকের ওয়ার্ক পারমিট অনুমোদন দিয়েছে বিভিন্ন দেশ। এরাও সবাই বিদেশে নিজ নিজ কাজে যোগ দিতে চান। বেবিচক এবং বাংলাদেশ বিমান কর্তৃপক্ষ যদি ফ্লাইটের সংখ্যা না বাড়ায় এবং বিমানের টিকিট সবার জন্য সমানভাবে উন্মুক্ত না থাকে তাহলে সামনের পরিস্থিতি আরো জটিল আকার ধারণ করবে। কয়েকদিন ধরে সৌদিগামী প্রবাসীরা বিমানের টিকিট না পেয়ে রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলের সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের টিকিট কাউন্টারের সামনে বিক্ষোভ করেছেন। তাদের বিক্ষোভের জেরে মন্ত্রণালয়গুলোর তৎপরতা বাড়ে।

ভুক্তভোগী প্রবাসীরা জানিয়েছেন, প্রয়োজনের চেয়ে টিকিট কম থাকায় সিন্ডিকেট করে টিকিটের দাম বাড়ানো হচ্ছে। বাড়তি দাম নেয়া হচ্ছে। ট্রাভেল এজেন্সি টিকিট কব্জায় নিয়ে বাড়তি দামে প্রবাসীদের কাছে বিক্রি করছে।

এমন অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে বেসরকারি বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক) চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মো. মফিদুর রহমান জানান, টিকিট সিন্ডিকেটের বিষয়টি আমরা অবগত আছি। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে জানানো হয়েছে। তারা মাঠে কাজ করছে। তিনি আরো জানান, প্রবাসীরা যাতে বিদেশে নির্বিঘ্নে ফিরে যেতে পারে এজন্য সরকার সব চেষ্টা চালাচ্ছে। কূটনৈতিক প্রচেষ্টা ছাড়াও সরকারের সব মাধ্যমে যোগাযোগ করা হচ্ছে বন্ধু রাষ্ট্রগুলোর সঙ্গে। ইতিমধ্যে সৌদি আরব আকামার সময় বৃদ্ধির ঘোষণা দিয়েছে। বিভিন্ন দেশ থেকে বাংলাদেশে আসা প্রবাসীদের ফেরা নিয়ে কোনো সংকট হবে না।

বাংলাদেশ বিমান এবং বেবিচকের একাধিক কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, করোনাভাইরাসের কারণে আকাশপথ থেকে প্রায় সাড়ে ৩ মাস সারা দুনিয়ার সঙ্গে বিচ্ছিন্ন ছিল বাংলাদেশ। গত ৩রা জুলাই থেকে আবার সীমিত পরিসরে ফ্লাইট চালু হয়েছে। কিন্তু এরমধ্যে বাংলাদেশ বিমানের টিকিট নিয়ে একটি চক্র কৃত্রিম সংকটের পাঁয়তারা শুরু করেছে। সূত্র জানায়, টিকিট সিন্ডিকেটের সঙ্গে বেবিচক এবং বাংলাদেশ বিমানের একাধিক কর্মকর্তা জড়িত বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসব কমকর্তা বিভিন্ন ট্রাভেল এজেন্সির সঙ্গে দহরম মহরম সম্পর্ক রয়েছে। সিন্ডিকেটের সদস্যরা ওইসব কর্মকর্তাদের মোটা অঙ্কের মাসোয়ারা দিয়ে থাকেন।

বিমানের আরো দুই বিশেষ ফ্লাইট: ছুটিতে দেশে আসা প্রবাসীদের সৌদি আরবে ফেরাতে আরো ফ্লাইটের অনুমতি পেয়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। ১৮-২০শে মার্চের জেদ্দা এবং ১৮ ও ১৯শে মার্চে রিয়াদগামী বিমানের রিটার্ন টিকিটধারী যাত্রীদের জন্য বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স আগামী ২৯শে সেপ্টেম্বর ঢাকা-রিয়াদ ও ৩০শে সেপ্টেম্বর ঢাকা-জেদ্দা ফ্লাইট পরিচালনা করবে। বৃহস্পতিবার এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায় বিমান। বিমান কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ১৮-২০শে মার্চের জেদ্দা এবং ১৮ ও ১৯শে মার্চের রিয়াদগামী ফিরতি টিকিটধারী যাত্রীদের এই ফ্লাইটে বুকিং দেয়ার জন্য বিমান সেলস অফিসে টিকিট, পাসপোর্ট, সৌদি আরব নির্ধারিত অ্যাপস/লিংক থেকে অনুমোদন ইত্যাদিসহ ২৫-২৬শে সেপ্টেম্বর যোগাযোগ করতে হবে। বুকিং ‘আগে আসলে আগে পাবেন’ ভিত্তিতে হবে। নতুন ফ্লাইট অনুমোদন সাপেক্ষে পর্যায়ক্রমে অন্য যাত্রীদেরও বুকিংয়ের জন্য অবহিত করা হবে। তাই অন্য যাত্রীদের এখনই অযথা কাউন্টারে ভিড় না করতে অনুরোধ করেছে বিমান।
করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট বাধ্যতামূলক এবং নমুনা সংগ্রহের ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে সৌদি আরব পৌঁছতে হবে বিধায় সব যাত্রীকে ঢাকা থেকে কোভিড-১৯ পরীক্ষা করতে হবে এবং ঢাকা থেকেই যাত্রা করতে হবে। ওদিকে টিকিট বিক্রি করতে শুরু করেছে সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্স। গতকাল দুপুর ২টা থেকে হোটেল সোনারগাঁওয়ের কার্যালয়ে টিকিট দেয়া শুরু করে প্রতিষ্ঠানটি।

সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের কর্মকর্তারা জানান, কোভিড-১৯ প্রাদুর্ভাব শুরুর আগে যারা রিটার্ন টিকিট কেটে দেশে ফিরেছেন, এখন শুধু তাদের টিকিট দেয়া হবে। নতুন করে কোনো টিকিট ইস্যু করা হবে না।

আপনার মতামত দিন

প্রথম পাতা অন্যান্য খবর

ক্ষমতার দাপট

২৭ অক্টোবর ২০২০

আক্রান্ত ছাড়ালো ৪ লাখ

২৭ অক্টোবর ২০২০

করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলছে। মৃত্যুর মিছিলও দীর্ঘ হচ্ছে। সংক্রমণ শুরুর ২৩৩ দিনের মাথায় করোনা ...

মানুষকে মাস্ক পরাবে কে?

২৬ অক্টোবর ২০২০

নো মাস্ক নো সার্ভিস

২৬ অক্টোবর ২০২০

মাস্ক না পরলে সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠান থেকে কোনো সেবা মিলবে না। এমনই নির্দেশনা দিয়েছে ...

পহেলা নভেম্বর থেকে সবার জন্য খুলছে ওমরাহ’র দরজা

২৬ অক্টোবর ২০২০

আগামী ১লা নভেম্বর থেকে ওমরাহ পালন করতে পারবেন বিশ্বের সকল দেশের মুসল্লিরা। করোনা পরিস্থিতি কিছুটা ...

অনশন ভাঙালেন মেয়র আরিফ

রায়হানের মায়ের কান্না

২৬ অক্টোবর ২০২০



প্রথম পাতা সর্বাধিক পঠিত