সিলেটে অবৈধ হাট নিয়ে কঠোর পুলিশ

ওয়েছ খছরু, সিলেট থেকে

শেষের পাতা ৩১ জুলাই ২০২০, শুক্রবার

শেষ মুহূর্তে সিলেটে কঠোর অবস্থানে পুলিশ। অবৈধ পশুর হাট যাতে না বসতে পারে সে কারণে পুলিশ একাধিক অভিযান চালিয়েছে। এরপরও একদিনের জন্য হলেও সিলেটের অনেক স্থানে পশুর হাট বসানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। পুলিশ জানিয়েছে, স্বাস্থ্যবিধি রক্ষার জন্যই অবৈধ পশুর হাট বসতে দেয়া হবে না। এদিকে- আদালতের নির্দেশের প্রেক্ষিতে সিলেটের লাক্কাতোড়া স্কুল মাঠের পশুর হাট বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এবারের ঈদে সিলেটের একমাত্র বৈধ পশুর হাট হচ্ছে কাজির বাজার পশুর হাট। এই হাটকে কেন্দ্র করেই চলছে কোরবানির পশুর বিকিকিনি। নগরের দক্ষিণ অংশে সিটি করপোরেশন থেকে অস্থায়ী ভিত্তিতে ট্রাক টার্মিনাল এলাকায় আরো একটি পশুর হাট বসানো হয়েছে।
ওই পশুর হাটে গতকাল বিকেল পর্যন্ত বিকিকিন শুরু হয়নি। তবে কাজির বাজার পশুর হাটে গতকাল থেকে পশু বিকিকিনি শুরু হয়েছে। ঈদকে সামনে রেখে কোরবানির পশুর জন্য বিকাল থেকে ক্রেতারা বাজারে আসতে থাকেন। পশুর দামও কিছুটা ঊর্ধ্বগতি। স্বাস্থ্য বিধি কিংবা সামাজিক দূরত্বের কোনো বালাই নেই কাজির বাজারে। হাট কর্তৃপক্ষ সব ধরনের প্রস্তুতি রাখলেও ক্রেতার সংখ্যা বেড়ে যাওয়ার কারনে কোনো নিয়মই মানা হচ্ছে না। প্রশাসনের পক্ষ থেকে চেষ্টা চালিয়েও সেটি রক্ষা করা সম্ভব হয়নি। দেশের দূর-দূরান্ত থেকে আসছে পশুও। কাজিরবাজার পশুর হাটের ম্যানেজার শাহাদাত হোসেন লোলন জানিয়েছেন- বৃহস্পতিবার দুপুরের পর থেকে বাজারে পশু বিক্রি শুরু হয়েছে। ক্রেতারা ধীরে ধীরে বাজারমুখী হচ্ছেন। এই অবস্থায় তারাও স্বাস্থ্যবিধির উপর জোর দিয়েছেন। মেডিকেল টিমের সদস্যরা রয়েছে বাজারে। এদিকে- শেষ মূহুর্তে এসে কঠোর হয়েছে পুলিশ। নগর এলাকায় যাতে কোনো অবৈধ পশুর হাট না বসে সেদিকে পুলিশের কড়া নজরদারি রয়েছে। গত বুধবার রাতে পুলিশ নগরীর চালিবন্দর এলাকায় অভিযান চালায়। সেখানে স্থানীয়দের পক্ষ থেকে একটি পশুর হাট বসানোর প্রক্রিয়া চলছিল। বাঁশ দিয়ে পশু রাখার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। ছিল সব আয়োজন। খবর পেয়ে সিলেট মহানগর পুলিশের একটি দল সেখানে অভিযান চালিয়ে ওই হাট উচ্ছেদ করে দিয়েছে। স্থানীয়রা জানিয়েছেন- ওই এলাকায় ব্যক্তিগত জমিতে কেউ কেউ খামারের নামে পশু বিক্রির হাট গড়ে তোলেছেন। সেটি খামার হিসেবে ঘোষণা দিয়ে পশু বিকিকিনি করা হচ্ছে। সিলেটের মেন্দিবাগ এলাকায়ও একটি পশুর হাটের প্রস্তুতি চলছে। শাহপরাণ থানা পুলিশ জানিয়েছে, তাদের নিয়ন্ত্রিত এলাকায় কাউকে অস্থায়ী ভিত্তিতে পশুর হাট বসাতে দেয়া হচ্ছে না। যারা নগর কিংবা জেলা প্রশাসন থেকে অনুমতিপত্র নিয়ে আসবেন তাদের হাট বসাতে দেয়া হবে। হাট বসানোর আগে স্বাস্থ্যবিধি মানার ব্যাপারেও সবাইকে সতর্ক করে দেয়া হবে। সিলেটের লাক্কাতোড়া পশুর হাট ইজারা দিয়েছিল সদর উপজেলা প্রশাসন। এই হাটের বিরুদ্ধে স্থানীয় আব্দুল কাদির নামের এক ব্যক্তি হাইকোর্টে রিট করলে উচ্চ আদালত সেটি স্থগিত রাখার নির্দেশ দেন। এই নির্দেশের প্রেক্ষিতে কঠোর হয়েছে প্রশাসন। বৃহস্পতিবার সদর উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে অভিযান চালিয়ে ওই হাট উচ্ছেদ করা হয়। হঠাৎ করে হাট উচ্ছেদের বার্তা আসায় পশু ব্যবসায়ীরা বেকায়দায় পড়েছেন। তারা নতুন করে কাজিরবাজার পশুর হাটে পশু নিয়ে আসা শুরু করেছেন। সিলেটের দক্ষিণ সুরমার কদমতলী এলাকায় হাট বসানোর চেষ্টা চলছে বলে জানিয়েছেন এলাকার মানুষ। তারা জানান, স্থানীয় প্রভাবশালীরা এই হাট বসাতে চাইছে।
ঈদ জামাত নিয়ে পুলিশের বিজ্ঞপ্তি: সিলেট মহানগরীতে বসবাসকারী মুসল্লিদের পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ স্বাস্থ্যবিধি মেনে পড়ার আহ্‌বান জানিয়েছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার সিলেট মহানগর পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার জ্যোর্তিময় সরকার (গণমাধ্যম) বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, সবার সুস্থতার জন্য মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে এসব নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়, করোনাভাইরাসের কারণে ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের জীবনের ঝুঁকি বিবেচনা করে এ বছর ঈদগাহ বা খোলা জায়গার পরিবর্তে নিকটস্থ মসজিদে ঈদের নামাজ আদায় করার জন্য অনুরোধ করা হয়।

আপনার মতামত দিন

শেষের পাতা অন্যান্য খবর

করোনা আক্রান্ত মৌলভীবাজার জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে ঢাকায় স্থানান্তর

৭ আগস্ট ২০২০

করোনা আক্রান্ত হয়েছেন মৌলভীবাজার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, বর্ষীয়ান ...

করোনায় আরো ৩৩ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২৬৫৪

৬ আগস্ট ২০২০

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আরো ৩৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। নতুন করে আরো ২ হাজার ...



শেষের পাতা সর্বাধিক পঠিত