কলকাতা কথকতা

কোয়ারেন্টিনে আটকে থাকাদের আবদারে নাজেহাল সরকার, চাই বিয়ার থেকে মুরগি

 জয়ন্ত চক্রবর্তী, কলকাতা

কলকাতা কথকতা ১০ মে ২০২০, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ৭:৩২

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের ভয়ে আটকে থাকা কোয়ারেন্টিনবাসীদের নিয়ে তুমুল সমস্যায় পড়েছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার৷ সরকারের ব্যবস্থাতেই এদের কোয়ারেন্টিন করা হয়েছে৷ তাই এদের অনেকেই মনে করছেন এরা সরকারি অতিথি৷ তাই চাহিদার সীমা পরিসীমা নেই৷ কেউ চাইছেন বিয়ার, কারও আবার দাবি গরম গরম মুরগির মাংস ভাতের৷ রীতিমতো হিমশিম খাচ্ছে পুলিশ ও স্বাস্থকর্মীরা৷ অর্ডার পালন করতে করতে তারা দিশেহারা৷ হুগলি জেলার মেমারির কথাই ধরা যাক৷ এখানকার একটি গ্রামে করোনায় এক যুবক আক্রান্ত হওয়ার পর গ্রামের বাকি পঁচাত্তরটি ঘরকেই কোয়ারেন্টিনের আওতায় আনা হয়৷ কোয়ারেন্টিনে ঢুকেই এক তরুণ অর্ডার করেন খবরের কাগজের৷ কাগজ আসার পরই তরুণটি বলেন, এই কাগজ তাঁর পছন্দের নয়৷ তিনি এই কাগজ পড়েন না, পছন্দসই কাগজ চাই৷ গলদঘর্ম হয়ে পুলিশ খুঁজে আনে সেই কাগজ৷ এখানেই একজন বলেন, দু বোতল বিয়ার চাই৷ নইলে রাতে তিনি ঘুমাতে পারবেন না৷ এই দাবি অবশ্য মানা সম্ভব হয়নি৷ সল্ট লেকের কোয়ারেন্টিন সেন্টারে এক মহিলার দাবি, এখনই তাঁকে গরম মুরগির ঝোল দিতে হবে৷ আর এক মহিলা আবার কোয়ারেন্টিন সেন্টারে আসা আনাজপাতি, দুধ, মাংস পরীক্ষা করা শুরু করেছেন, সেগুলি কত খাঁটি৷ নিরুপায় কোয়ারেন্টিন পরিচালকরা৷ সরকার নির্দেশ দিয়েছে, কোয়ারেন্টিনে বন্দিদের মন মেজাজ যেন শরিফ থাকে৷ তাই বাধ্য হয়ে ঢেঁকি গিলছেন ওরা৷ জামাই আদরে রয়েছেন কোয়ারেন্টিনবাসীরা৷

আপনার মতামত দিন

কলকাতা কথকতা অন্যান্য খবর



কলকাতা কথকতা সর্বাধিক পঠিত