‘জীবনের সবচেয়ে কঠিন সময় পার করছি’

বিনোদন

ফয়সাল রাব্বিকীন | ৭ ডিসেম্বর ২০১৭, বৃহস্পতিবার
জনপ্রিয় পপ তারকা মিলা ইসলাম। ক্যারিয়ারের শুরুতেই তিনি অবাক করা সাফল্য অর্জন করেন। তার গাওয়া বেশ কিছু গান অল্প সময়ের মধ্যে ব্যাপক শ্রোতাপ্রিয়তা লাভ করে। বিশেষ করে তার প্রথম তিনটি একক অ্যালবামই ছিল সুপারহিট। শুধু গেয়েই নয়, মিলা চমক তৈরি করেন মিউজিক ভিডিওতে অনবদ্য পারফর্ম করেও। এছাড়া স্টেজে পারফরমার হিসেবেও নিজেকে শীর্ষে নিয়ে যান মিলা।
তবে ক্যারিয়ারের সর্বোচ্চ স্থানে থাকা অবস্থায় হঠাৎ করেই এ পপ তারকা নতুন গান প্রকাশ বন্ধ করে দেন। সীমাবদ্ধ থাকেন কেবল স্টেজে। যার ফলে প্রায় কয়েক বছর মিলার কাছ থেকে নতুন গান পাননি শ্রোতারা। তবে মধ্যে ‘নাচো’ শীর্ষক গান প্রকাশ করে আবার চমক তৈরি করেন তিনি। এ গানটিও সফলতা পায়। এদিকে চলতি বছররের মে মাসে মিলা বিয়ে করেন পাইলট পারভেজ সানজারীকে। ১০ বছর প্রেমের সম্পর্কের পর তারা বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। কিন্তু বিয়ের ঠিক ১৩ দিনের মাথায়ই মিলা সানজারীর একাধিক সম্পর্কের কথা জানতে পারেন বলে জানিয়েছেন। এই নিয়ে দুজনের মধ্যে বেশ কয়েক মাস ধরেই দূরত্ব বাড়ছিল। মিলা অনেক বোঝানোর পরও নাকি সানজারী সেসব সম্পর্ক বজায় রাখেন। একটা সময় মিলাকে মানসিক ও শারীরিক নির্যাতনও শুরু করেন। যার ফলে নারী নির্যাতন মামলাও করেন মিলা। মামলাটি প্রক্রিয়াধীন থাকলেও মিলা গানের কাজ শুরু করেছেন। বিশেষ করে স্টেজ পারফরমেন্স শুরু করেছেন আবার। সব মিলিয়ে কেমন আছেন এখন? মিলা বলেন, আসলে কেমন থাকতে পারি এটা হয়তো আপনারাই অনুমান করতে পারেন। কারণ, একজন নারীর কাছে বিবাহ বন্ধনটা সব থেকে বড় বিষয়। কিন্তু আমি সেদিক থেকে প্রতারণার শিকার হয়েছি। আমি সানজারীর বিরুদ্ধে মামলাও করেছি। সে কারাগারে ছিল। কিন্তু এখন জামিনে আছে। আমি বুঝি না সে কিভাবে জামিন পায়। তাছাড়া ন্যায়বিচারইবা আমি কতটুকু পাবো! এখন মামলা কী পর্যায়ে আছে? আপনি কী ভাবছেন? মিলা উত্তরে বলেন, আমি মনে করি বিয়ে ভাঙাটা কোনো বাহাদুরীর ব্যাপার না। বিয়েকে সম্মান দিয়ে সমাজে পরিবার গঠনের মাধ্যমে শান্তি প্রতিষ্ঠা করাতেই বাহাদুরী আছে। সংসার সবাই করতে চায়। যেকোনো মানুষ চায় তার সঙ্গী ভালো মানুষ হবে। কিন্তু আমি সেদিক থেকে দুর্ভাগা। আসলে মামলায় অনেক অপ্রাসঙ্গিক কথাও আসছে। তাহলে এখন কী করবেন বলে ঠিক করেছেন? মিলা বলেন, মাঝে মধ্যে অসহায় লাগে। কারণ, এমন জীবন আমি আশা করিনি। আমার সঙ্গে এমন প্রতারণা হবে সেটা খেয়ালে আসেনি। কিন্তু হয়েছে। মাঝে মধ্যে এ সবই স্বপ্ন মনে হয়। কারণ, একটা মেয়ে কখনও চায় না তার সংসার ভাঙুক। এখন আর কিছু করার নেই আসলে। কাজ তো শুরু করেছেন বোধহয়? মিলা বলেন, আমি আজকের মিলা হয়েছি শ্রোতা-দর্শকদের কারণে। তাদের ভালোবাসা আমি অনবরত পেয়েছি। তাই শো করছি এখন। আমি শ্রোতাদের ভালোবাসার উত্তরটা গানে গানেই দিতে চাই। চেষ্টা করছি মানসিকভাবে ঠিক হতে। যদিও এটা খুব কঠিন মনে হচ্ছে আমার কাছে। বলতে পারেন জীবনের সবচেয়ে কঠিন সময় পার করছি এখন। তারপরও চাই শ্রোতারা আমার গান শুনুক, আনন্দ পাক। আমি কিছু সময়ের জন্য হলেও সবকিছু ভুলে থাকি। আপনার কাছ থেকে অ্যালবাম কিংবা নতুন গান কি পাওয়া যাবে সহসা? মিলা উত্তরে বলেন, দেখুন আমার গানের যে গ্যাপ তার একটা কারণও ছিল সানজারীর সঙ্গে আমার সম্পর্ক। এরপর বিয়ে ও এখন সেই নিয়ে মামলা। গান আমি করে রেখেছি অনেক। সেগুলো ধীরে ধীরে প্রকাশ করবো ভিডিও আকারে। এই নিয়ে আলাদা পরিকল্পনা আছে। দেখা যাক কী হয়।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন