জবি ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সির অভিযোগে কারাগারে ২১

শিক্ষাঙ্গন

জাবি প্রতিনিধি | ২৩ নভেম্বর ২০১৭, বৃহস্পতিবার
জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ১ম বর্ষে ভর্তি হতে এসে ৭ শিক্ষার্থীসহ মোট ২১ ভর্তিচ্ছুকে জালিয়াতির অভিযোগে আটক করেছে বিশ^বিদ্যালয় প্রশাসন। এর মধ্যে ভাইভা দিতে আসলে আটক করা হয় ১৪ জনকে। সবশেষ বৃহস্পতিবার ভর্তি হতে আসলে ৪ শিক্ষার্থীকে আটক করে কর্তৃপক্ষ।
আটক হওয়া ৪ শিক্ষার্থী হলো, সাতক্ষীরা জেলার আশাশুনির রফিকুল ইসলামের ছেলে মো, খাইরুল ইসলাম, রাজশাহীর জেলার বাঘারের জান মোহাম্মদের ছেলে আলি আহমেদ, নেত্রকোনার জেলার মো. জানু মিয়ার ছেলে রফিকুল হাসান রাজন ও পাহাড়ী সাহার ছেলে হিমাদ্রী সাহা। তারা সকলেই কলা ও মানবিকী অনুষদে (সি ইউনিট) ভর্তি হতে আসেছিল। বিভাগীয় শিক্ষক তাদের হাতের লেখা যাচাই করলে প্রক্সির বিষয়টি ধরা পড়ে।
এর আগে তোফায়েল আহমেদ, নোমানুল হক রিমন ও সীমান্ত দেবনাথ ভর্তি হতে আসলে জালিয়তির অভিযোগে অভিযুক্ত হয়।
এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর অধ্যাপক তপন কুমার সাহা বলেন, ভর্তি হতে আসলে তাদেরকে জালিয়াতির অভিযোগে আটক করা হয়েছে।
তবে বিশ^বিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যায়ন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আদনান ফাহাদ বলেন, ‘যারা প্রক্সির অভিযোগে আটক হয়েছে তাদের মাধ্যমে প্রক্সিদাতাদের চিহ্নিত করা প্রয়োজন। এছাড়া তাদের জিজ্ঞাবাদের মাধ্যমে ভর্তি জালিয়াতির সাথে জড়িত মুল হোতাদের গ্রেপ্তার করা সম্ভব বলেও মনে করেন তিনি।
[এমকে]

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ভারতে তিন তালাক বিরোধী খসড়া আইনে সরকারের অনুমোদন

বিরোধীরা আসলেই কাগুজে বাঘ: মোজাম্মেল হক

গাংনী বিএনপি কার্যালয়ে ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ

মহান বিজয় দিবস আজ

চট্টলার সিংহপুরুষের বিদায়

রাজধানীতে বৃদ্ধা ও শিশু খুন

বাংলাদেশ জন্ম নিয়েছিল একটা আদর্শ নিয়ে

সবক্ষেত্রে চাই গুণগত সেবা

বিশ্বকাপে নিষিদ্ধ হতে পারে স্পেন!

কাদের-মওদুদকে ঘিরেই স্বপ্ন দু’দলের

শেষমুহূর্তে তৎপর বিএনপি

ট্রাম্প প্রশাসনের ধর্মীয় পক্ষপাতিত্ব

ইউপিডিএফ ভাঙার নেপথ্যে

মুক্তিযোদ্ধাকে হারিয়ে দুইয়ে শেখ জামাল

সারা দেশে বিএনপির প্রতিবাদ কর্মসূচি ১৮ ডিসেম্বর

যেভাবে অপহরণকারীদের হাত থেকে মুক্ত হলেন সিলেটের ব্যবসায়ী মুন্না