জিম্বাবুয়েতে সামরিক অভ্যুত্থান, নিরাপদে আছেন প্রেসিডেন্ট মুগাবে

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১৫ নভেম্বর ২০১৭, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ১০:২১
সামরিক অভ্যুত্থানে ক্ষমতাচ্যুত হয়েছেন জিম্বাবুয়ের প্রেসিডেন্ট রবার্ট মুগাবে। তিনি ও তার পরিবার নিরাপদে আছেন বলে জানানো হয়েছে সেনাবাহিনীর তরফ থেকে। দীর্ঘ ৩৭ বছর ক্ষমতায় থাকার পর তার এ পরিণতি নিয়ে বিশ্বজুড়ে সংবাদ শিরোনাম হচ্ছে। টেলিভিশনগুলো গুরুত্ব দিয়ে প্রচার করছে এ খবর। তাতে বলা হচ্ছে, জিম্বাবুয়ের ক্ষমতা দখল করেছে সেনাবাহিনী। তারা বলেছে ‘অপরাধীদের’ থামিয়ে দিতেই ক্ষমতা নিতে হয়েছে তাদের।
তবে প্রেসিডেন্ট বরার্ট মুগাবে নিরাপদে আছেন। এ খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স। এতে বলা হয়েছে, আগেই সরকারকে হুঁশিয়ার করেছিলেন সেনাপ্রধান কনস্তান্তিনো চিয়েঙ্গা। মঙ্গলবার এমন হুঁশিয়ারি দেয়ার পর এদিন মধ্যরাতের দিকে জাতীয় টেলিভিশনে হঠাৎ ক্ষমতা দখলের ঘোষণা দেয় সেনাবাহিনী। একজন মুখপাত্রকে তাতে বলতে শোনা যায়, তাদের মিশন শেষ হওয়ার পরপরই দ্রুত স্বাভাবিক অবস্থা ফিরে আসবে। ওদিকে বুধবার সরকারি এক সূত্র বলেছেন, সেনাবাহিনী আটক করেছে মুগাবের অর্থমন্ত্রী ইগনাতিয়াস চোম্বোকে। উল্লেখ্য, ক্ষমতাসীন জানু-পিএফ পার্টির তথাকথিত অংশ ‘জি-৪০’-এর একজন নেতা ছিলেন চোম্বো। জি-৪০ এর নেতৃত্ব দিচ্ছেন রবার্ট মুগাবের স্ত্রী গ্রেসি। তার দলের এই অংশের চ্যালেঞ্জের কারণে রবার্ট মুগাবের এই পরিণতি। ওদিকে জিম্বাবুয়ের রাজধানী হারারের রাস্তায় মোতায়েন করা হয়েছে সেনাবাহিনী। রাষ্ট্রীয় সম্প্রচার যন্ত্র তাদের দখলে নিয়েছে। তবে এ জন্য সেনাপ্রধান রাষ্ট্রদ্রোহ করেছেন বলে অভিযোগ করেছেন জানু-পিএফ পার্টি। এখানে উল্লেখ্য, সেনাপ্রধান জেনারেল কনস্তান্তিনো চিয়েঙ্গা ক্ষমতায় হস্তক্ষেপের ঘোষণা দেয়ার ২৪ ঘন্টার মধ্যে পাল্টে গেল জিম্বাবুয়ের চিত্র। রাস্তায় রাস্তায় এখন সেনা। তারা চলন্ত সব গাড়িকে ঠিক পথে চলতে বাধ্য করছে। তাদেরকে সতর্ক করে দিচ্ছে তারা। বলছে, কোনো মজা নিতে এসো না। সোজা চলে যাও। জিম্বাবুয়ের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন ও রবার্ট মুগাবের মুখপাত্র হিসেবে পরিচিত জেবিসি। সেনাদেরকে দেখা গেছে এর প্রধান কার্যালয়ে প্রবেশ করতে। ভিতরে প্রবেশ করেই তারা সেখানে কর্মরতদের দ্রুত অফিস থেকে বেরিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দেয়। জেবিসি’র বেশ কিছু কর্মচারীকে টানাহেঁচড়া করতে দেখা গেছে। এর কিছুক্ষণ পরে দক্ষিণ আফ্রিকার এই দেশটির রাজধানী হারারের কেন্দ্রীয় অঞ্চলে তিন দফা বিকট বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যায়। উল্লেখ্য, প্রায় চার দশক বা ৩৭ বছর জিম্বাবুয়ে শাসন করছেন রবার্ট মুগাবে। তাই তিনি আফ্রিকার রাজনীতিতে নিজস্ব ধরনের ‘গ্রান্ড ওল্ড ম্যানে’ পরিণত হয়েছেন। কিন্তু দৃশ্যত শেষ পর্যন্ত তিনি আর পারলেন না। সেনাবাহিনী তাকে পরাস্ত করেছে। এ অবস্থায় হারারেতে অবস্থানরত যুক্তরাষ্ট্র ও বৃটিশ নাগরিকদের বাসা থেকে বের না হওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র এক বিবৃতিতে বলেছে, পরবর্তী নোটিশ না দেয়া পর্যন্ত জিম্বাবুয়েতে অবস্থানরত মার্কিন নাগরিকদের ঘরের বাইরে বের না হতে অনুরোধ করা হয়েছে। ওদিকে বৃটিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত হারারেতে অবস্থানরত সব বৃটিশ নাগরিকদের বাসার ভিতরে থাকতে পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

kazi

২০১৭-১১-১৪ ২৩:২৬:৫০

Family originated politics lead army to revolt. Every where in the world where there is no full democracy or party is family oriented this happened.

আপনার মতামত দিন

২০১৮ সালে প্রবল ভুমিকম্পের আশঙ্কা!

কেয়া চৌধুরী এমপি’র উপর হামলার ঘটনায় মামলা

বাংলাদেশের রাজনীতি, বিকাশমান মধ্যবিত্ত এবং কয়েকটি প্রশ্ন

ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতাতে আহত ডিবি পুলিশ

প্রতিবেশীদের মধ্যে সুসম্পর্ক থাকা জরুরীঃ বাংলাদেশকে মিয়ানমার

তারেক রহমানের জন্মদিন পালন করবে বিএনপি

রোহিঙ্গা শিবিরে যেতে চান প্রণব মূখার্জি

তালাকপ্রাপ্ত নারীকে অপহরণের পর গণধর্ষণ

আরো ১০ দিন বন্ধ থাকবে লেকহেড স্কুল

জাতিসংঘকে দিয়ে রোহিঙ্গা সঙ্কটের সমাধান হবে নাঃ চীন

ম্যনইউয়ের টানা ৩৮

রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে বাংলাদেশ-মিয়ানমার সংলাপে সহায়তা করতে আগ্রহী চীন

জল্পনার অবসান ঘটালেন জ্যোতি

চীনের বেইজিংয়ে অগ্নিকাণ্ড, নিহত ১৯ আহত ৮

সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত এমপি গোলাম মোস্তফা আহমেদ

বিশ্ব সুন্দরীর মুকুট মানসী চিল্লার-এর