সরকার জোর করে প্রধান বিচারপতিকে সরিয়ে দিয়েছে: রিজভী

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, কুড়িগ্রাম থেকে | ১৫ নভেম্বর ২০১৭, বুধবার
উত্তরাঞ্চলের কয়েকটি জেলা ধ্বংসের প্রান্তে চলে এসেছে। সরকারের নির্লিপ্ততায় এখানকার সংকট আরো বাড়বে। কুড়িগ্রামে এক ধরনের দুর্ভিক্ষপীড়িত বা মঙ্গা অবস্থা বিরাজ করছে। এবারের প্রবল বন্যায় এর মাত্রা আরো বেড়েছে। সরকার এসব মোকাবিলা ও এই অঞ্চলের উন্নয়নে ব্যর্থ হয়েছে। এই এলাকার ক্ষুধাপীড়িত দরিদ্র অসহায় মানুষের কর্মসংস্থান ও আহারের বিষয়টি সরকার দেখবে।
মঙ্গলবার সকালে কুড়িগ্রাম শহরের সরদারপাড়াস্থ নিজস্ব বাসভবনে সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী এসব কথা বলেন। ষোড়শ সংশোধনী নিয়ে তিনি আরো জানান, ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায়ে স্বয়ং নির্বাহী বিভাগ ও তার প্রধান ক্ষুব্ধ হয়েছেন। ক্রুদ্ধ হয়ে তখন থেকেই বিচার বিভাগের উপর গুণ্ডামি শুরু করেছে। দেশের গণতন্ত্রের ন্যূনতম অস্তিত্বটুকু নিশ্চিহ্ন করা হয়েছে। প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহাকে প্রথমে জোর করে ছুটি নিতে বাধ্য করেছে এবং গুণ্ডামি করে সরকার প্রধান বিচারপতিকে অবসরে যেতে বাধ্য করে। এই সরকার নির্দয়, নিষ্ঠুর ও ফ্যাসিবাদী সরকার। এখানে একজনের স্বাধীনতা অবাধ। তিনি রাষ্ট্রের প্রত্যেকটি অঙ্গের উপরে সর্বপ্রধান হিসেবে কাজ করতে চান।
আগামী নির্বাচনে বিএনপি অংশ নেবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমরা নির্বাচনে যাবো, তবে নির্দলীয় সরকারের অধীনে। শেখ হাসিনার অধীনে বিএনপি নির্বাচনে যাবেও না, নির্বাচন করতেও দিবে না। দেশের জনগণকে নিয়ে তা প্রতিহত করা হবে। কেননা বর্তমান সরকার ভোটারবিহীন সরকার। তারা সুষ্ঠু নির্বাচন করতে পারবে না। তার আমলে নির্বাচন মানেই শেখ হাসিনা নির্বাচন বা ফেরি মার্কা নির্বাচন। রাত তিনটার সময় ব্যালট বাক্স পূরণ হয়ে যাবে। আর রাজনৈতিক বিরোধী প্রার্থীরা মনোনয়ন জমা দিতে পারবে না। সংবাদ সম্মেলনে এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান রানা, সহ-সভাপতি মোস্তাফিজার রহমান ও শফিকুল ইসলাম বেবু, যুগ্ম সম্পাদক সোহেল হোসনাইন কায়কোবাদ, সাংগঠনিক সম্পাদক নুর ইসলাম নুরু, জেলা মহিলা দলের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট রেহেনা খানম বিউটি, জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক নাদিম আহমেদ, পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীর বিপ্লব প্রমুখ।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

‘সম্মতি ছাড়া নারীকে স্পর্শ নয়’

‘বোতলবন্দি ভূত’ বিক্রি করতে গিয়ে আটক ৪

লালবাগে হেলে পড়েছে পাঁচতলা ভবন

রোহিঙ্গা ইস্যুতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ব্রিফিং শুরু

‘আমাকে অবরুদ্ধ রাখা হয়নি’

‘ভূমির মালিকানা পার্বত্য চট্টগ্রামবাসীরই থাকবে’

জনগণ সতর্ক নজর রাখছে

ময়নাতদন্তে আত্মহত্যার লক্ষণ

কেরানীগঞ্জে প্রকৌশলী হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার ৩

যে ছবি নিয়ে বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্কে বিতর্কের ঝড়

১৩ ঘণ্টা বন্দুকযুদ্ধ, অবরুদ্ধ অবস্থার সমাপ্তি

সৌদির সঙ্গে হজ চুক্তি স্বাক্ষর সম্পন্ন

সঙ্ঘকে ধরে দিল্লির কাছে পৌঁছতে চাইছেন খালেদা

যুক্তরাষ্ট্রে সরকারি সেবা বন্ধ হওয়ায় দুর্ভোগে পর্যটকরা

‘এটি অন্যরকম অনুভূতি’

অচলাবস্থা নিয়ে দ্বিতীয় বর্ষে পা রাখলেন ট্রাম্প