জাবিতে বাড়ছে সেশন জট, ভোগান্তিতে শিক্ষার্থীরা

শিক্ষাঙ্গন

রাহুল এম ইউসুফ, জাবি থেকে | ২৮ অক্টোবর ২০১৭, শনিবার
প্রতিযোগিতামূলক শিক্ষাব্যবস্থায় সবাই যখন ব্যস্ত, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা তখন সেশন জটের কবলে থমকে দাঁড়িয়েছেন। ৪ বছরের স্নাতক শেষ করতে সময় লাগছে ৫ বছর। এক বছরের স্নাতকোত্তর শেষ হয় দেড় বছর কিংবা তারও বেশি সময়ে। অহেতুক এ সংকটকে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের নজরদারিতার অভাব ও উদাসীনতাকে দায়ী করছেন সংশ্লিষ্টরা। অপরদিকে শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষাকরা ক্লাসে অনিয়তি থাকা, সান্ধ্যাকালীন কোর্স ও প্রাইভেট কোর্সে বেশি মনোযোগী হওয়ায় এই জট আরো তীব্র আকার ধারণ করেছে। বিগত কয়েক বর্ষ পর্যালোচনা করে দেখা যায়, নতুন শিক্ষাবর্ষ আসলেই বাড়ছে সেশন জট।
ক্রমেই জটের ধারা দীর্ঘ হচ্ছে। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০১১-১২ শিক্ষাবর্ষের (৪১তম আবর্তন) ক্লাস শুরু হয় ২০১২ সালের ২১শে ডিসেম্বর। সে অনুযায়ী স্নাতকোত্তর রেজাল্ট হওয়ার কথা গত বছরের ২১শে ডিসেম্বর মধ্যে। কিন্তু অনেক বিভাগ তাদের পরীক্ষাই শেষ করতে পারেনি। আর ফলাফলের জন্য অপেক্ষা করতে হবে অন্তত ছয় মাস।
সে অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬টি অনুষদের ৩৪টি বিভাগের অধিকাংশ বিভাগ একাডেমিক ক্যালেন্ডার অনুযায়ী ৬ থেকে ১ বছর কিংবা তারো বেশি সময় পিছিয়ে পড়েছে। তবে ২টি ইনস্টিটিউটের অধীনে বিবিএ অর্ধবছর জটে থাকলেও পিছিয়ে নেই আইআইটি ।
সর্বশেষ ২০১৫-১৬ সেশনে (৪৫তম আবর্তন) ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ক্যালেন্ডার অনুযায়ী প্রথম বর্ষের ফলাফল এ বছরের জানুয়ারী মাসে প্রকাশ করার কথা থাকলেও ১০ মাস অতিবাহিত হলেও অধিকাংশ বিভাগই তা বাস্তবে রূপ দিতে পারেনি।
বিজনেস স্টাডিজ অনুষদভুক্ত ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং, মার্কেটিং, অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস এবং ম্যানেজমেন্ট বিভাগ এক বছরেরও বেশি সময় সেশন জটে রয়েছে। একই অবস্থানে রয়েছে অইন অনুষদ ভুক্ত আইন ও বিচার বিভাগ।
জীববিজ্ঞান অনুষদভুক্ত পাবলিক হেল্‌থ অ্যান্ড ইনফরমেটিস বিভাগ, বায়োটেকনোলজি এন্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ, মাইক্রোবায়োলজি বিভাগ এবং ফার্মেসি বিভাগসমূহে রয়েছে এক বছরের সেশন জট। এই অনুষদভুক্ত প্রাণিবিদ্যা বিভাগ, প্রাণরসায়ন ও অণুপ্রাণ বিজ্ঞান বিভাগ ও উদ্ভিদ বিজ্ঞান বিভাগে রয়েছে অর্ধ বছরের জট।
সমাজবিজ্ঞান অনুষদভুক্ত ছয়টি বিভাগে রয়েছে ৪-৬ মাসের জটে। কলা ও মানবিকী অনুষদ ভুক্ত বাংলা বিভাগ কোনো জট ছাড়াই শেষ করেছে ৪১ ব্যাচের মাস্টার্স পরীক্ষা। এছাড়া অন্যান্য বিভাগ গুলোও পিছিয়ে রয়েছে ৬-১০ মাসে। তবে নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগ এবং চারুকলা বিভাগ পিছিয়ে রয়েছে ১ বছর।
গাণিতিক ও পদার্থ বিষয়ক অনুষদভুক্ত ৭টি বিভাগের মধ্যে পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগ ছাড়া গণিত, পরিসংখ্যান ও রসায়ন বিভাগে রয়েছে অর্ধ বছর পিছিয়ে। তবে কম্পিউটর সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং, পরিবেশ বিজ্ঞান ও ভূতাত্ত্বিক বিজ্ঞান বিভাগ রয়েছে ১ বছরেরও বেশি সেশন জটে।
ক্ষোভ প্রকাশ করে মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের ৪২তম আবর্তনের এক শিক্ষার্থী মানবজমিনকে বলেন, যে সময় আমাদের মাস্টার্সের পরীক্ষার প্রস্তুতি নেওয়ার কথা তখন আমরা ফাইনাল ইয়ারের ফরম পূরণে ব্যস্ত। প্রশাসনের উচিত দীর্ঘ জট কমিয়ে দ্রুত একাডেমিক ক্যালেন্ডার অনুযায়ী ক্লাস পরীক্ষা শেষ করা।
এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-ভিসি অধ্যাপক আমির হোসেন মানবজমিনকে বলেন ‘আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়কে অতি দ্রুত আমরা সেশন জট মুক্ত করার পরিকল্পনা নিয়েছি। ইতিমধ্যেই সিন্ডিকেট বৈঠকে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে। এ সময় তিনি শিডিউল অনুযায়ী ক্লাস-পরীক্ষা নেওয়ায় ব্যাপারে শিক্ষাকদের আরো আন্তরিক হওয়ার কথা ব্যক্ত করেন।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ভিডিও দেখে অস্ত্রধারীদের খোঁজা হচ্ছে

‘অতিষ্ঠ হয়ে প্রেমিককে ছুরিকাঘাত’

ফল প্রকাশের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ, অবরোধ

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে সময় লাগবে ৯ বছর!

মত প্রকাশের স্বাধীনতা সীমিত, আক্রমণের শিকার নাগরিক সমাজ

মেয়র আইভী হাসপাতালে

জিয়াউর রহমানের ৮২ তম জন্মবার্ষিকী আজ

এবার আটকে গেল দক্ষিণের ১৮ ওয়ার্ডের নির্বাচনও

হাথুরুকে দেখিয়ে দেয়ার লড়াই

‘আপনার এত তাড়াহুড়া কিসের?’

সংবাদটি আমাকেও শোকে মুহ্যমান করে ফেলে

‘নেতৃত্ব তৈরির প্রক্রিয়া বাধাগ্রস্ত করতেই ছাত্র সংসদ নির্বাচন বন্ধ রাখা হয়েছিল’

৬ মাসের প্রাণ পেলো যশোর রোডের গাছগুলো

সিলেটে রাজনীতির আড়ালে সক্রিয় ‘চিহ্নিত’ অপরাধীরা

‘নিরপেক্ষ নির্বাচন হলে ৮০ শতাংশ ভোট পাবে বিএনপি’

কাজাখস্তানে বাসে আগুন লেগে ৫২ জনের মৃত্যু