ভয়ঙ্কর বিদ্যুৎ বিল

মত-মতান্তর

রনি রেজা | ২২ অক্টোবর ২০১৭, রোববার
নেত্রকোনা জেলার কমলাকান্দা উপজেলার প্রত্যন্ত গ্রামে বাড়ি লেবিসন স্কু’র। গ্রামের প্রতিটি বাড়িতে মাসে সাধারণত বিদ্যুতের বিল আসে ২০০ থেকে ৩০০ টাকা। তাদেরও এমনই আসতো। তবে গত বৃহস্পতিবার হঠাৎ এক ভয়ঙ্কর ভুতুড়ে বিল দিয়ে যান বিদ্যুৎ অফিসের কর্মচারী। আগস্ট মাসের বিদ্যুৎ বিল ৩০০ টাকার পরিবর্তে আসে ৬৩০৬৭ টাকা। ইতিপূর্বেও বিদ্যুৎ অফিসের কর্মকর্তাদের ভুলে দেশের বিভিন্ন এলাকায় এমন বিলের সংবাদ পাওয়া গেছে।
২০১৫ সালে একটি জাতীয় পত্রিকার সংবাদে এমন ভয়ঙ্কর বিলের খবর পাওয়া যায় কক্সবাজারের মহেশখালীতে। এরপর ফেনী, ঝালকাঠি, মাদারীপুরসহ বেশ কয়েকটি স্থানে এই ধরণের বিদ্যুৎ বিলের খবর পাওয়া যায়। ভুক্তভোগীদের দাবি বিদ্যুৎ কর্মীদের ভুলেই এমন বিল এসেছে। তারা গ্রামের মানুষের অসচেতনাকে পুঁজি করে মিটারের কাছে না গিয়ে বাড়িতে বসেই রিডিং তৈরি করেন। এর প্রেক্ষিতেই এমন অস্বাভাবিক বিল তৈরী করেন। লেবিসনদের বেলায়ও তেমনটিই ঘটেছে। অন্যদিকে, বিদ্যুৎ অফিসের ভুলে এমন ঘটনা ঘটলেও তাদের কাছে ধরনা দিয়ে কোন কাজ হয়নি। পুরো বিলই গুনতে হবে ভুক্তভোগীকে। পল্লীবিদ্যুৎ সমিতির মধুকুড়া অঞ্চলের উপমহাব্যবস্থাপক (ডিজিএম) মকবুল হোসেন চৌধুরী নিজেদের ভুলের কথা স্বীকার করেন। তবে তিনি বলেন, এই ঘটনার দায় তিনি বা তার বিদ্যুৎকর্মীরা নিবেননা। বিল যার নামে এসেছে, তাকে পুরো বিলই শোধ করতে হবে। তবে আগামীতে যেন এই ধরণের ঘটনা না ঘটে তার জন্য সংশ্লিষ্ট মিটার পরিবর্তন করে দেয়া হবে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

আমিন

২০১৭-১১-২০ ০৩:০০:০৫

বিলটি ভয়ঙ্কর বটে। কিন্তু জিএম সাহেবের কথা আরও ভয়ঙ্কর। সাহেব কি তারপরও চাকরিতে বহাল থাকবেন?

আপনার মতামত দিন

‘শাসকগোষ্ঠীর নির্মম শিকলে বন্দি মানুষ’

ফেনীতে সাড়ে ১৩ হাজার ইয়াবাসহ আটক ১

ছেলেকে হত্যার পর মায়ের স্বীকারোক্তি

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মচারী নিখোঁজ

নাখালপাড়ায় নিহত এক ‘জঙ্গি’ কাজেম আলী স্কুলের ছাত্র

ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে কলেজছাত্র খুন

অর্থমন্ত্রীর গাড়ি নিয়ন্ত্রন হারিয়ে পথচারীদের ওপর, আহত ৩০

রেকর্ড গড়া জয় বাংলাদেশের

নয়াপল্টনে বিএনপির কার্যালয়ের সামনে ককটেল বিস্ফোরণ

জিয়াউর রহমানের সমাধিতে খালেদা জিয়ার শ্রদ্ধা

স্বেচ্ছাসেবক দলের সাংগঠনিক সম্পাদক ইয়াছিন গ্রেপ্তার

আইভীকে হাসপাতালে দেখে আসলেন ওবায়দুল

তিস্তা কূটনীতিতে চোখ ঢাকার

ভারতের পাশাপাশি মুসলিম দেশগুলোর অব্যাহত সমর্থন চেয়েছে বাংলাদেশ

ভারতের সুপ্রিম কোর্টে ফেলানী হত্যার রিট শুনানি ফের পেছালো

যশোরে বিএনপি নেতা অমিতের বক্তব্যে তোলপাড়