গাজীপুরে আওয়ামী লীগের উঠান বৈঠক পৌঁছে যাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর বার্তা

বাংলারজমিন

ইকবাল আহমদ সরকার, গাজীপুর থেকে | ২২ অক্টোবর ২০১৭, রবিবার
আগামী সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে গাজীপুরে চলছে আওয়ামী লীগের ব্যতিক্রমী কর্মসূচি। উঠান বৈঠক। কোনো খোলা মাঠে নয়, এ বৈঠকের আয়োজন করা হয় কারো বাড়ির আঙ্গিনায়। যেখানে নেতাদের জন্যে কোনো চেয়ার বা টেবিলের স্থান নেই। মাটিতে মাদুর ও চট বিছিয়ে আওয়ামী লীগের শীর্ষস্থানীয় নেতাদের সঙ্গে এক কাতারে বসছেন সাধারণ জনগণ। যেখানে প্রাধান্য পাচ্ছে তৃণমূলের নারীদের অংশগ্রহণ।
উঠান বৈঠকে বর্তমান সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড, বিশেষ করে সামাজিক উন্নয়ন কর্মকাণ্ড ও আগামী দিনের উন্নয়ন ভাবনা তুলে ধরে আগামী নির্বাচনের ভোট প্রার্থনা শুরু করেছেন আওয়ামী লীগ নেতারা। প্রাথমিকভাবে গাজীপুরের ৩৫৮টি স্থানে এ উঠান বৈঠক করার সিদ্ধান্ত নিয়ে কর্মসূচি শুরুর পর প্রায় ২শ’ স্থানে তা অনুষ্ঠিত হয়েছে। পর্যায়ক্রমে জেলার সব উপজেলায় এ ধরনের বৈঠক করা হবে। গাজীপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন সবুজ বলেন, প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশক্রমে প্রধানমন্ত্রীর বার্তা সাধারণ জনগণের কাছে পৌঁছে দিতে গাজীপুরে উঠান বৈঠক শুরু করা হয়েছে একমাস আগে। প্রাথমিক অবস্থায় জাতীয় সংসদের গাজীপুর-৩ আসনে কর্মসূচি চলছে। পর্যায়ক্রমে জেলার প্রত্যেকটি উপজেলায় এ কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হবে। এতে তৃণমূলের নারীদের অংশগ্রহণ বিশেষভাবে গুরুত্ব দেয়া হয়েছে এবং আওয়ামী লীগের এ কর্মসূচিতে ব্যাপক সাড়া পাওয়া যাচ্ছে। বর্তমান সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড তুলে ধরে জনগণের সমস্যা, আগামী দিনের উন্নয়ন ভাবনা ও আগামী নির্বাচন নিয়ে প্রতিটি উঠান বৈঠকে আলোচনা হচ্ছে। এ বৈঠকগুলোতে দলের তৃণমূলের নেতা-কর্মীদের পাশাপাশি সাধারণ নারীদের অংশগ্রহণে ভিন্ন মাত্রার আবহ সৃষ্টি হচ্ছে। বৈঠকে অংশগ্রহণকারী সাধারণ মানুষের কাছে জানতে চাওয়া হয় তাদের সমস্যা ও সম্ভাবনার কথা। তাদের চাওয়া ও পাওয়ার বিষয়কে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে দিনের পর দিন অনুষ্ঠিত হচ্ছে এই বৈঠক। তিনি বলেন, তৃণমূলের জনগণই রাজনীতির প্রাণশক্তি। প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে গাজীপুর-৩ আসনের একহাজার মানুষের বসতি টার্গেট করে একটি করে স্পট নির্ধারণ করে ৩৫৮টি স্থানে উঠান বৈঠক কর্মসূচি গ্রহণ করেছি। ইতিমধ্যে প্রায় ২শ’ স্থানে উঠান বৈঠক কর্মসূচি সফলভাবে সম্পন্ন হয়েছে। এতে তৃণমূলে ব্যাপক সাড়া পাওয়া গেছে। এসব বৈঠক সফলভাবে আয়োজন করতে জেলা আওয়ামী লীগ নেতারা সমন্বয় করছেন স্থানীয় পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ। প্রতিদিন কয়েকটি স্থানে এমনকি রাতের বেলায়ও অনুষ্ঠিত হচ্ছে এসব বৈঠক। এসব বৈঠকে জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন সবুজ, শ্রীপুর পৌর মেয়র আনিছুর রহমান, ইউপি চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন দুলাল, সালাউদ্দিন সরকার, জেলা ও উপজেলা নেতা শামসুল আলম প্রধান, মোস্তাফিজুর রহমান বুলবুল, জহির খান, দেলায়ার হোসেন দেলু ও মো. সহিদুল্লাহসহ স্থানীয় পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ নিয়মিত দায়িত্ব পালন করছেন। জেলা আওয়ামী লীগ নেতাদের ধারণা, প্রত্যন্ত এলকার সাধারণ জনগণ বিশেষ করে নারীদের অংশগ্র্রহণে উঠান বৈঠক কর্মসূচির মাধ্যমে তৃণমূল আওয়ামী লীগের গণজাগরণ সৃষ্টি হয়েছে। এতে নেতৃবৃন্দ জনগণের বিভিন্ন সমস্যার কথা শুনছেন এবং সমস্যা সমাধানের আশ্বাসও দিচ্ছেন। এ কর্মসূচি আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভোটের ক্ষেত্রে সুফল বয়ে আনবে। নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে উঠান বৈঠক করার নির্দেশ দিয়েছেন দলটির সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গত ৮ জুলাই গণভবনে আয়োজিত আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকে এ নির্দেশনা দেন তিনি।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ঢাকা ওয়াসাকে ১৩টি খাল উদ্ধারের নির্দেশ

এসডিজি অর্জন করতে হলে প্রতিবছর ৩০ শতাংশ নতুন বিদ্যুৎ সংযোগ বাড়াতে হবে

‘অনুপ্রবেশকারীদের ৫০০০ পাওয়ারের বাতি জ্বালিয়েও খুঁজে পাওয়া যাবে না’

‘ক্ষমতা থাকলে সরকারকে টেনে-হিচড়ে নামান’

আগামীকাল আদালতে যাবেন খালেদা জিয়া

‘সেনা মোতায়েনের প্রয়োজন নেই’

‘তদন্তের স্বার্থেই তনুর পরিবারকে ডাকা হয়েছে’

জিম্বাবুয়ের নতুন প্রেসিডেন্ট হচ্ছেন ‘কুমির মানুষ’

আশ্রয়শিবিরে সংক্রমণযুক্ত পানির বিষয়ে ইউনিসেফের সতর্কতা

চীন, উত্তর কোরিয়ার ১৩ প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের অবরোধ

রোহিঙ্গা সঙ্কট: উচ্চ আশা নিয়ে বাংলাদেশ-মিয়ানমার বৈঠক শুরু

ঘোড়ামারা আজিজসহ ছয় জনের মৃত্যুদণ্ড

নিবিড় পর্যবেক্ষণে মহিউদ্দিন চৌধুরী

আফ্রিকার স্বৈরাচারদের মেরুদণ্ডে শিহরণ

রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে চীনের প্রস্তাব, যা বললেন মুখপাত্র...

দুদকের মামলা থেকে অব্যাহতি পেলেন মেয়র সাক্কু