নওয়াজ শরীফের তিক্ত জবাব

আপনাদের ভিতরকার আগুন জ্বালিয়ে দিতে এসেছি

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১২ আগস্ট ২০১৭, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ২:৪৩
পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ বলেছেন, আমার বিরুদ্ধে কোনো দুর্নীতির অভিযোগ নেই। গত সাড়ে তিন বছর আমার ক্ষমতার মেয়াদে ষড়যন্ত্র করা হয়েছে। আমি আবার প্রধানমন্ত্রী হতে চাই না। শুক্রবার তিনি গ্রান্ড ট্রাংক রোড দিয়ে সড়ক পথে লাহোর যাত্রা করেন। এ সময় তিনি গুজরানওয়ালায় জনসভায় এসব কথা বলেন। বৃহস্পতিবার রাতে নওয়াজ শরীফ ঝিলম নদীর পাড়ে একটি হোটেলে রাত কাটান। তারপর সড়কপথে যাত্রা শুরু করেন। যাত্রাপথে তিনি বেশ কয়েক স্থানে সমর্থক, নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য রাখেন। দিনের শেষের দিকে তার গাড়িবহর পৌঁছে গুজরানওয়াল। সেবানে রাতে তিনি উপস্থিত জনতার সামনে বক্তব্য রাখেন। তিনি বলেন, আপনাদের ভিতরকার আগুনকে জ্বালিয়ে দিতে এসেছি আমি। শুক্রবার রাতে নওয়াজ শরীফের গুজরানওয়ালাতেই থাকার কথা। আজ শনিবার সকালে লাহোরের উদ্দেশে তার যাত্রা করার কথা রয়েছে। স্থানীয় সময় বিকাল ৪টায় তার লাহোর পৌঁছার কথা। তাকে গত ২৮ শে জুলাই অযোগ্য ঘোষণা করে পাকিস্তানের সুপ্রিম কোর্ট। এরপর তিনি পদত্যাগ করেন। গুজরানওয়ালার সমাবেশে নওয়াজ শরীফ এ বিষয়ে নিজের তিক্ত প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, নওয়াজ শরীফ আপনাদের মাঝে ফিরে এসেছে। আপনারা তাকে নির্বাচিত করেছিলেন। কিন্তু তারা নওয়াজ শরীফকে ক্ষমতাচ্যুত করেছে। কিন্তু তাকে আপনাদের হৃদয় থেকে তারা কোনোদিন মুছে দিতে পারবে না। নওয়াজ শরীফ বলেন, তারা আমাকে শুধু কাগজ থেকে মুছে দিয়েছে। কিন্তু তারা কি আমাকে আদৌও মুছে দিতে পেরেছে? আপনারা হয়তো আবার আগামীদিনে আমাকে প্রধানমন্ত্রী বানাবেন। তবে আবার প্রধানমন্ত্রী হওয়া আমার লক্ষ্য নয়। এ সময় তাকে ক্ষমতাচ্যুত করা নিয়ে প্রশ্ন রাখেন। বলেন, আমি লোডশেডিং দূর করেছি এ জন্যই কি আমাকে ক্ষমতাচ্যুত করা হয়েছে? অর্থনীতির উন্নতি হয়েছে এ জন্য কি আমাকে ক্ষমতাচ্যুত করা হয়েছে? মানুষ চাকরি পাচ্ছে এ জন্য কি আমাকে ক্ষমতাচ্যুত করা হয়েছে? সড়কগুলো নির্মান করা হয়েছে, কলকারখানা স্থাপন করা হচ্ছে এ জন্য কি আমাকে ক্ষমতাচ্যুত করা হয়েছে? নাকি দেশে শান্তি ফেরানের কারণে আমাকে ক্ষমতাচ্যুত করা হয়েছে? এ সময় নেতাকর্মীদের ভিতর থেকে জবাব আসে ‘না’। নওয়াজ শরীফ বলে যেতে থাকেনÑ আমার এসব কাজ তাদের পছন্দ হয় নি। তারা এগুলো সহ্য করতে পারছিল না। তারা ভাবছিল যদি আমি ক্ষমতায় অব্যাহত থাকি তাহলে নওয়াজ শরীফ আবার নির্বাচিত হবেন। এ সময় তিনি আবার প্রশ্ন রাখেন। বলেন, গুজরানওয়ালাবাসী আমাকে বলুন তারা কি এটাই ভেবেছিল কিনা? এবার নেতাকর্মীদের ভিতর থেকে সমস্বরে জবাব আসে ‘হ্যাঁ’। নওয়াজ শরীফ বলে যেতে থাকে, গত সাড়ে তিন বছর আমার ক্ষমতার মেয়াদে ষড়যন্ত্র হয়েছে। আমাদের অগ্রগতি যত দ্রুততর হয়েছে, ষড়যন্ত্রও তত দ্রুততর হয়েছে। আমার বিরুদ্ধে কোনো দুর্নীতির অভিযোগ নেই। আমার নামে একটি রুপিরও দুর্নীতির অভিযোগ নেই। এমনকি যারা আমাকে অযোগ্য ঘোষণা করেছেন তারাও এটা স্বীকার করেন। তাহলে কেন আমাকে ক্ষমতাচ্যুত করা হয়েছে? এ প্রশ্ন রেখে তিনি বলেন, আমি দেশকে একটি পারমাণবিক শক্তিধর দেশে পরিণত করেছি। যে ব্যক্তি দেশের জন্য এমনটা করে তাদের প্রতি আপনাদের কি এই আচরণ? তারা আমাকে এর আগে দু’বার ক্ষমতাচ্যুত করেছে। এবার আবারও করলো। আসলে তারা আমার ক্ষমতার মেয়াদ পূর্ণ করতে দিতে চায় নি। ২০ কোটি ভোটের কি কোনো মূল্য নেই? নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, যদি আপনাদের ভোটের কোনো মূল্য থাকে তাহলে এসব মানুষকে জবাবদিহিতার আওতায় আনতে হবে। পাকিস্তানের ৭০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী সমাগত। এ সময়ে আপনাদের শপথ নিতে হবে, এ ঘটনা আর ঘটতে দেয়া যাবে না। এ সময় তিনি সুপ্রিম কোর্টের বিচারকদের উদ্দেশে বলেন, যারা আমার বিরুদ্ধে রায় দিয়েছেন তারা গুজরানওয়ালার দিকে তাকান। তারা এ রায়কে মেনে নেয় নি। তিনি বলেন, যতক্ষণ পর্যন্ত পাকিস্তানের যুবসমাজের কর্মসংস্থান না হবে ততদিন আমি বিশ্রামে যাবো না। আমি আজ আপনাদের কাছে এসেছি আপনাদের ভিতরকার আগুনকে জ্বালিয়ে দিতে। আসুন আমরা পাকিস্তানকে পাল্টে দিই। আমাদের দেশের নতুন ইতিহাস লিখি। শুক্রবারই নওয়াজ শরীফের গাড়িবহরে চাপা পড়ে মারা যায় ৯ বছর বয়সী একটি বালক। এ জন্য তিনি গভীর দুঃখ প্রকাশ করেন। প্রতিশ্রুতি দেন, ওই শিশুর বাড়িতে যাবে তিনি। তাদেরকে সারাজীবনের জন্য সমর্থন, সহায়তা দিয়ে যাবেন।
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন