হারুনার রশিদ মুন্নু ছিলেন প্রকৃত দেশপ্রেমিক: ফখরুল

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার, মানিকগঞ্জ থেকে | ১২ আগস্ট ২০১৭, শনিবার
বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, হারুনার রশিদ খান মুন্নু ছিলেন একজন প্রকৃত দেশপ্রেমিক। শিল্প উদ্যোক্তা এবং রাজনীতিবিদ হিসেবে দেশ বিদেশে তার ভূমিকা অনস্বীকার্য। আমরা তার এই অবদান কখনোই অস্বীকার করতে পারব না। গতকাল বেলা সাড়ে ১১টায় সাবেক মন্ত্রী, বিশিষ্ট শিল্পপতি ও বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা হারুনার রশিদ খান মুন্নুর দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে স্মৃতিচারণ করে তিনি এ কথা বলেন।
মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর আরো বলেন, আমরা এমন এক বিজ্ঞজনকে হারিয়েছি যিনি সর্বক্ষেত্রে  আমাদের পথ দেখিয়েছেন। রাজনীতির পাশাপাশি মানব কল্যাণে তার অবদান দেশের মানুষ সর্বক্ষণই স্মরণ করবে।
তিনি বলেন, হারুনার রশিদ খান মুন্নু মানিকগঞ্জের মানুষের কাছে ছিলেন অত্যন্ত জনপ্রিয়। যার ফলে জনগণ তাকে বার বার ভোট দিয়ে সংসদে পাঠিয়েছিলেন।
আজ তিনি নেই কিন্তু জনগণের মাঝে রেখে গেছেন যোগ্য নেতৃত্ব। তার মেয়ে আফরোজা খান রিতা বাবার আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে মানিকগঞ্জ জেলায় জনপ্রিয়তার শীর্ষে অবস্থান করছেন।
মহাসচিবকে উদ্দেশ্য করে আফরোজা খান রিতা বলেন, আমার পিতা বাবা-মায়ের একমাত্র সন্তান ছিলেন। আমার  চাচা, ফুপু কেউ নেই। আমি অভিভাবকহীন, আজ থেকে মনে করব আপনারাই আমার অভিভাবক।  এ কথা বলেই আবেগতাড়িত হয়ে পড়েন আফরোজা খান রিতা।
হারুনার রশিদ খান মুন্নুর স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সঙ্গে এ সময় উপস্থিত ছিলেন, আফরোজা খান রিতার স্বামী মইনুল ইসলাম, হারুনার রশিদ খান মুন্নুর তিন নাতি রাশিদ মাইমুনুল ইসলাম, রাশিদ জামিউল ইসলাম ও রাশিদ রাফিউল ইসলামসহ বিএনপি নেতৃবৃন্দ। এর আগে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাবেক মন্ত্রী হারুনার রশিদ খান মুন্নুর কবরে দাঁড়িয়ে নীরবতা পালন করেন এবং কবর জিয়ারতে অংশ নেন। এ সময় মোনাজাত পরিচালনা করেন হুরুন নাহার জামে মসজিদের ইমাম মওলানা মো. আব্দুল হামিদ। দোয়া মাহফিলে বিকাল পর্যন্ত মুন্নু সিটিতে একে একে উপস্থিত হন সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী এম মোর্শেদ খান, সাবেক মন্ত্রী চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, সাবেক মন্ত্রী আব্দুল্লাহ আল নোমান, সাবেক মন্ত্রী আমান উল্লাহ আমান, সাবেক শিক্ষা উপমন্ত্রী গোলাম ছারোয়ার মিলন, যুবদলের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, ড্যাবের সাধারণ সম্পাদক এ জেড এম জাহিদ, স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় কমিটির সেক্রেটারি আব্দুল কাদের ভুইয়া জুয়েল, তাঁতি দলের সেক্রেটারি আবুল কালাম আজাদ, মানিকগঞ্জ পৌর সভার মেয়র গাজী কামরুল হুদা সেলিমসহ বিভিন্ন রাজনীতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক, পেশাজীবীসহ বিভিন্ন পেশার মানুষ।  এদিকে মানিকগঞ্জের মুন্নু সিটিতে অনুষ্ঠিত হারুনার রশিদ খান মুন্নুর দোয়া মাহফিলে সকাল থেকে দিনভর গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টি উপেক্ষা করে মানুষের ঢল নামে।

 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

বিজয় দিবসে দেশ গড়ার দৃপ্ত শপথ

বঙ্গবন্ধুর গৃহবন্দি পরিবারকে যেভাবে উদ্ধার করেছিলেন কর্নেল তারা

থ্যাংক ইউ জেনারেল, উই আর অলরেডি বার্নিং, ডোন্ট অফার আস ফায়ার

রাহুল গান্ধীর অভিষেক

চাল-পিয়াজের দামে অসহায় ক্রেতারা

সিলেটে চার বন্ধুর একসঙ্গে বিদায়

রহস্য ভূমিকায় জামায়াত

শোকে মলিন চট্টলা

কিশোরগঞ্জে ২ সাংবাদিক ও বান্দরবানে ৪ পুলিশকে পেটালো ছাত্রলীগ

জৈন্তাপুরে লিয়াকত আলীই এখন শেষকথা

রাজধানীতে আওয়ামী লীগের বর্ণাঢ্য র‌্যালি

বড় দু’দলেই একাধিক প্রার্থী

ছায়েদুল হকের জন্য কাঁদছে নাসিরনগর

ব্রাজিল ফুটবলের প্রধান ৯০ দিন নিষিদ্ধ

ঝিকরগাছায় ছাত্রলীগ কর্মী খুন, সড়ক অবরোধ

উৎসবের আমেজে সারাদেশ