হিজাবধারী নারীর ওপর হামলা

‘হেট ক্রাইম’ হিসেবে তদন্ত করছে বৃটেন

দেশ বিদেশ

কূটনৈতিক রিপোর্টার | ১৮ জুলাই ২০১৭, মঙ্গলবার
বৃটেনের একটি টিউবস্টেশনে একজন মহিলার হিজাব টেনে  খোলার চেষ্টার ঘটনার তদন্ত করছে পুলিশ। ওই ঘটনাকে হেট ক্রাইম বা ঘৃণাজনিত আক্রমণ বলে ধারণা করা হচ্ছে। আনিসো আব্দুল কাদির শুক্রবার রাতে বেকার স্ট্রিটে একটি ট্রেনের জন্য দাঁড়িয়ে ছিলেন। এমন সময় হামলার মুখে পড়েন তিনি। খবর বিবিসি বাংলার। আক্রান্ত নারী পরে টুইটারে সন্দেহভাজন এক হামলাকারীর একটি ছবি দেন এবং সবাইকে  সেটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করেন। মিজ আব্দুল কাদির টুইট করেছেন, ‘এই লোকটি  বেকার স্ট্রিটে আমার হিজাব টেনে খুলে ফেলতে চাচ্ছিল এবং যখন আমি শক্ত করে আমার স্কার্ফটি ধরে রাখার চেষ্টা করছিলাম তখন সে আমাকে আঘাত করে।’ তিনি আরো লেখেন, ‘সে (হামলাকারী) আমাকে এবং আমার বন্ধুদের গালাগাল করে। তাদের মধ্যে একজনকে  দেয়ালের সঙ্গে ঠেকিয়ে রেখে তার মুখে থুথু ছিটায়। মিজ আব্দুল কাদিরের এই পোস্ট ২৪,০০০-এর বেশিবার টুইটারে শেয়ার হয়েছে। এ ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে বলে বৃটিশ ট্রান্সপোর্ট পুলিশ নিশ্চিত করেছে। বৃটিশ ট্রান্সপোর্ট পুলিশের একজন মুখপাত্র বলেছেন, এটা হেট ক্রাইম (ঘৃণাজনিত আক্রমণ) হিসেবে তদন্ত করা হচ্ছে। এ ধরনের আচরণ সম্পূর্ণভাবে অগ্রহণযোগ্য এবং তা কোনোভাবেই প্রশ্রয় দেয়া হবে না বলে তিনি উল্লেখ করেন।

 
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন