পিরোজপুরে যুবলীগ নেতার বাড়িতে প্রেমিকার অনশন

বাংলারজমিন

পিরোজপুর প্রতিনিধি | ১৭ জুলাই ২০১৭, সোমবার
জেলার নাজিরপুর উপজেলায় প্রেমিকের দেয়া বিয়ের প্রতিশ্রুতি পূরণের দাবিতে যুবলীগ নেতার বাড়িতে তার প্রেমিকা আমরণ অনশন শুরু করেছে। কথিত প্রেমিক বিয়ে না করার প্রত্যয়ে বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে গেছে। জানা গেছে, উপজেলার কলারদোয়ানিয়া ইউনিয়নের মুগারঝোর গ্রামের রুস্তম আলীর ছেলে রাশেদুল ইসলাম মনিরের বাড়িতে গত ২ দিন ধরে বিয়ের দাবিতে আমরণ অনশন করছে তার প্রমিকা পরিচয়ে এক যুবতী। রাশেদুল ইসলাম মনির ওই ইউনিয়ন যুবলীগের সদস্য। গত শনিবার সরজমিনে ওই যুবলীগ নেতার বাড়িতে গেলে অনশনরত ওই যুবতী জানায়, তার বাড়ি বরিশাল জেলার বানারীপাড়া উপজেলার বিশারকান্দি ইউনিয়নের উমারের পাড় গ্রামে। সে উপজেলার বৈঠাকাটা কলেজে একাদশ শ্রেণিতে অধ্যয়নকালে গত ৭ বছর আগে যুবলীগ নেতা মনিরের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক। একপর্যায়ে মনির বিয়ের প্রলোভন দিয়ে তাকে বিভিন্ন স্থানে নিয়ে একাধিকবার দৈহিক মেলামেশা করে। কিন্তু বিয়ে না করায় মেয়েটিকে তার পরিবার অন্যত্র বিয়ে দিলেও যুবলীগ নেতা মনির তাকে সেখান থেকে ফুঁসলিয়ে বিয়ের কথা বলে নিয়ে আসে।
সম্প্রতি মনির অন্যত্র বিয়ে করবে এমন খবর পেয়ে গত শুক্রবার সকাল ৯টায় মেয়েটি ওই যুবলীগ নেতার বাড়িতে অবস্থান নিয়ে আমরণ অনশন করছে। ওই যুবতী আরো জানায়, ওই বাড়িতে অবস্থান নেয়ার পর শুক্রবার রাতে যুবলীগ নেতা মনিরের মা, ভাবি (ভাইয়ের স্ত্রী) ও বোন  তাকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়ার উদ্দেশে বেধম মারপিট করে।
অভিযুক্ত যুবলীগ নেতা মনিরের বড় ভাই আলাউদ্দিন বলেন, মেয়েটির সঙ্গে আমার ভাইয়ের কোনো সম্পর্ক নাই। প্রতিপক্ষরা আমাদের হয়রানি করার উদ্দেশ্যে মেয়েটিকে আমাদের বাড়িতে পাঠিয়েছে।
নাজিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. হাবিবুর রহমান জানান, তিনি এ ব্যাপারে এখনো কারো কোনো অভিযোগ পাননি। অভিযোগ পেলে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।
 
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন