প্রধান হুইপকে স্পিকার

আপনার সময় একই নিয়ম থাকবে তো?

এক্সক্লুসিভ

সংসদ রিপোর্টার | ২০ জুন ২০১৭, মঙ্গলবার
সংসদ সদস্যদের নির্ধারিত সময়ের বাইরে বক্তব্যের সুযোগ না দেয়ার আহ্বান জানানোর পর প্রধান হুইপ আ স ম ফিরোজকে উদ্দেশ্য করে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, আপনার বক্তব্যের সময়ে একই নিয়ম থাকবে তো? এসময় সংসদে হাসির রোল পড়ে যায়। গতকাল সংসদ অধিবেশনে প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনা চলাকালে প্রধান হুইপ ফিরোজ ফ্লোর নিয়ে স্পিকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। তিনি বলেন, বাজেটের ওপর এ পর্যন্ত ১২৬ জন বক্তব্য দিয়েছেন। আরো ১২০ থেকে ১২৫ জন বক্তব্য দেবেন। আমাদের হাতে সময় কম। বিরোধী দলের প্রধান হুইপসহ সকল হুইপ বসে কোন সংসদ সদস্য কতক্ষণ বক্তব্য দেবেন, সময় ঠিক করে দিয়েছি। মাননীয় স্পিকার, আপনার প্রতি অনুরোধ ওই সময়ের মধ্যে যেন থাকেন। আর সংসদ সদস্যদের অনুরোধ জানাবো, আপনারা নির্ধারিত সময়ের মধ্যে বক্তব্য শেষ করবেন। প্রধান হুইপের কথা শেষ হলে স্পিকার শিরীন শারমিন বলেন, ‘মাননীয় চিফ হুইপ, আপনার বক্তব্য দেয়ার সময় এই নিয়ম থাকবে তো? অবশ্য চিফ হুইপের ওই অনুরোধের পরও স্পিকারকে একাধিক সংসদ সদস্যের বক্তব্যের সময় বাড়িয়ে দিতে দেখা গেছে। উল্লেখ্য, বাজেট আলোচনায় বক্তার তালিকা ও সময় স্ব স্ব দলের হুইপদের মাধ্যমে ঠিক করে স্পিকারের কাছে জমা দেন প্রধান হুইপ। নির্ধারিত সময়ের বাইরে প্রায় প্রতিদিনই অধিবেশনে সভাপতিত্বকারী স্পিকার-ডেপুটি স্পিকারকে সময় বাড়িয়ে দিতে দেখা যায়।


 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

৮৫ লাখ টাকা মূল্যের স্বর্ণসহ ভারতীয় নাগরিক আটক

যেকোনো মুহূর্তে যুদ্ধ!

নবজাতকের মৃত্যু, উত্তেজনা

মিয়ানমারের অনুরোধে খবর গোপন করেছিল জাতিসংঘ

তিন দিন ধীরগতি থাকবে ইন্টারনেটে

সন্তানকে ফিরে পেতে বাবা-মায়ের আকুতি

‘সুষমা স্বরাজের ঢাকা সফরে রোহিঙ্গা, তিস্তা ইস্যু থাকবে’

কে এই কিংবদন্তী নর্তকি ও গুপ্তচর মাতা হরি?

রোহিঙ্গাদের জন্য ৪৩ কোটি ৪০ লাখ ডলার সংগ্রহে ডোনার কনফারেন্স করবেন জাতিসংঘের কর্মকর্তারা

ইউপি চেয়ারম্যান ও আ’লীগের নেতার বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা

‘ব্যাক্তিগত জীবন নিয়ে সিদ্ধান্তের অধিকার সবারই আছে’

ঢাকায় আসছেন জাপানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী তারো কোনো

আবারো মিয়ানমারের বিরুদ্ধে অস্ত্র-ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার আহ্বান

কুয়েতে এসি বিস্ফোরণে মৌলভীবাজারের একই পরিবারের ৫ জনের মৃত্যু

৮০০ কোটি টাকার প্রকল্প নিয়ে নানা প্রশ্ন

যুদ্ধ নয় আলোচনায় সমাধান