সারা দেশে বিক্ষোভ আজ

ফখরুলের ওপর হামলায় তীব্র প্রতিক্রিয়া

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১৯ জুন ২০১৭, সোমবার
দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে আজ সারা দেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করেছে বিএনপি। আদালতে হাজিরা উপলক্ষে কুমিল্লা অবস্থানরত দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রিজভী আহমেদ সেখানে তাৎক্ষণিক এক সংবাদ সম্মেলন করে এ কর্মসূচি ঘোষণা দেন। একইভাবে আজ সারাদেশে জেলায় জেলায় ও আগামীকাল থানায় থানায় বিক্ষোভ কর্মসূচি দিয়েছে স্বেচ্ছাসেবক দল। এদিকে চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলামের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে নয়া পল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে তাৎক্ষণিকভাবে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিএনপি ও অঙ্গদলগুলো। দুপুরে বিএনপির নয়া পল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিল করে নাইটিঙ্গেল মোড়ের দিকে অগ্রসর হওয়ার পরপরই পুলিশ নেতাকর্মীদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এ সময় পুলিশের সঙ্গে নেতাকর্মীদের হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।
সেখান থেকে বিএনপি ও অঙ্গদলের ৬ কর্মীকে আটক করে পুলিশ। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সভাপতি হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, যুগ্ম সম্পাদক সাদরাজ জামান, মহানগর দক্ষিণের সভাপতি এসএম জিলানী, ছাত্রদলের সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদের নেতৃত্বে মিছিলে বিএনপি, যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল ও ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা অংশ নেন। বিক্ষোভ মিছিল সম্পর্কে স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু বলেন, আমাদের দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের গাড়িবহরে হামলা করে মহাসচিবসহ বেশ কয়েকজনকে আহত করেছে আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের ক্যাডাররা। তার প্রতিবাদে আমরা বিক্ষোভ মিছিল বের করলে পুলিশ আমাদের বাধা দিয়ে ৬ কর্মীকে আটক করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বিএনপি ঢাকা মহানগর দক্ষিণ। ওদিকে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের নিজ জেলা ঠাকুরগাঁওয়ে বিক্ষোভ মিছিল করেছে জেলা বিএনপি। এছাড়া ঢাকায় মহানগর উত্তর স্বেচ্ছাসেবক দল সভাপতি ফখরুল ইসলাম রবিন ও সাধারণ সম্পাদক কাজী রেজওয়ান হোসেন রিয়াজের নেতৃত্বে, চট্টগ্রাম মহানগরে সৈয়দ আজম উদ্দিন ও এস কে খোদা তোতনের নেতৃত্বেসহ কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা, নারায়ণগঞ্জ, ময়মনসিংহ, ভোলা, লক্ষীপুরে তাৎক্ষনিক বিক্ষোভ মিছিল করেছে স্বেচ্ছাসেবক দল।
বিএনপি মহাসচিবের ওপর নয় এটি গণতন্ত্রের ওপর হামলা: বিএনপি
স্টাফ রিপোর্টার, কুমিল্লা থেকে জানান, বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, রাঙ্গুনিয়ায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ নেতা-কর্মীদের ওপর হামলা করা হয়নি- এ হামলা করা হয়েছে গণতন্ত্রের ওপর। যুবলীগ ও ছাত্রলীগের ক্যাডাররা এ হামলা চালিয়েছে। এই সরকার সাধারণ মানুষের ওপর হামলা ও নির্যাতন করতে দলের ছাত্রলীগ এবং যুবলীগকে লেলিয়ে দিয়েছে। এ হামলা করে সরকার প্রমাণ করলো তারা অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন চায় না। গতকাল কুমিল্লার আদালতে একটি মামলায় হাজিরা দিতে আসা রুহুল কবির রিজভী দুপুরের দিকে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপি কার্যালয়ে তাৎক্ষণিক সংবাদ সম্মেলন করে এ অভিযোগ করেন। রিজভী বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার জনগণের ভোটে নির্বাচিত নয় বলেই প্রধানমন্ত্রী দুর্গতদের রেখে সুইডেন গিয়ে আনন্দ ভ্রমণ করেছেন। মানবিকভাবে বিপর্যস্ত দুর্গত এলাকায় সরকারের ব্যর্থতা আছে বলেই সরকার বিএনপির নেতাকর্মীদের দুর্গত ক্ষুধার্ত মানুষের পাশে দাঁড়াতে দিচ্ছে না, ওখানে যেতে বাধা সৃষ্টি করছে। এই সরকার গণবিরোধী সরকার, দানব সরকার উল্লেখ করে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের সময়ে কোনো উন্নয়ন হয়নি, হয়েছে দুর্নীতি লুটপাট আর চাপাবাজির উন্নয়ন। ভোটারবিহীন সরকারের পতন না হওয়া পর্যন্ত এ দেশের মানুষের কোনো নিরাপত্তা থাকবে না। এ হামলার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলনে রিজভী সোমবার সারা দেশের জেলা সদর, মহানগর এবং ঢাকা মহানগরের প্রতিটি থানায় বিক্ষোভ কর্মসূচির ঘোষণা করেন। সংবাদ সম্মেলনে তিনি দাবি করেন, গাড়িবহরে হামলায় বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) রুহুল আলম চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান শামীম, বিএনপির স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. ফাওয়াজ হোসেন শুভ ও চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসেম আহত হয়েছেন। এ সময় কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তাক মিয়া, বিএনপি নেতা সৈয়দ জাহাঙ্গীর, আবদুর রউফ চৌধুরী ফারুক, সারোয়ার জাহান দোলন, মোজাহিদ চৌধুরীসহ কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা-মহানগর বিএনপি, যুবদল ও ছাত্রদলের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। এদিকে এই হামলার নিন্দা জানিয়ে দেয়া এক প্রতিক্রিয়ায় বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আতাউর রহমান ঢালী বলেন, আওয়ামী লীগ একটি ফ্যাসিবাদী দলে পরিণত হয়েছে। বিএনপি মহাসচিবের ওপর হামলা তাদের ফ্যাসিবাদী চরিত্রের বহিঃপ্রকাশ। তাদের এই ফ্যাসিবাদী সকল আচরণ আমরা গণতান্ত্রিকভাবে মোকাবিলা করবো।
নারায়ণগঞ্জ বিএনপির বিক্ষোভ
স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ থেকে জানান, বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরীসহ তাদের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে নারায়ণগঞ্জে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম, নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখা ও মহানগর যুবদল। দুপুরে নারায়ণগঞ্জ আদালত পাড়ায় জেলা আইনজীবী ফোরামের সভাপতি অ্যাডভোকেট সরকার হুমায়ুন কবিরের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট খোরশেদ আলম মোল্লার সঞ্চালনায় বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য দেন জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন খান, আইনজীবী ফোরামের সিনিয়র সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট জাকির হোসেন, সহ-সভাপতি নবী হোসেন ও রাকিবুল হাসান শিমুল, অ্যাডভোকেট সৈয়দ মশিউর রহমান শাহীন, অ্যাডভোকেট কামরুন্নাহার প্রমুখ। অপরদিকে একই সময় নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক কাউন্সিলর মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বিক্ষোভ সমাবেশে মহানগর যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক মাসুদ রানা, রানা মুজিব, আক্তার হোসেন খোকন শাহ, জুয়েল রানা, সাগর প্রধান প্রমুখ বক্তব্য দেন। এ সময় নেতাকর্মীরা মুখে কালো কাপড় বেঁধে ও কালো পতাকা উড়িয়ে প্রতিবাদ জানান। বিক্ষোভ সমাবেশ ও কালো পতাকা প্রদর্শনে উপস্থিত ছিলেন মহানগর যুবদল নেতা জয়নাল আবেদীন, ইছাল উদ্দিন, আবদুর রহমান, রিটন দে, শওকত খন্দকার, সাইফুর প্রধান, ইউনুছ খান বিপ্লব, আল-আমিন খান, মাহাবুব হাসান জুলহাস প্রমুখ। এদিকে এক বিবৃতিতে এই হামলার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপির ধর্মবিষয়ক সম্পাদক ও আড়াইহাজার উপজেলা বিএনপির সভাপতি বদরুজ্জামান খসরু।
কিশোরগঞ্জে বিক্ষোভ
স্টাফ রিপোর্টার, কিশোরগঞ্জ থেকে জানান, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে কিশোরগঞ্জে বিক্ষোভ মিছিল হয়েছে। হামলার খবর পেয়ে গতকাল দুপুরে তাৎক্ষণিক বিক্ষোভ মিছিল করে জেলা যুবদল ও কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা শাখা ছাত্রদল। মিছিলটি কালীবাড়ী মোড় থেকে শুরু হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। কর্মসূচিতে জেলা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক খসরুজ্জামান জিএস শরীফ, কিশোরগঞ্জ জেলা ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মাসুদ সুমন, জেলা বিএনপির সহ-ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক জীবন চন্দ্র দাস, জেলা যুবদল নেতা সাইফুল ইসলাম রনি, সৈয়দ কামরুল হুদা রনক, সদর উপজেলা ছাত্রদলের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. মারুফ মিয়া, সদর উপজেলা ছাত্রদল নেতা আব্দুল্লাহ শাওন বাবু প্রমুখ নেতৃত্ব দেন। কর্মসূচি থেকে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের গাড়িবহরে বর্বরোচিত হামলার তীব্র নিন্দা ও অবিলম্বে দোষীদের শনাক্ত করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানানো হয়।
ইবি জিয়া পরিষদের নিন্দা
ইবি প্রতিনিধি জানান, মির্জা ফখরুলের ওপর হামলার প্রতিবাদে নিন্দা ও ক্ষোভ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় জিয়া পরিষদ। গতকাল মির্জ ফখরুলের গাড়িবহরে হামলার পর এক বিবৃতিতে তারা এ ক্ষোভ প্রকাশ করেন। পরিষদের সভাপতি প্রফেসর ড. তোজাম্মেল হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর মোহাম্মদ সেলিম স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে তারা বলেন, বিএনপির মহাসচিব মির্জ ফখরুল ইসলাম আলমগীরের গাড়িবহরে হামলার মাধ্যমে সরকারের আসল চেহারা ফুটে উঠেছে। তারা গণতন্ত্রকে রুখে দিতে চায়। তাদের হাতে দেশের নেতারাও ছাড় পাচ্ছেন না।
নাটোরে বিএনপির ঝটিকা মিছিল
নাটোর প্রতিনিধি জানান, বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের গাড়িবহরে হামলা, ভাঙচুর ও আহত করার প্রতিবাদে নাটোরে ঝটিকা মিছিল করেছে বিএনপির অঙ্গসংগঠনগুলো। গতকাল দুপুরে শহরের আলাইপুর থেকে একটি ঝটিকা মিছিল বের করে ছাত্রদল, যুবদল ও স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা কর্মীরা। মিছিলটি হাফরাস্তা এলাকায় পৌঁছলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে নেতাকর্মীরা সটকে পরেন।
ফ্যাসিবাদী চরিত্রই নগ্নভাবে ফুটে উঠেছে: জামায়াত
বিএনপি মহাসচিবের গাড়িবহরে হামলার ঘটনায় ফ্যাসিবাদী চরিত্রই নগ্নভাবে ফুটে উঠেছে বলে মন্তব্য করেছে ২০ দলীয় জোটের শরিক জামায়াতে ইসলামী। গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে দলটির নায়েবে আমির অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ার এ মন্তব্য করেন।
প্রতিবাদের ভাষা নেই: শত নাগরিক
বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ কেন্দ্রীয় নেতাদের গাড়িবহরে হামলার ঘটনায় প্রতিবাদ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে বুদ্ধিজীবী ও বিশিষ্টজনদের সংগঠন শত নাগরিক। বিবৃতিতে তারা বলেন, ফখরুল ইসলামের মতো এমন সজ্জন রাজনীতিবিদের ওপর এ বর্বরোচিত হামলার প্রতিবাদ জানানোর ভাষা আমাদের জানা নেই। আমরা মনে করি, সরকার নিজেদের ব্যর্থতা ঢাকতে দলীয় সন্ত্রাসীদের দিয়ে ত্রাণবাহী বহরে পরিকল্পিতভাবে হামলা চালিয়েছে। এ হামলা গণতন্ত্র ও পরমতসহিষ্ণুতার ওপর হামলা। তারা অবিলম্বে এ হামলার সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করে শাস্তির দাবি জানান। বিবৃতিদাতাদের মধ্যে রয়েছেন ঢাবির সাবেক ভিসি প্রফেসর এমাজউদ্দীন আহমদ, সাবেক সিইসি বিচারপতি মোহাম্মদ আবদুর রউফ, সাবেক ভিসি প্রফেসর ড. আনোয়ারউল্লাহ চৌধুরী, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, ড. মাহবুবউল্লাহ, মোহাম্মদ আসাফউদ্দৌলাহ, শওকত মাহমুদ, অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন, মাহফুজ উল্লাহ, প্রফেসর আফম ইউসুফ হায়দার, রুহুল আমিন গাজী ও আবদুল হাই শিকদার প্রমুখ।


 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ছিচকে চোর থেকে মাদক সম্রাট!

সুপারমডেল থেকে মাতৃসেবায়

বোতলে ভরা চিঠি সমুদ্র ফিরিয়ে দিল ২৯ বছর পর!

কার সমালোচনা করলেন বুশ, ওবামা!

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া রুটে ফেরি ও লঞ্চ চলাচল বন্ধ

জুমের মাধ্যমে পেমেন্ট নিতে পারবেনা বাংলাদেশের ফ্রিল্যান্সাররা

স্বাধীনতা নয়, কেন্দ্রীয় সরকারের অধীনে যাচ্ছে কাতালান

অস্ট্রেলিয়ার গহীন মরুতে ১৮শতাব্দীর বাংলা পুঁথি

হারভে উইন্সটেন যেভাবে হোটেলকক্ষে অভিনেত্রীকে যৌন নির্যাতন করেন

আজও সারাদিন বৃষ্টি

ভারতের ‘অ্যাক্ট ইস্ট’ পলিসির মূল স্তম্ভ হলো বাংলাদেশ

ভর্তি পরীক্ষায় ‘র‌্যাগের’ বিরুদ্ধে রাবি প্রশাসনের কঠোর অবস্থান

‘এই ধরনের কাজ করতে আমি সবসময়ই বেশ স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি’

মসজিদে গুলি ছোড়ার পর পাল্টে গেল এক মার্কিনীর জীবন

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে দুর্নীতির মচ্ছব

দৃশ্যপট একই