বীরাঙ্গনা বানাতে কাণ্ড

নিজের জাল স্বাক্ষর দেখে হতবাক হাসানাত আব্দুল্লাহ

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার, বরিশাল থেকে | ২০ মে ২০১৭, শনিবার
 নিজের জাল স্বাক্ষর দেখে নিজেই হতবাক হয়ে গেলেন আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ এমপি। জাল জালিয়াতির মাধ্যমে শেষপর্যায়ে নিজের মাকে বীরাঙ্গনা সাজিয়ে জেলার আগৈলঝাড়া উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাই কমিটির সভাপতি, জামুকার সদস্য, মুজিব বাহিনীর প্রধান আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপির স্বাক্ষর জাল করে তার হাতেই ধরা পড়েছেন ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা তৈরির কারিগর হিসেবে পরিচিত আনিচুজ্জামান ওরফে লেলিন তালুকদার। শেষে হাসনাত আবদুল্লাহর নির্দেশে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বৃহস্পতিবার রাতে বাদী হয়ে লেলিন তালুকদারসহ তার চার সহযোগীর বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেছেন।
মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাই কমিটি ও এজাহার সূত্রে জানা গেছে, গত ১৭ই মে আগৈলঝাড়ায় জেলা পরিষদ ডাকবাংলো সভাকক্ষে বরিশাল-১ আসনের সংসদ সদস্য, জামুকার সদস্য আবুল হাসানাত আব্দুুল্লাহর সভাপতিত্বে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাই কমিটির সভা চলছিল। ওই সভায় উপজেলার গৈলা ইউনিয়নের সুজনকাঠী গ্রামের খালেক তালুকদারের পুত্র হিজলা উপজেলার খাদ্য পরিদর্শক আনিচুজ্জামান ওরফে লেলিন তালুকদার তার নিজের মা মমতাজ বেগমকে বীরাঙ্গনা বানিয়ে কাগজপত্র দাখিল করেন। দাখিল করা ওই কাগজে লেলিন তার নিজের বাবা খালেক তালুকদারের স্ত্রীর পরিচয় না দিয়ে তার নানা পূর্ব সুজনকাঠী গ্রামের মৃত ইসমাইল সরদারের কন্যা হিসেবে পরিচয় দেয়।
এছাড়াও লেলিন উপজেলার চেঙ্গুটিয়া গ্রামের মৃত মোক্তার হোসেন তালুকদারের পুত্র তার খালাতো ভাই শহিদ তালুকদার, পশ্চিম গোয়াইল গ্রামের মৃত ইয়াসিন সিকদারের পুত্র সেকেন্দার আলী শিকদারকে মুক্তিযোদ্ধা বানানোর জন্য এমপি আবুল হাসানাত আব্দুুুল্লাহর ভুয়া স্বাক্ষর করা সুপারিশপত্রসহ মন্ত্রণালয়ের তৈরি করা বিভিন্ন ভুয়া কাগজপত্র তিনজনের স্ব্পক্ষে দাখিল করেন।
বাছাই কমিটির সভাপতি এমপি আবুল হাসানাত আব্দুুুল্লাহ বাছাই কমিটির সদস্যদের উপস্থিতিতে তার নিজের স্বাক্ষর জাল হিসেবে শনাক্ত করেন। বিষয়টি টের পেয়ে ওই সভা থেকে আনিচুজ্জামান ওরফে লেলিন তালুকদারসহ মুক্তিযোদ্ধা নামধারী ভুয়া লোকজন কৌশলে সটকে পড়ে।
পরবর্তীতে মুক্তিযোদ্ধা যাচাই বাছাই কমিটির সদস্যদের উপস্থিতিতে এমপি হাসানাত কমিটির সদস্য সচিব ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার গাজী তারিক সালমনকে জালিয়াতির বিরুদ্ধে আইনগত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দেন।
সূত্রমতে, যাচাই-বাছাই কমিটির কাছে লেলিনের দাখিল করা ভুয়া কাগজপত্রের মধ্যে রয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের স্বাধীনতা সংগ্রামের সনদপত্র, গৈলা ইউনিয়নের সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আবদুল কাদের সরদারের স্বাক্ষরিত ভুয়া সনদপত্র ও বিভিন্ন কমান্ডারের ভুয়া সনদপত্র।
এমপি হাসানাতের স্বাক্ষর জালিয়াতির অভিযোগে আগৈলঝাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাই কমিটির সদস্য সচিব গাজী তারিক সালমন বাদী হয়ে বৃহস্পতিবার রাতে লেলিন তালুকদারসহ চারজনের বিরুদ্ধে আগৈলঝাড়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন (যার নং-৫, তারিখ: ১৮-৫-২০১৭)। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আবদুস সালাম মোল্লা জানান, আসামিদের গ্রেপ্তারের জন্য জোর প্রচেষ্টা চলছে।


 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

বিদেশি হস্তক্ষেপ রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান হবে না : বেইজিং

ছাত্রলীগ নেতাসহ তিনজন চারদিনের রিমান্ডে

সোনাজয়ী শুটার হায়দার আলী আর নেই

মালয়েশিয়ায় ভূমি ধসে তিন বাংলাদেশি নিহত

নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত মুক্তামনি

খাল থেকে উদ্ধার হলো হৃদয়ের লাশ

রোহিঙ্গা সঙ্কট সমাধানকে কঠিন পর্যায়ে নিয়ে গেছে সরকার: খসরু

সঙ্কট সমাধানে প্রয়োজন পরিবর্তন: দুদু

চোখের চিকিৎসা করাতে লন্ডনে গেলেন প্রেসিডেন্ট

সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ আওয়ামী লীগের সদস্য হতে পারবে না

বৌদ্ধ ভিক্ষু সেজে কয়েক শত কিশোরীর সঙ্গে যৌন সম্পর্ক

৫০ বছরের মধ্যে জাপানে কানাডার প্রথম সাবমেরিন

ছিচকে চোর থেকে মাদক সম্রাট!

বোতলে ভরা চিঠি সমুদ্র ফিরিয়ে দিল ২৯ বছর পর!

কার সমালোচনা করলেন বুশ, ওবামা!

জুমের মাধ্যমে পেমেন্ট নিতে পারবেনা বাংলাদেশের ফ্রিল্যান্সাররা