শিলচরের ভাষা শহীদদের স্মরণে আসাম, ত্রিপুরা ও পশ্চিমবঙ্গে নানা অনুষ্ঠান

দেশ বিদেশ

কলকাতা প্রতিনিধি | ২০ মে ২০১৭, শনিবার
১৯৬১ সালের ১৯শে  মে বাংলা ভাষার স্বীকৃতির দাবিতে ভারতের আসাম রাজ্যের শিলচর রেলস্টেশনে পুলিশের গুলিতে নিহত ১১ জন ভাষাসৈনিককে স্মরণ করে আসামের নানা জায়গা ও পশ্চিমবঙ্গের কলকাতায় দিনটি মর্যাদার সঙ্গে পালিত হয়েছে। কলকাতায় ভাষা ও চেতনা সমিতির উদ্যোগে ভাষা শহীদদের স্মরণ করা হয়। এর আগে একটি শোভাযাত্রা শহর পরিক্রমণ করে। একুশের ভাষা দিবসের পাশাপাশি ১৯শে মে’র ভাষা দিবসও যে সমানভাবে গুরুত্বপূর্ণ সেকথা বক্তারা তুলে ধরেন। এদিন আসাম রাজ্যের বরাক উপত্যকার শিলচর শহরে ভাষাশহীদদের স্মরণে মূল অনুষ্ঠানটি হয়েছে।  সকালে দলমত-নির্বিশেষে সাধারণ মানুষ হাজির হয়েছিলেন শিলচরের ভাষাবৃক্ষের সামনে। তারা শ্রদ্ধা জানান ভাষাসৈনিকদের। সঙ্গে শপথ নেন, মাতৃভাষার অবমাননা তারা সহ্য করবেন না। শহীদদের চিতাভস্মেও শ্রদ্ধা জানানো হয়। অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আসাম বিধানসভার ডেপুটি স্পিকার দিলীপ পাল, আসামের পূর্তমন্ত্রী পরিমল শুক্ল বৈদ্য, সাংসদ সুস্মিতা দেব, সাবেক বিধায়ক দীপক ভট্টাচার্য প্রমুখ। নতুন প্রজন্মের কাছে ১৯-এর চেতনা পৌঁছে দিতে শিলচর ভাষাশহীদ স্মারক সমিতি এবং বরাক উপত্যকা বঙ্গ সাহিত্য ও সংস্কৃতি সম্মেলন দিনব্যাপী এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। কলকাতা ও বাংলাদেশ থেকেও শিল্পীরা বিভিন্ন অনুষ্ঠান ও আলোচনা সভায় যোগ দিয়েছিলেন। বাংলাদেশ থেকে এসেছে জলের গান। সন্ধ্যায় প্রতিটি ঘরে ও ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানে মঙ্গল দীপ জ্বালানোর কর্মসূচিও পালন করা হয়েছে। গুয়াহাটিতেও দিনটি পালিত হয়েছে। ব্যতিক্রম সামাজিক সংস্থার উদ্যোগে আয়োজিত ১৯ স্মরণ অনুষ্ঠানে অসমিয়া বুদ্ধিজীবীরাও অংশ নিয়েছেন। বাংলাভাষী রাজ্য ত্রিপুরায়ও দিনটি মর্যাদার সঙ্গে পালিত হয়েছে।

 
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন