বড় ক্ষতির আশঙ্কায় ম্যানইউ

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক | ১৯ মে ২০১৭, শুক্রবার
ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রিমিয়ার লীগে শীর্ষ চারে থেকে চলতি মৌসুম ইতি টানার আশা শেষ। এতে এখান থেকে আগামী মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন্স লীগে খেলতে পারবে না তারা। তবে তাদের অন্য একটি আশা বাকি রয়েছে। ইউরোপের দ্বিতীয় শীর্ষ ইউরোপা লীগের ফাইনালে উঠেছে তারা। ২৪শে মে শিরোপার লড়াইয়ে তাদের প্রতিপক্ষে ডাচ ক্লাব আয়াক্স আমস্টারডাম। ওই শিরোপা জিতলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড আগামী মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন্স লীগে খেলার যোগ্য অর্জন করবে। আগের দুই মৌসুম চ্যাম্পিয়ন্স লীগে খেলতে পারেনি তারা। আর এবার যদি তারা এ সুযোগ হাতছাড়া করে তাহলে তাদের সাড়ে সর্বনাশ। বড় আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়বে তারা। ক্লাবটির আর্ধিক বিষয়ক অফিসার ক্লিফ ব্যাটি জানান, ইউরোপা লীগের শিরোপা জিততে না পারলে ম্যানইউ’র ৫০ মিলিয়ন পাউন্ড ক্ষতি হবে। এ আর্থিক ক্ষতি হবে কয়েক দিক দিয়ে। প্রথমত, তাদের স্পন্সর ‘অ্যাডিডাস’ থেকে। বিখ্যাত ক্রীড়াসামগ্রী প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানটির সঙ্গে ৭৫০ মিলিয়ন পাউন্ডে ম্যানইউর ১০ বছরের চুক্তি রয়েছে। চুক্তি অনুযায়ী তারা ক্লাবটিকে বছরে ৭০ মিলিয়ন পাউন্ড দেবে। কিন্তু এর সঙ্গে শর্ত যুক্ত রয়েছে। ম্যানইউ যদি ইউয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লীগে খেলতে পারে তবেই তারা পুরো অর্থ দেবে। আর খেলতে না পারলে ৩০ শতাংশ অর্থ কম দেবে। এতে ইউরোপা লীগ হেরে আগামী মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন্স লীগ খেলতে না পারলে তাদের ২১ মিলিয়ন পাউন্ড কম দেয়া হবে। এছাড়া ম্যানইউর বাকি আর্থিক ক্ষতি হবে ইউরোপ লীগ কেন্দ্রিক। ইউরোপা লীগের শিরোপা জিতলে তারা পুরস্কার হিসেবে পাবে ৬.৫ মিলিয়ন পাউন্ড। আর রানার্স আপ হলে পাবে ৩.৫ মিলিয়ন পাউন্ড। এছাড়া শিরোপা জয়ের কারণে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে আরো অর্থ পাওয়া যাবে। এতে ইউরোপা লীগের শিরোপা জিতলে তাদের মোট আয় দাঁড়াবে প্রায় ৫০ মিলিয়ন পাউন্ড। কিন্তু শিরোপা জিততে না পারলে আশার গুড়ে বালি। বিষয়টির ব্যাখ্যা দেয়ার পর ওল্ড ট্রাফোর্ডের ক্লাবটির আর্থিক বিষয়ক অফিসার ক্লিফ ব্যাটি বলেন, ‘অ্যাডিডাস এং চ্যাম্পিয়ন্স লীগ আমাদের জন্য অনেক বড় পুরস্কার।’
 
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন