সাইবার হামলার জন্য যুক্তরাষ্ট্রের দায় নেয়া উচিত: চীনা গণমাধ্যম

দেশ বিদেশ

মানবজমিন ডেস্ক | ১৮ মে ২০১৭, বৃহস্পতিবার
সাম্প্রতিক ওয়ানাক্রাই র‌্যানসমওয়্যার সাইবার হামলার জন্য কিছুটা হলেও দায় যুক্তরাষ্ট্রের নেয়া উচিত। চীনের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম চায়না ডেইলিতে এ কথা বলা হয়েছে। এতে যুক্তরাষ্ট্রের সমালোচনা করে আরো বলা হয়েছে, বিশ্বজুড়ে সাইবার হামলার ঝুঁকি প্রতিরোধের প্রচেষ্টায় বাধা দিচ্ছে দেশটি।  এ খবর দিয়েছে বার্তাসংস্থা রয়টার্স। চায়না ডেইলির প্রতিবেদনে বলা হয়, মার্কিন ন্যাশনাল সিকিউরিটি এজেন্সির (এনএসএ) উচিত ওই হামলার জন্য কিছুটা হলেও দায় নেয়া। বিশ্বজুড়ে ওয়ানাক্রাই সাইবার হামলায় আক্রান্ত হয়েছে তিন লক্ষাধিক কমিপউটার। শনিবার পর্যন্ত চীনে আক্রান্ত হয়েছে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ৩০ হাজার কমিপউটার। পত্রিকাটি অভিযোগ করেছে ‘সাইবার অপরাধ প্রতিহত করতে নেয়া সমন্বিত প্রচেষ্টা যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকাণ্ডে বাধাগ্রস্ত হয়েছে।’ এতে আরো বলা হয়, এই হামলার কারণে যুক্তরাষ্ট্রে থাকা বিভিন্ন চীনা প্রযুক্তি সংস্থার ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করার জন্য ‘কোনো বিশ্বাসযোগ্য তথ্যপ্রমাণ’ ওয়াশিংটনের কাছে ছিল না। শুক্রবার শুরু হওয়া ওয়ানাক্রাই র‌্যানসমওয়্যার হামলার নেপথ্যে উত্তর কোরিয়ান হ্যাকাররা রয়েছে বলে অভিমত দিয়েছেন কয়েকজন বিশেষজ্ঞ। এতে এনএসএ তৈরি প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে। হামলাটি এমন একটি সময়ে হয়েছে, যখন কিনা চীন ব্যাপক পরিসরে সাইবার নিরাপত্তা আইন প্রণয়নের প্রস্তুতি নিচ্ছিলো।
 যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন ব্যবসা গ্রুপের দাবি, ‘লোকাল ডাটা স্টোরেজ’ বিষয়ক কঠোর আইন ও কড়া নজরদারির প্রয়োজনীয়তা চীনে সক্রিয় বিভিন্ন বিদেশি সংস্থার কর্মকাণ্ড হুমকির মুখে ঠেলে  দেবে। চীনের সাইবার কর্তৃপক্ষ বারবার বিশ্বজুড়ে সাইবার জগৎ শাসনে যুক্তরাষ্ট্রের আধিপত্য নিয়ে সমালোচনা করে সাইবার শাসনকে আরো ন্যায়সঙ্গত করার দাবি জানিয়ে আসছে। বৈশ্বিক সাইবার গভর্নেন্স আরো কঠোর করার কারণ হিসেবে এর আগে যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভুয়া খবরের আধিক্যের কথা বলেছে বেইজিং। উল্লেখ্য, চীনে যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো নিষিদ্ধ।

 
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন