মামিকে হত্যার দায়ে ভাগ্নে শাকিল গ্রেপ্তার

এক্সক্লুসিভ

স্টাফ রিপোর্টার | ১৮ মে ২০১৭, বৃহস্পতিবার
রাজধানীর কাফরুলে মামি রোজিনা আক্তার মিতুকে হত্যায় জড়িত ভাগ্নে আহমেদ শরীফ শাকিলকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। গত মঙ্গলবার রাতে মাদারীপুরের শিবচর থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তার কাছ থেকে একটি ছুরি জব্দ করা হয়। এর আগে, ১৮ই এপ্রিল কাফরুল থানার ইব্রাহিমপুরের ৮৩৯ নম্বর বাড়ির নিচতলায় দুই শিশু সন্তানের সামনে রোজিনাকে গলা কেটে হত্যা করা হয়। এ বিষয়ে নিহতের বড় ভাই ফিরোজ আলম ভূঁইয়া বাদী হয়ে কাফরুল থানায় একটি মামলা করেন।
এদিকে, গ্রেপ্তারের পর গতকাল ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে ঘটনার বিষয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে শাকিল। এর আগে, মামলার তদন্ত কর্মকর্তার কাছে দোষ স্বীকার করে এবং আদালতে ফৌজদারী কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করে শাকিল। পরে তদন্ত কর্মকর্তা আসামি শাকিলকে আদালতে হাজির করে জবানবন্দি রেকর্ড করার আবেদন করেন। তবে এই জবানবন্দিতে আসামি কি বলেছেন তা জানা যায়নি।
মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের উপ-কমিশনার (পশ্চিম) সাজ্জাদুর রহমান জানান, নিহতের স্বামী রফিকুল আলম চৌধুরী সৌদি প্রবাসী। দুই সন্তানকে ভালো স্কুলে পড়ানোর জন্য ঢাকায় থাকতেন রোজিনা। নিহতের স্বামী বিদেশ থেকে তার ভাগ্নে শাকিলের মাধ্যমে টাকা পাঠাতেন। বেশ কিছুদিন ধরে শাকিল পাঠানো টাকা আত্মসাৎ করছিল। এ নিয়ে রোজিনার সঙ্গে তার বাকবিতণ্ডা হয়। এরই জের ধরে তাকে গলাকেটে হত্যা করে শাকিল। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে শাকিল হত্যার দায় স্বীকার করেছে।
২০০৯ সালের ১২ই জুন পারিবারিকভাবে বিয়ে হয় রোজিনার। বিয়ের পর থেকে স্বামীর বাড়ি নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ থানার চরফকিরা গ্রামেই থাকতেন। ওই দম্পতির পহেলা ও বাবুনি নামে দুই মেয়ে রয়েছে। সন্তানদের লেখাপড়ার কথা বিবেচনা করে প্রায় দুই বছর ধরে ঢাকায় থাকতেন রোজিনা। এরমধ্যেই এ ঘটনা ঘটে।

 
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন