‘টেকসই উন্নয়নে প্রয়োজন পরিকল্পিত বিনিয়োগ’

দেশ বিদেশ

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | ২১ এপ্রিল ২০১৭, শুক্রবার
টেকসই উন্নয়নের জন্য পরিকল্পিত বিনিয়োগের বিকল্প নেই। বিনিয়োগ পরিকল্পিত না হলে তার সুফল আসবে না। এজন্য অবকাঠামো খাতে উন্নয়ন গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। তারা সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের যথাযথ পরিকল্পনা ও বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশ তৈরির তাগিদ দিয়েছেন। গতকাল ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (ডিসিসিআই) মিলনায়তনে ‘রোড টু ২০৩০: স্ট্র্যাটেজিক প্রাইরোটিজ’ শীর্ষক এক সেমিনারে বক্তারা এসব কথা বলেন। ইকোনমিক রিপোর্টার্স ফোরামের (ইআরএফ) ও ডিসিসিআইর যৌথ আয়োজনে এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। সেমিনারে প্যানেল আলোচক সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) ফেলো প্রফেসর মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ২০৩০ সালের মধ্যে বাংলাদেশের অর্থনীতি চাঙ্গা, দেশকে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত করার যে লক্ষ্য সরকারের আছে, তা পূরণ করতে হলে অবকাঠামো খাতকে গুরুত্ব দিতে হবে। এর মধ্যে বেসরকারি খাতের বিনিয়োগকে সমানতালে এগিয়ে নিতে হবে। সঙ্গে সঙ্গে সুশাসনের চর্চাও কার্যকর করতে হবে। বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষের (বেজা) নির্বাহী চেয়ারম্যান পবন চৌধুরী বলেন, আগে দেখতে হবে দেশে বিনিয়োগ সচেতনতা আছে কিনা। এটাকে অর্থনৈতিক বিবেচনায় নিতে হবে। তা না হলে প্রকৃত বিনিয়োগ আসবে না।  ইআরএফ সাধারণ সম্পাদক জিয়াউর রহমান বলেন, ২০৩০ সালের মধ্যে আমাদের অর্থনীতি একটি শক্তিশালী অবস্থানে নিয়ে যাওয়ার সুযোগ আছে। তবে সেই সুযোগ কাজে লাগাতে হবে। সেক্ষেত্রে অবকাঠামো খাতকে অগ্রাধিকার দিতে হবে। এটা ভালো হলে বিদেশি বিনিয়োগ আসবে। জিয়াউর রহমান বলেন, দেশের অর্থনীতিকে চাঙ্গা করার জন্য পুঁজিবাজার অন্যতম নিয়ামক। কিন্তু এ স্থানকে এখনো ছোট করে দেখা হচ্ছে।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে অর্থ প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান বলেন, অনেক অসঙ্গতি এখানে ভয়ঙ্করভাবে বিরাজমান। আমাদের দেশে অপচয় অনেক বেশি হয়। যেটা দুর্নীতির চেয়ে অনেক বেশি। এখানে কোনো কাজ সুস্থ, বিজ্ঞানসম্মত ও আধুনিকভাবে করা যায় না। তবে আমার বিশ্বাস, এটা দূর হবে। আমরা বিশ্বাস করি এগিয়ে যেতে পারবো। ইংরেজি দৈনিক ফাইন্যান্সিয়াল এক্সপ্রেসের সম্পাদক মোয়াজ্জেম হোসেন বলেন, টেকসই উন্নয়নের জন্য বড় কাজ হলো ইনক্লুসিভ উন্নয়ন। যেটা কোয়ালিটি ইনভেস্টমেন্টের মাধ্যমে আসতে পারে। ইআরএফ প্রেসিডেন্ট সাইফুল ইসলাম দিলাল সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন। তিনি বলেন, আমাদের দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। তবে কোথায় যেন একটা বাধা রয়েছে। সেটা চিহ্নিত করতে হবে। জনসম্পদকে কিভাবে জনশক্তিতে রূপান্তর করা যায় সেই উদ্যোগ থাকতে হবে।


 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

যুদ্ধ নয় আলোচনায় সমাধান

সিইসি’র বক্তব্য কৌশল হতে পারে

আড়াই ঘণ্টা আলোচনার পর হঠাৎ সংলাপ বয়কট

বর্মী সেনা কর্মকর্তাদের ওপর ইইউ’র নিষেধাজ্ঞা

বাংলাদেশ পরিস্থিতির দিকে নজর রাখছে দিল্লি

কাল ফিরছেন খালেদা ব্যাপক শোডাউনের প্রস্তুতি

সিলেটে সেক্রেটারি গ্রুপের হাতে ছাত্রলীগ কর্মী নিহত

চট্টগ্রাম ও গাজীপুরের দুই শিক্ষার্থী ফাঁদে

‘আসিয়ানে চাপ বাড়ালেই রোহিঙ্গাদের ফেরানো সম্ভব’

এক দিনেই ঢুকলো ২০ হাজার রোহিঙ্গা

ডাকসু’র খোঁজ নিলেন প্রেসিডেন্ট

হেয়ার রোডে ১২ দিন

রাশিয়ায় আইপিইউ সম্মেলনে এমার্জেন্সি আইটেম রোহিঙ্গা ইস্যু

রাধিকাপুর চেকপোস্ট সাময়িক বন্ধ

হাত কেটে তিমি আঁকার 'ভিডিও উদ্ধার'

ঢাকনাযুক্ত যানে রাতের বেলায় বর্জ্য অপসারণের নির্দেশ